somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

আমার পরিচয়

যে কোনো ভূমিকায় সমানে লড়ে যাই, আপনি যেমন চান আমি ঠিক তাই...

আমার পরিসংখ্যান

নান্দনিক নন্দিনী
quote icon
লেখালেখি হচ্ছে প্রেমে পড়ার মতো একটা ব্যাপার, কোনো ধরনের কর্তৃত্ব জাহির করা নয়।
আমার সকল পোস্ট (ক্রমানুসারে)

সাজ তো শয্যার উপযোগী…

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ০১ লা জুন, ২০২০ দুপুর ২:৩৫



গার্লিক এন্ড জিঞ্জার বুফেতে চটকদার এক নারীকে দেখে গলা দিয়ে খাবার নামছিলো না। নারীটি চল্লিশ মিনিট ধরে অপেক্ষা করছে সাথে আমাদের দৃষ্টিদূষণ। অবশেষে আসলেন সেই জেমস বন্ড! বহিরাবরন হালচাল দেখে মনে হলো ডিফেন্সে কর্মরত। এই নারীও বন্ডের নায়িকাদের মত পোশাক পরিধানে অতি আধুনিক। বন্ধুদের আড্ডায় এই সাজকে আমরা শয্যার... বাকিটুকু পড়ুন

৬ টি মন্তব্য      ১৪৩ বার পঠিত     like!

সমাজ কেমন মেয়ে চায়?

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ২৬ শে মে, ২০২০ রাত ১১:৫৩



১৮৭৯ সালে হেনরি ইবসেনের ‘ডলস হাউজ’এর নায়িকা নোরা বের হয়ে এল তার অসম্মানের সংসার ছেড়ে। স্বামীর কোড অফ কন্ডাক্টের বিধিনিষেধ এর সামনে দাঁড়িয়ে নিজের প্রতি প্রায় সমান ও পবিত্র দায়িত্ব পালনের ব্রত নিয়ে। নাটকটি নোরার সংসার ছেড়ে বেরিয়ে আসার দৃশ্য দিয়ে শেষ হলেও খুব জানতে ইচ্ছে করে, কোথায়... বাকিটুকু পড়ুন

২৯ টি মন্তব্য      ৪৫৫ বার পঠিত     like!

শেষ বিকেলে নিয়েছিলাম নিঃস্ব হওয়ার ঝুঁকি!

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ২২ শে মে, ২০২০ রাত ১১:১৬



'দেখবো দেখাবো পরস্পরকে খুলে
যতো সুখ আর দুঃখের সব দাগ,
পরীক্ষা হোক কার কতো অনুরাগ'…

মেঘে মেঘে আকাশে যে ছবির লেখালিখি হয় রোজ, তা সুন্দর হলেও বড় ক্ষণায়ু। অর্থহীন, সামঞ্জস্যহীন এই জীবন থেকে পালিয়ে বেড়াই অপ্রত্যাশিত পুরষ্কারের ভয়ে। জীবনের সব ক্ষোভ শেষমেশ ছোট্ট একটুখানি দুঃখে রূপ নিয়েছে। ব্যথার স্থান অবশ হয়ে... বাকিটুকু পড়ুন

২৮ টি মন্তব্য      ৩৫১ বার পঠিত     like!

জিতছেন আপা, জিতছেন!

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ২১ শে মে, ২০২০ রাত ১২:২৯



ঐযে লোকটাকে দেখতে পাচ্ছেন জানালা দিয়ে বাইরে তাকিয়ে আছে উনি আমার স্বামী। জানেন লোকটাকে আমি ভালোবেসে বিয়ে করেছিলাম। পরিবারের অমতে। মাস্টার্স পরীক্ষা শেষ হলো ২টয় সন্ধ্যা ৭টায় ছিলো আমার হলুদ। আপনি বিয়ে করেছেন? হেসে ফেললাম। সময় নিয়ে উত্তর দিলাম ‘না’। ঠিক কাজ করছেন। সম্ভবত গতরাতের ঝগড়ার দগদগে জ্বালা আবার... বাকিটুকু পড়ুন

২৫ টি মন্তব্য      ৩৬৪ বার পঠিত     like!

আঁচল ভরে চুমু কুড়োই...

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ১৩ ই মে, ২০২০ রাত ১১:০৪



'আকাশটাকে ঘুম পাড়িয়ে চাঁদ জেগে থাকবে রাতভর,
আমার গল্প ফুরিয়ে যাবে...তবু..., আপনি বলবেন, তারপর?'

