somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

ব্লগ পরিবারে একটি বছর

৩১ শে জুলাই, ২০০৯ রাত ১:১০
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :

এই ব্লগ পরিবারটিতে আমার জন্ম মাত্র একটি বছর।যদিও এখনও আমার সময়কাল ১১মাস ৪ সপ্তাহ দেখাচ্ছে তবুও আমি জানি আমার একটা বছর পূর্ণ হয়ে গিয়েছে এখানে।তাই লিখে ফেললাম বসে বসে এই একটা বছরের সঙ্গী ব্লগ পরিবারটিকে নিয়ে কিছু কথা।এই একটি বছরের এমন একটি দিন খুঁজে পাওয়া যাবেনা, যেদিনটিতে আমি আমার এই পরিবারটিকে ভুলে থাকতে পেরেছি। শতব্যস্ততায়, হাজারো কাজের মাঝে এই পরিবারটি আমার মনের মাঝে সদাবিরাজমান ছিলো।

আসলে লেখালিখির কথা যদি বলি, দেখা যাবে সত্যিকারের লেখা যাকে বলে সেসব লেখার ল ও আমি জানিনা। আমি যা লিখেছি সবই ছিলো আমার মনের সুপ্ত কিছু কথা, যা এখানে আসার আগে এতদিন ডায়েরীর পাতায় লিখেছিলাম। কখনও গান, কখনও নিজেরই সাথে নিজের কথা তবে আসলেই এই একটা বছরে আমি যা এখানে সবচাইতে বেশী উপভোগ করেছি তা আমার নিত্য নতুন কর্মকান্ড গুলো সবার সাথে শেয়ার করাটা। তবে ছবিব্লগগুলো দেবার সময় খেয়াল করেছি, ব্লগ লেখালিখিতে এই ছবি দেওয়া ব্যাপারটা বিশেষ করে কাঁটামুন্ড ছবি দেওয়াটা অনেকেই এককেবারেই সহ্য করতে পারেনা। সেসব পোস্টে মাইনাসগুলো দেখে সে কথা বেশ বুঝেছি। :P:P:P পরবর্তী বছর গুলোয় যদি বেঁচে থাকি, আমার এই কাঁটামুন্ডু-ছবি ব্লগ চিরতরে বন্ধ করতে হবে।:P:-*:((

ব্লগে অনেক মজার মজার, সিরিয়াস আবার কখনও কখনও মান অভিমান , ভুল বুঝাবুঝি অনেক লেখা দেখেছি।কিন্তু সব চেয়ে খারাপ লাগে কিছু কিছু মন্তব্য বা পোস্ট যা অন্যকে আঘাত দিয়ে করা হয়। ব্লগে লুল, ছাগু এগুলো খুবি প্রচলিত শব্দ। কিন্তু এসব আমার একদমই পছন্দ হয়নি কখনও। :| যদিও সম্প্রতি লুল-ফুল দিবস পালিত হল এই ব্লগে। নারীবিদ্বেষী সাইলেন্সার:P শুরু করেছিলো সেদিনটি। একটু একটু রাগ লাগছিলো তার উপর প্রথমে তবে অনেক মজা পেয়েছি একের পর এক একেকজনের মজার মজার সব পোস্টে।:P

ব্লগে লিখতে লিখতে ও পড়তে পড়তে অনেক কিছু করার ইচ্ছে ও আইডিয়া পেলাম।তারমধ্যে অন্যতম হল ছোটদের জন্য নানারকম আর্ট এ্যন্ড ক্রাফট সম্পর্কে একটা বই লিখে ফেলা ।:P জানিনা সে বই দেখে কেউ কখনও কিছু শিখবে কিনা কিন্তু আমি আমার নিজের ভালোলাগার বহিঃপ্রকাশ ঘটাতে পেরে নিজেই মহা আনন্দিত।:):)

তবে এখানে আমার একটি বিশাল প্রাপ্তি আমার ব্লগ পরিবারের সদস্যজনেরা।আমার এই জীবনটায় নিজের বলতে খুব কম মানুষকেই আমি আপন করে পেয়েছি। তবে এখানে যাদেরকে পেলাম তাদের অনেকের মাঝেই আমি দেখেছি ভাই, বোন ও প্রিয় বন্ধুর ছায়া। স্নেহ ভালোবাসায় আমার নিত্যনতুন আবোলতাবোল, শতশত পাগলামী কর্মকান্ডের সাথী করে পেয়েছিলাম তাদেরকে এই একটা বছরে। তাদের ভালোবাসার মূল্য দেবার ক্ষমতা আমার মত স্বার্থপর মানুষের নেই। তবুও জানাই এই একটা বছর সাথে থাকবার জন্য সকলকেই আমার কৃতগ্গতা ও ভালোবাসা।

