somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

এই পোস্টটি লেখক নিজে সরিয়ে ফেলেছেন, বিস্তারিত জানতে পোস্টটির লেখকের সাথে যোগাযোগ করুন।

আলোচিত ব্লগ

অগ্রহায়ণের অনুরণন!

লিখেছেন মনিরা সুলতানা, ১২ ই ডিসেম্বর, ২০১৮ বিকাল ৫:০৮




ভেজা আচঁলের খুটে বেঁধে রাখা কিছু মমতা
জমিয়ে রাখি।
ফজর শেষের স্নিগ্ধতা যখন সমস্ত চরাচরে
দরদী দোয়ায় সিক্ত করে -
মুঠোভরে তুলে রাখি তার দু এক ছটাক।... ...বাকিটুকু পড়ুন

সুইটি আপু

লিখেছেন বাকপ্রবাস, ১২ ই ডিসেম্বর, ২০১৮ বিকাল ৫:২৩


সুইটি আপুর তাড়া আছে
চালাও রিকশা জোরে
রিকশাওয়ালার পা চলেনা
কেমনে চাকা ঘুরে।

সুইটি আপুর ওজন ভারি
চেষ্টা চলে তবু
মাজা খিচে পা চলেনা
সহায় হও প্রভূ।

সুইটি আপু রাগলে ভারি
গালাগালি সাথী
চড় থাপ্পড়ে মন ভরেনা
মারল পাছায়... ...বাকিটুকু পড়ুন

কবিতার মৃত্যু নেই *****************

লিখেছেন , ১২ ই ডিসেম্বর, ২০১৮ রাত ৯:৩২

কবিতার মৃত্যু নেই
******************************


কবিতা তো নয় শুধু নিছক কল্পনার স্তুপ,সময়ের সাথে এযে হয়না বিলীন!
কবিতার হৃদপিণ্ডে আছে ভাষা কম্পনের সিম্ফোনি;সুর লহরী চিরকালীন।

কবিতার অন্তর্গত শব্দের শয়ানে সুপ্ত এক বিশাল পৃথ্বী,
কবিতার... ...বাকিটুকু পড়ুন

গণজোয়ার কিংবা পুঁটি মাছের মত ভোট...

লিখেছেন বিচার মানি তালগাছ আমার, ১৩ ই ডিসেম্বর, ২০১৮ রাত ১২:০১



১. আওয়ামী লীগের নেতা কর্মী, সমর্থক গণ এক ধরনের ট্রমার মধ্যে আছে। তারা ভাবতেই পারেনি(এমনকি বিএনপি সমর্থকরাও না) শেখ হাসিনার অধীনে নির্বাচন করার জন্য বিএনপি-র নেতারা ১৩ কোটি টাকা দিয়ে... ...বাকিটুকু পড়ুন

শেষ বিকেলের আলোয় - মাইলস (লিরিক্স) পথ চলার গান যখন জীবনের ভালোবাসা

লিখেছেন ঠাকুরমাহমুদ, ১৩ ই ডিসেম্বর, ২০১৮ রাত ১:৪৬



শীতের দিন, দ্রুত সন্ধ্যা নেমে আসে, গ্রামের বাড়ী হতে কোলাহল মুখর ঢাকা ফিরে আসছি আবার সেই কর্ম ব্যাস্ততা, রুটিন জীবন যাপন, ছাত্র বয়ষে ভাবতাম কবে পড়ালেখা শেষ হবে কাজ... ...বাকিটুকু পড়ুন

নির্বাচিত ব্লগ

খুমের স্বর্গরাজ্যে

লিখেছেন অভিশপ্ত অপদেবতা, ১৩ ই ডিসেম্বর, ২০১৮ দুপুর ২:৪৫


ট্রেকিং পছন্দ করেন?? হাটতে পারেন ভালো??
কিংবা নেটওয়ার্কের একবারে বাইরে গিয়ে অন্যরকম একটা জীবনের স্বাদ পেতে চান?? তাহলে চলে যেতে পারেন এই জায়গাগুলোতে। হ্য আমি নাফাকুম,ভেলাকুম,আমিয়াকুম,সাতভাই কুম,রেমাক্রির কথাই বলছি। আজকের গল্প তাদের নিয়েই।

আগেই বলে রাখি এরকম ট্র্যকিং এ অনেক রিস্ক থাকে। তা ভিডিও এবং নিচের লেখা খেয়াল করলেই বুঝবেন। তাই বুকে যদি সাহস না থাকে,হার্ট যদি দুর্বল হয় তাহলে না যাওয়াই শ্রেয়।

যেভাবে যাওয়া যায়ঃ
প্রথমেই আপনাকে যে কোন উপায়ে থানচি যেতে হবে। থানচি আপনি দুইভাবে যেতে পারেন।
১. ঢাকা থেকে বান্দরবান । সেখান থেকে জীপ গারি/ চাঁদের গাড়ি অথবা বাসে করেও থানচি যেতে পারেন। জীপ গাড়িতে ৭ জন... ...বাকিটুকু পড়ুন

এই তো জীবন!!