প্রেমের মধ্যে একটা অবাধ্য ব্যাপার আছে। আয়োজন করে অপেক্ষা করলে তার দেখা মেলা দায়। যখনই তার আগমন অপ্রত্যাশিত এবং অসুবিধাজনক, তখনই সে মহা সমারোহে পালকি চড়ে আসে। প্রেম তো আবদার করে আদায় করার মতো বিষয় নয়, প্রেমের... বাকিটুকু পড়ুন

৪৩ টি মন্তব্য      ৩৬৬ বার পঠিত     like!

'তুই যা করছোস, এই প্রেম আর টিকবো!'

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ০৫ ই মে, ২০২০ রাত ১১:২৩



অনার্স পড়াকালীন সময়ে ডাকসুর সামনের হাফওয়ালটা ছিলো আমাদের ক্রাইম স্পট। যেদিন আমাদের মন ফুরফুরা থাকতো চার বান্ধবী মিলে ছেলেদের বিব্রত করতাম। জেনে বুঝে প্ল্যান করে যেকোনো একজন ছেলের দিকে চার বান্ধবী গভীর মনোনিবেশ করে তাকিয়ে থাকতাম। যেসব ছেলেরা ডাকসুর সামনের রাস্তা ধরে সেন্ট্রাল লাইব্রেরির দিকে যেত অথবা সেন্ট্রাল লাইব্রেরি থেকে... বাকিটুকু পড়ুন

২৮ টি মন্তব্য      ৩৪৫ বার পঠিত     like!

সেখানে হৃদয়, বুদ্ধি, আয়ু, প্রেম প্রভৃতির রেখা খটখট করে

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ২৭ শে এপ্রিল, ২০২০ রাত ১০:৪৫



'ভাল্লাগেনা' বলতেও আজকাল আর ভাল্লাগেনা। গত ৪০দিন ধরে আমি না্নাভঙ্গীতে সেলফোনের স্ক্রিনের দিকে তাকিয়ে থাকি। ভাবছিলাম ব্যবহার করতে করতে আমি সেলফোনসেটটা নষ্ট করে ফেলছি, বাস্তবে ঘটেছে উল্টো, সেলফোনটাই বরং আমাকে নষ্ট করছে। দিন দিন আমি বখে যাচ্ছি! হুমায়ূন আহমেদের গল্প সমগ্র ১০তম খন্ডের শেষ গল্পটাতে হ্রিহ্রিলা একজন... বাকিটুকু পড়ুন

১২ টি মন্তব্য      ২৩৪ বার পঠিত     like!

সাইয়েমা হাসানের ‘ফ্রেন্ডলি ফায়ার’

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ৩০ শে মার্চ, ২০২০ রাত ৮:২৯



এদেশের সাধারণ মানুষের স্বাস্থ্যব্যবস্থা নিরাপদ রাখতে সরকার সরকারি-বেসরকারি অফিসগুলোতে দশদিনের সাধারণ ছুটি ঘোষণা করেছেন। যেহেতু কোভিড-১৯ বা করোনা ভাইরাস জনিত রোগ তাই দশদিনের সাধারণ ছুটির মূল উদ্দেশ্য জনসাধারণ ঘরে থেকে নিজেদেরকে আশংকামুক্ত রাখুক। পরিস্থিতির নাজুকতা এবং ভাইরাসের দ্রুত বিস্তার হওয়ার আশংকা থেকে সরকার সেনাবাহিনীকে মোতায়েন করেছেন সাধারণ মানুষ যাতে... বাকিটুকু পড়ুন

৪৪ টি মন্তব্য      ৪৯০ বার পঠিত     like!

সরকারের জিরো টলারেন্সের ‘জিরো’ এখনো যথেষ্ট মজবুত নয়…

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ০৩ রা মার্চ, ২০২০ রাত ১০:৩৯



সম্প্রতি আমেরিকার প্রথমসারির মাগ্যাজিন সিও ওয়ার্ল্ড-এ ‘দক্ষিন এশিয়ার সবচেয়ে ব্যয়বহুল দেশ বাংলাদেশ’ শিরোনামে একটি প্রতিবেদন প্রকাশিত হয়েছে। স্বভাবতই প্রশ্ন উঠে আসে, তবে কেমন আছে এদেশের সাধারণ মানুষ? উত্তরটা নির্ভর করছে, চারপাশটাকে আপনি বাইনোকুলার বা দূরবীনে দেখবেন... নাকি বাইফোকাল লেন্সে দেখবেন...। বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ টানা তৃতীয়বার ক্ষমতায় আছে। দলটির ১৯১৮ সালের... বাকিটুকু পড়ুন

৩৬ টি মন্তব্য      ৪৫৭ বার পঠিত     like!