এখানে আমি কয়েকজনের কথা বিশেষভাবে বলতে চাই , যারা আজীবন আমার কাছে অবিস্মরণীয় হয়ে রইবে।

কালপূরুষ- এইভাইয়াটা আমার অনেক অনেক প্রিয় একজন ভাইয়া। তার মত করে সকলকে সবসময় সবরকম লেখায় অনুপ্ররেনা যোগানো আর কারোই সাধ্য নেই হয়তোবা। তার বিভিন্নমুখী শিল্প প্রতিভার কথা জেনে আমি রিতীমত মুগ্ধ! ভাইয়া তোমার গুড়িয়া ডাকটা আর আমার জন্য ছড়া বানানো এই জীবনে কখনও ভোলা হবেনা আমার।

মনজুরুল হক- আমার অনেক অনেক শ্রদ্ধা ও ভালোবাসার আরেকজন ভাইয়া। তার স্নেহ আমাকে কখন যে এইভাবে ছুঁয়ে গেছে আমি জানতেও পারিনি। এই ভাইয়াটা আমার কোনো লেখা যদি না পড়ে আমি কোনো নতুন লেখা লিখবোনা এই শপথটা আমি তাকে জানিয়ে দিয়েছি।তবে ভাইয়াটা যে সব কঠিন কঠিন বিষয়ে লেখে সেসব পড়ে বেশী ভাগ সময়ই আমার এই ক্ষুদ্র মস্তিস্ক খেলেনা তাই কমেন্ট করতেও পারিনা , কথায় আছেনা মূর্খ ততক্ষন শোভা পায় যতক্ষণ চুপ থাকে সেই অবস্থা।/:)

স্বপ্নজয়- একটা দুষ্টু অথচ মায়াময় ভাইয়া। যার মাঝে একি সাথে দেখেছি বড় ভাই ও একজন স্নেহময় পিতার চেহারা। আদিত্যকে নিয়ে এমন সব লেখাগুলো বুঝিয়ে দেয় কি পরিমান সফল আর ভালো একজন বাবা সে। মা দিবসের ই-বুক লেখাটা তার এক বিশাল কৃত্তিত্ব।
একদিন অবাক হলাম যখন দেখলাম ভাইয়াটা তার পোস্টে লিখেছে ব্লগে তার প্রিয়মুখ নাকি এই বোনটা আমি! :-*

লাল দরজা- এই ভাইয়াটা আমার ব্লগ বলতে গেলে পড়েইনা। তবুও সে কি করে আমার এত প্রিয় হয়ে গেলো সে আমি জানিনা। তবে একদিন চায়ের দাওয়াৎ দিলাম অনেককেই আমার ব্লগে । ভাইয়াটার নাম বাদ পড়ে গেলো। ভাইয়াটা সাথে সাথেই একদম প্রথমেই এসে জিগাসা করলো, এই মেয়ে আমার চা কই?? কি যে লজ্জা পেলামমমমম!!!!!!!!! আমি খুব অভিমানী, আমাকে কেউ ভুলে গেলে জীবনে তাকে মনে তো করাইনা আরো আজীবন রাগটা পুষে রাখি। তাই এই লজ্জাটা আমারি রয়ে গেলো।:((

কৌশিক- লালদরজা ভাইয়ার মত কৌশিক ভাইয়াও আমার আবোলতাবল লেখা পড়েনা।তবুও তার অনেক আগের একটা ঝগড়া পিকনিক গল্প আমার খুব ভালো লেগেছিলো সেই থেকে উনি আমার একজন বড় প্রিয় লেখক ভাইয়া।

অরুনাভ - কেমন কেমন করে এই অরুন আলো ভাইয়াটাও আমার একজন প্রিয় ভাইয়া হয়ে উঠলো একদিন।জানিনা এই ভাইয়াটাকে আমার খুব সহজ সরল একজন ভালো মানুষ মনে হয়।