লিখেছেন ওমেরা, ১৩ ই ডিসেম্বর, ২০১৮ দুপুর ২:২০



হেমন্তের হিমেল হিমেল হাওয়ায় গাছের পাতাগুলো একে একে ঝরে যাচ্ছে, আস্তে আস্তে দিনগুলো ছোট হয়ে আসছে ।এই সময়ে মনটা এমনিতেই উদাস উদাস লাগে রাইনার। ইউরোপের ব্যস্ত জীবনে আজকে একটু সময় পেয়ে লাঞ্চের পর একটু শুয়েছিল ঘুম ভাংগার পর রাইনা খাট থেকে নেমে কিচেনে ঢুকে এক মগ কফি নিয়ে বারান্দায় রাখা চেয়ারে বসে প্রকৃতির দিকে তাকিয়ে পাতাশূন্য গাছ গুলোর দিকে তাকিয়ে তার মনটা আরো বেশী উদাস হয়ে যায় সে ভাবনার জগতে চলে যায় আজ থেকে প্রায় বিশ বছর আগে …।

অনার্স শেষ করতেই অনেকটা হুট করেই বিয়ে হয়ে যায় প্রবাসী পরিবারের ছেলে আয়ানের সাথে।... ...বাকিটুকু পড়ুন

স্বপ্নের যাত্রাপথ

লিখেছেন সাধাকালো সন্ধ্যা, ১৩ ই ডিসেম্বর, ২০১৮ রাত ১২:২৯

ভ্রমনের সেই স্মৃতিচারণ অভিজ্ঞতার কথা আজও অনেক বেশি মনে পড়ে । আর মনে হয় বিখ্যাত সেই মোগল সম্রাট জাহাঙ্গীরের কথা ‘পৃথিবীতে যদি কোথাও স্বর্গ থাকে, তবে তা এখানেই আছে, এখানেই আছে এবং এখানেই আছে।’ এমন জায়গায়টি তে কে না যেতে চায়? আসলেই তাই প্রকৃতির অপার নৈসর্গিক সৌন্দর্য যেখানে হাতছানি দিয়ে থাকে , সমুদ্রপৃষ্ঠ থেকে প্রায় সাত হাজার ফুট ওপরে সবুজ উপত্যকা আর শান্ত হ্রদে ঘেরা জায়গাটিকে কেনই বা সম্রাট এমন উপমায় আখ্যায়িত করবে না । আমার চোখে এখনও বর্ণনাতীত এক জায়গায় নাম এটি । হয়তবা এই জন্যেই লোকমুখে শুনি এই জায়গাটি কে পৃথিবীর স্বর্গ বলা হয় । হাঁ এমনি... ...বাকিটুকু পড়ুন

বাংলাদেশ: একটি নবীন রাষ্ট্রের অভ্যুদয়কালীন প্রথম ডাকটিকেট

লিখেছেন ভুয়া মফিজ, ১৩ ই ডিসেম্বর, ২০১৮ রাত ১২:২৭




১৯৭১ সাল। বাংলাদেশের মুক্তিযুদ্ধ তখন বিভিন্ন সেক্টরে পুরোদমে চলছে। সে সময়ে মুজিবনগর সরকার বিভিন্ন স্থানে ফিল্ড পোষ্ট অফিস স্থাপন করে, মুক্তান্চলের তৎকালীন পোষ্ট অফিসগুলোর নিয়ন্ত্রন গ্রহন করে এবং এগুলোর পরিচালনার দায়িত্ব ন্যস্ত করে পরিবহন ও যোগাযোগ মন্ত্রনালয়ের উপর। সে সময়ে বাংলাদেশ সরকারের কোন নিজস্ব ডাকটিকেট ছিল না। পাকিস্তানের বিভিন্ন ডাকটিকেটের উপর ইংরেজি ও বাংলায় 'বাংলাদেশ' সিল মেরে কাজ চালানো হচ্ছিল।



এই পটভূমিকায় বৃটিশ সাংসদ এবং সাবেক পোস্ট মাস্টার জেনারেল জন স্টোনহাউজ শরনার্থীদের অবস্থা সরেজমিনে দেখা এবং বাংলাদেশ সরকারের নেতৃবৃন্দের সাথে বিভিন্ন আলোচনার জন্য কয়েকবার মুজিবনগরে আসেন। উল্লেখ্য, তৎকালীন বৃটিশ সরকার সেসময়ে আমাদের মুক্তিযুদ্ধকে... ...বাকিটুকু পড়ুন

শীতের রাতে সিলেটে এক কাপ চা!

লিখেছেন শাইয়্যানের টিউশন (Shaiyan\'s Tuition), ১২ ই ডিসেম্বর, ২০১৮ রাত ১১:৪৭


সিলেটে আজ রাতে বেশ ঠান্ডা পড়েছে। সন্ধ্যা গত হয়ে রাতে নেমে এলেও, চারদিকের আলোকিত এই পরিবেশে অন্ধকার তেমন একটা জেঁকে বসতে পারছে না। জানালা দিয়ে বাইরে তাকালে কেমন যেন এক আদি ভৌতিক আবেশ মনে চেপে ধরতে চায়। মনে হয় যেন কোন এক ভীন গ্রহে বাস করছি। হয়তো হঠাৎ করেই কোন তিন মাথা আর বাইশটা হাত-পা-ওয়ালা এলিয়েন ফেরিওয়ালা চোখের সামনে ভুস করে ভেসে উঠে বলবে, 'এ চা গরম! মামু, এক কাপ লাগামু?'

সত্যি, চা-এর খুবই তেষ্টা পেয়েছে সেই কখন থেকে. অথচ, বানিয়ে দেওয়ার কেউ নেই...যা করার সব নিজেকেই করতে হবে। সিলেটে এসেছি একাই থাকছি! কেন জানিনা, বেশ কয়েক দিন পর... ...বাকিটুকু পড়ুন