ফ্যামিলি নিডস ফাদার…

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ১৫ ই ফেব্রুয়ারি, ২০২০ রাত ৮:৫৩



এই শহরের ডাস্টবিনে এবং তার আশেপাশে প্রায়শই জীবিত কিংবা মৃত শিশু পাওয়া যায়। সম্প্রতি চট্টগ্রামের ভাগাড়ে জুতার বাক্সের ভোরবেলাতে পথশিশুরা কুড়িয়ে পায় এক কন্যাশিশুকে। ভৈরবে নবজাতককে ভিক্ষুকের কাছে রেখে পালিয়ে গেছেন মা। ফেনীর জেনা্রেল হাসপাতালের সিড়ির নীচে ফেলে যায় পরিবার। গতবছর ১৬মার্চ শনিবার ট্রাংকবন্দি নবজাতক উদ্ধার হয় জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের... বাকিটুকু পড়ুন

১৪ টি মন্তব্য      ২২৬ বার পঠিত     like!

তোমার সাথে খেলার ছলে, তোমার কথায় ছিলাম ভুলে…

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ২৪ শে জানুয়ারি, ২০২০ রাত ৯:০২
৩৪ টি মন্তব্য      ৫০৪ বার পঠিত     like!

‘অথবা ভুলের নামে বেড়ে ওঠা সেই প্রেম, সেই পরিচয়; আমি তাকে নিঃসঙ্গতা বলি…’

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ১০ ই জানুয়ারি, ২০২০ রাত ১০:১০
২২ টি মন্তব্য      ৪৮০ বার পঠিত     ১২ like!

পালাবার পথ খুঁজি রোজ, বুঝি…

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ০৮ ই নভেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:৩৪



‘বয়লিং ফ্রগ’ সিনড্রোম একটা জনপ্রিয় মেটাফোর। একটা ব্যাঙকে যদি আপনি একটি পানি ভর্তি পাত্রে রাখেন এবং পাত্রটিকে উত্তপ্ত করতে থাকেন তবে ব্যাঙটি পানির তাপমাত্রার সাথে সাথে নিজের শরীরের তাপমাত্রা ভারসাম্যে রাখতে থাকে। পানির উত্তাপ বাড়ার সাথে সাথে ব্যাঙটিও নিজের সহ্য ক্ষমতা বাড়াতে থাকে, লাফ দিয়ে বেরোনোর পরিবর্তে। কিন্তু একসময়... বাকিটুকু পড়ুন

২৪ টি মন্তব্য      ৩৪৩ বার পঠিত     like!

তারে আমি কেমন করে বলি, ব্যথাটা ঠিক কোথায় লেগেছে…

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ২৭ শে অক্টোবর, ২০১৯ রাত ১০:৩১
১৪ টি মন্তব্য      ৩৭১ বার পঠিত     like!

মূল্যবোধ ছুঁড়ে ফেলা সমাজ...

লিখেছেন নান্দনিক নন্দিনী, ২৪ শে অক্টোবর, ২০১৯ রাত ৯:১২



৩৫ বছর আগে আমেরিকায় একটি সামাজিক বিজ্ঞাপন প্রচারিত হতো। একটি দামি গাড়ির গ্লাস নামিয়ে ছুড়ে ফেলা হচ্ছে এক শিশুকে। সঙ্গে সঙ্গে ব্যাকগ্রাউন্ড ভয়েজ বলতো, ‘আমরা বিশ্বের সবচেয়ে অতৃপ্ত জাতি। নিজেদের ব্যবহৃত পণ্যাদি ডাস্টবিনে যেমন ফেলে দিতে পারি, তেমনি নিজেদের স্বার্থে প্রিয় সন্তানকেও রাস্তায় ছুড়ে ফেলতে কুণ্ঠাবোধ করি না।... বাকিটুকু পড়ুন

১২ টি মন্তব্য      ২৬০ বার পঠিত     like!
আরো পোস্ট লোড করুন
ব্লগটি ২০১৭৩০ বার দেখা হয়েছে

আমার পোস্টে সাম্প্রতিক মন্তব্য

আমার করা সাম্প্রতিক মন্তব্য

আমার প্রিয় পোস্ট

আমার পোস্ট আর্কাইভ