রুবেল শাহ- আমার ম্যাও ভাইয়াটা। মাঝে মাঝে তার মাথায় টাইম পাস ভূত চাপে বলে আমার ধারনা তখন এসে একটার পর একটা দুষ্টামী কমেন্ট করতেই থাকে।এই ভাইয়াটার সাথে স্মরণীয় হলো আমার পেত্নী ছড়াটা।:P ভাইয়া তুমি যে এত বড় একজন শিল্পীও সেটা জেনে একদিন আমি টাসকি খেয়েছিলাম আর এখন তো আরো বেশী বেশী জানি।

সাইফুর- এই ভাইয়াটা চিকনভাইয়া নাকি আমি জানিনা তবে এই দুজন যখন আমার লেখা পড়ে আমার খুবি ভালো লাগে। আমার মনে হয় দুজনই স্বল্পভাষী মানুষ।

এ.টি.এম.মোস্তফা কামাল - উনি একজন শ্রেষ্ঠ ছড়াকার আমার মতে। খুবি বিনয়ী আর ভালো একটা ভাইয়া।

ধীবর - যে যত কমেন্ট আমাকে দিয়েছে ধীবর ভাইয়ার কমেন্ট ছিলো সবচেয়ে সুচিন্তিত ও মজার। সেসব পড়ে আমি হাসতে হাসতে শেষ হয়ে গেছি। এই ভাইয়াটার লেখা নিয়ে বলতে গেলেও ঠিক মনজুরুল ভাইয়ার লেখা নিয়ে শেষ অংশে যা লিখেছি সেই কথাটাই প্রযোজ্য। তার কঠিন লেখায় কমেন্ট করতে পারিনা কারণ মূর্খ ততক্ষণ......./:)

খলিল মাহমুদ- একজন প্রিয় লেখক ভাইয়া। তার প্রফাইলে লেখা কবিতার লাইনদুটো আমার খুব ভালো লাগে। উনাকে খুব রোমান্টিক একজন মানুষ মনে হয় আর ব্লগারদের নিয়ে গান বানানোটা তার একটা শ্রেষ্ঠ ও বিরাট ধৈর্য্যের কাজ বলেই মনে হয়েছে আমার কাছে।আমার ছবিটা দেখে খুব খুব খুশীতে মনটা ভরে উঠেছিলো কেনো যেন। ভাইয়া যে একটু পাগলাটে মানে একদম ঠিক ঠিক আমার মত তার এই অদ্ভুত সুন্দর কাজটা দেখেও আমার সেটাই মনে হয়েছিলো। পাগলামীতে যেমন আমার অসীম ধৈর্য্য কেউ মূল্য দিলোকি দিলোনা তার ধার না ধেরেই নিজের ভালো লাগতেই মেতে উঠি ঠিক যেন তেমন কিছু।

শান্তির দেবদূত- একজন মজার লেখক। তবে এই ভাইয়াটা যত মজা করেই ভাবীর কথা লিখুক উনি যে ভাবীকে প্রচন্ড ভালোবাসেন তা লেখা থেকেই বুঝা যায়।

জুলহাস - ভাইয়াটার সাথে পরিচয় আমার খুব কম দিনের। তবে এমন একটা সত্যিকারের শিল্পী আমি এখানে পাবো এটা আগে কখনও ভাবিনি। ভাইয়াটাকে দেখতে আমার প্রিয় এক শিল্পী নচিকেতা নচিকেতা লাগে সেটাও প্রিয় হবার তার আরেকটা কারণ।:P

ত্রিভুজ-এই ভাইয়াটা এইতো সেদিন প্রথম আমার একটা পোস্ট পড়লো আবার দেখালাম সেটা তার প্রিয়তেও। খুব অবাক হলাম তার এমন রঙ করাকরি পোস্ট পছন্দ হলো দেখে কারণ তাকে শুধুই টেকী পোস্ট দিতে দেখেছি ।খুব খুশী হয়েছিলাম।

ভাস্কর, বিবর্তনবাদী,উধাও ভাবুক,অন্ধ দাড়কাক,অক্ষর- বন্ধু বলতে আমি তাদেরকেই বুঝি। ভাস্কর একজন অতি ভালোমনের মানুষ, আর যেভাবে মন্তব্য করে এক একটা পোস্ট পড়ে, এমন করে এত ভালোকিছু আমার পোস্টে মনে হয় কেউই দেখতে পায়না ওর মত। উধাও ভাবুককে আমার একটু অভিমানী মনে হয়। বিবর্তনবাদীর মধ্যে কাউকে আঘাত না দেওয়ার একটা মনোভাব দেখেছি, অন্ধ দাঁড়কাক প্রচন্ড বন্ধু বৎসল, আর অক্ষর একটা পাজীর পাঝাড়া প্রিয় বন্ধু।:P

রাহাত- আমার একটা ছোট ভাইয়া।মনে হয় আমার উপরে কোনো কারণে রাগ করেছে। ভাইয়াটা একটা কথা জেনে রেখো তোমার এই আপুটা এত ভালোবাসার যোগ্য নয়।

আকাশ অম্বর,আকাশ পাগলা- জানিনা এই দুই আকাশের লেখাগুলো কেনো আমার এত ভালো লাগে। নতুন করে জেনেছি আরেকজনকে, সেও আরেক আকাশ , আকাশচুরি, বুঝলাম না আকাশরা সবাই কিভাবে এত সুন্দর করে লিখতে জানে!!

অদৃশ্য ,নিবিড়,আবু সালেহ,নম্রতা,ছন্নছাড়ার পেন্সিল, তনুজা,সাজি আপু,সহেলী,চিটি আপু,নির্ঝর নৈঃশব্দ্য,গেওর্গে আব্বাস,লাবণ্য প্রভা, গল্পকার,আশরাফ মাহমুদ, লীনা ফেরদৌস, নাজনীন খলিল আপু, লীনা দিলরুবা- ভাবি এদের মত কবিতা লিখতে গেলে আমাকে পূর্নজন্ম নিতে হবে।:P

হিমালয়,ভাঙা পেনসিল, আহমেদ রাকিব,চোরকাটা, রুবাইয়াৎ, হাইফেন, মেহরাব- বুয়েট গ্রুপ এমনিতেই একটু আঁতেল হয়।:P তবে কেনো যেন এই আঁতেলদের উপরে আমার শ্রদ্ধা, ভক্তি, দূর্বলতা একটু বেশী। মনে হয় অংকে নিজে লাড্ডু বলেই। এদের প্রত্যেকের লেখায় অসাধারন বুদ্ধিমত্তার ছাঁপ রয়েছে।হিমালয়কে আমার এই পৃথিবীর সর্বশ্রেষ্ঠ সৎ মানুষের প্রথম কাতারের একজন মনে হয়। ফাঁকিঝুকি কাকে বলে হিমালয় তা কখনও শেখেনি বলেই ধারনা আমার।আর সে একদিন অনেক বড় কেউ হবে এ আমার বিশ্বাস।ভাঙা পেনসিলটাকেও খুব ভোলাভালা একজন মনে হয় আমার আর চোঁরকাটা তো এমনভাবে দুনিয়া দেখে ছড়া লেখে আমি চেয়ার থেকে ঠাস করে পড়ে যাই। আর হাইফেন দুষ্টুটাকে যদি কোনোদিন করল্লার রস খাওয়াতে পারতাম এক গ্লাস সত্যি সত্যি।শান্তি হত আমার।:P যদিও এরা সবাই আমার ভীষন প্রিয়।

ম্যাভেরিক- এইযে আরেকজন । এই ভাইয়াটাও নিশ্চয় বুয়েটের। শুধু অংক নিয়েই থাকে। ভয়ে সাত হাত দূরে পালাই আমি।:| কিন্তু তার লেখার আর অগাধ গেয়ানের প্রশংসা না করে পারা যায়না।

ইমন জুবায়ের-একজন অনেক অনেক গিয়ানী ( বানান পারিনা) ব্লগার। এত কিছু জানে কি করে ? অবাক হই! সে যখন আমার লেখা পড়ে, কৃতার্থ হই সত্যি সত্যি আমি।

মেঘদূত- মেঘদূতের কথা বিশেষভাবে বলতে হয় কারণ সে আমার প্রতিটি লেখা এক এক করে পড়েছে আমি অবাক হয়েছি এটা দেখে যে আমার এই সব আজগুবী লেখা গুলোর মুল্য্ আমি তার মত করে আর কারো কাছেই মনে হয় পাইনি।

তারার হাসি,নীর্ঝরিনীআপু,সোহানা আপু,সামছা আকিদা
মেহবুবা,শ্রাবনসন্ধ্যা,মমমমমমম আপু,নীরজনআপু,আইরিন আপু,ভোর,শতরুপা,রুখসানা তাজীন,ফেরারী পাখী আপু ও নুশেরা আপু-
এদের ভালোবাসা আর স্নেহের ছোঁয়া এখানে যা পেয়েছি তা এই জীবনে কোনো বোনেদের কাছেই পাইনি আমি। ফেরারী আপুর এক পোস্টে আমার সম্পর্কে তার অনুভুতির লেখা দেখে দুচোখের পানি ঠেকাতে পারিনি একদিন। নীর্ঝরিনীআপু যখন কথা বলে মনে হয় আমি তার একটা ছোট্ট বোন।

জেরীমনি, আউলা,এপু, খুশবু,নাজনীন,টুশকি ,নষ্ট মাথার দুষ্ট বালিকা, রুমমা,চানাচুর- দুষ্টু দুষ্টু মিষ্টি মিষ্টি এরা। এদের মধ্যে রুমমার শিল্পপ্রতিভা দেখে আমি মুগ্ধ! বিশেষ করে সিরামিক পেইন্টটা।

[sbআজনাবীভাইয়া,নকীবুলবারী,মহাকালর্ষি,অপহন্তা ,শফিকুল ,ভেংচুক,নিঃসঙ্গ ,মুকুল ,সব যদি আজ বদলে যেত, জংবাহাদুর,ফাঁকিবাজ,বাবুয়া ,মুনশিয়ানা,লেনিন,নীল দ্বীপের স্বপ্নকন্যা ,আমিই রূপক, বাবুনি সুপ্তি,আখসানুল ,লীলেন ভাইয়া, লিপিকার,স্বজন, নিলা, প্রলয় হাসান- এরা আসে কিনা ব্লগে জানিনা। আমি দেখিনা এদেরকে আর। তবে ভীষন ভীষন মিস করি এদেরকে । জানি ব্লগ দুনিয়া কেনো এই পৃথিবীর নিয়মটাই এমন মানুষ বেশীদিন কাউকে মনে রাখেনা। কিন্তু আমি কাউকে ভুলতে পারিনা তেমন, ইচ্ছে করে যদি ভুলে না থাকি। তাই কষ্ট পাই বেশী বেশী।

দুরের পাখি,মুহম্মদ জায়েদুল আলম,ভুতেরআড্ডা,অসমাপ্ত ,একরামুল হক শামীম,সালাউদ্দিন শুভ্র,সৌপ্তিক,স্পর্শহীন কিছুদিন- এদের লেখা পড়ে পড়ে আমি মুগ্ধ হই। কি করে লিখো তোমরা এমন মন ভুলানো সব লেখা?দূরের পাখী, এমন সব অসাধারন লেখা কি করে লেখো ভেবে পাইনা আমি। তোমাকে কখনও বলা হয়নি তোমার লেখা কি পরিমান ভালো লাগে আমার।কেনো বলিনি তার একটা গোপন কারন আছে।

ভাঙন,অনন্ত দিগন্ত,চাঙ্কু,পলাশমিঞা,বায়োলজী বলে আমি নাকি ছেলে,
বিপ্লব কান্তি,ইমির,আশরাফ-বারামদী,মহলদার,তামিম ইরফান,রাতমজুর,এন এইচ আর,প্রচেত্য,তানজু রাহমান,আন্ধার রাত ,পূর্ব,কাব্য,মানুষ,আমাবশ্যার চাঁদ,নীল-দর্পণ, শ্রাবনের ফুল,পাথুরে,মুক্তবয়ান,রেজোয়ান শুভ, উদাসী স্বপ্ন, অরন্য আনাম,শাওন৩৫০৪,পানকৌড়ি,অভয়ারণ্য ও লীংকন ,
- এদেরকে দুঃখ কখনও ছুঁতে পারেনা বলেই মনে হয় আমার।তামিমের বান্দরবেলা,আন্ধার রাত আর চাঙ্কু এর মজার কমেন্টগুলোয় মনে হয়না কেউ না হেসে পারবে।
সাহারা তুষার ,রাজামশাই,রাতমজুর ,তায়েফ,শফিক আসাদ,শিরোনামহীন, শামসীর, জুলভার্ন,ঝুমী, নাজিম উদদীন, জেডইসলাম,সোনালীডানা,সুস্ময় সুমন,টক্স,দূর্ভাষী, , দূরন্ত , প্রীটি সোনিয়া,চাচামিঞা,নরকেরপাপী,লেখাজোকা শামীম ভাইয়া, হমপগ্র, ধ্রুব০০৭,ফারহান দাউদ, ফয়সল নোই,ফিউশনফাইভ ,সৌম্য ,যীশূ,মৃন্ময় আহমেদ,সত্যান্বেষী,জনারন্যে নিসঙ্গ পথিক| সাদা মনের মানুষ,আশেক ইবরাহীম,সোনালী ডানা,কিংশুক, গিফার , সব্যসাচী প্রসূন সন্দীপন বসু মুন্না মেঘাচ্ছন্ন,জিনাত,নিহন,মিছে মন্ডল,ক্যামেরাম্যান,জুনাইদ কবীর তন্ময়,অরণ্য আনাম,ফ্রুলিংক্স ভাইয়া,রাস্তার ছেলে,সীমন্ত ইসলাম,হাসান মাহবুব,কিরিটি রায়, নিহন নাঈম ,প্রশান্ত শিমুল, প্রীটি সোনিয়া, প্রত্যুৎপন্নমতিত্ব,সাঁঝবাতি'র রুপকথা,কখগ, রাশেদ,রোমাস,,শূন্য আরন্যক,সৌমিত্র মজুমদার ,সুফিয়ান ডটকম,সবুজ,সীমন্ত আহমেদ -এরা সবসময় আমার লেখা গুলো পড়ে আমাকে যে অনুপ্রেরনা যুগিয়েছে তা ভুলে যাবার নয়।সত্যান্বেষী ভাইয়া, তোমার কি মনে আছে সেদিনটার কথা? মিঠির পোস্টের কমেন্ট নিয়ে তোমার সাথে বাক বিতন্ডা। আমি অবশ্য বাক বিতন্ডায় মোটেই অংশগ্রহন করিনি। তুমি যা করেছিলে হাহাহা।:P

জানাআপু- এই আপুটা একজন সঙ্গীতের একনিষ্ঠ ভক্ত তার প্রমান পেয়েছিলাম আমার গান পোস্টগুলো দেবার দিনগুলোয়।:P

জটিল- আমার এক প্রিয় বন্ধুর নাম।তাকে আমার খুব বুদ্ধিমানও মনে হয় আর তার শিল্প প্রতিভার কথা কি আর বলবো! কিন্তু ওকে একটু অভিমানীও মনে হয়।

বরুণা-প্রতিফলন,কিষান কিষানী - তোমরা অতঃপ্রতঃ ভাবেই জড়িয়ে আছো, জড়িয়ে থাকবে আমার জীবনের সাথে।

টোনা- জানিনা তুমি কে? শুধুই জানি খুব চেনা কেউ।

কঁাকন- খুব অদ্ভুতভাবে তুমি চিরস্মরণীয় আমার কাছে কাঁকনমনি।

সুরভীছায়া- একজন বেস্টফ্রেন্ডের নাম

চানক্য- চানক্য এই ব্লগে আমার জানামতে একমাত্র ব্যাক্তি যে আমাকে ব্লক করে রেখেছে তার ব্লগে।ব্লক করুক তাতে আপত্তি নেই , কিন্তু যে কারণে তিনি রুষ্ঠ হয়েছিলেন আমার উপরে সেই কারনটা আমাকে কষ্ট দেয়। আমি অনেক সময় অনেক কথাই এমন বলে ফেলি নিজের অজান্তে তাতে মানুষ আঘাত পায় যা দেওয়া আমার উদ্দেশ্য থাকেনা হয়তোবা। আজকে বলছি ,চানক্য আমি খুবি দুঃখিত তোমাকে নিজের অজান্তে কষ্ট দিয়ে সেদিন।পারলে আমাকে ক্ষমা করে দিও।

পরিশেষে,
অচেনা বাঙালি,অরুণোদয়, অর্পণ দেব, অংকন,অনন্ত রেয়হান,অঞ্জন সানি,ইমন সরওয়ার, অন্যমনস্ক শরৎ ,অনিশ্চিত,অন্যরকম,অনুপ্রবেশ,অপূর্ব সোহাগ, অিনেকত,অন্তিম,অসীম পাল,অলসছেলে,অভয়ারণ্য ,অসাধারণ অচেনা সৈকত , আরিফ থেকে আনা,আহমেদ চঞ্চল ,আজমান আন্দালিব, আসিফ আহমেদ,আদ্রোহ,আলী আরাফাত,আবদুল ওয়াহিদ, আমিই গণিতের শূন্য, অ্যালন, আমি ও আমরা, আবদুর রাজ্জাক শিপন ,আ্যামাটর,আমিনুল ইসলাম,আগামী,আরেফিন জিটি,আল ইমরান, আবু নাসের, আকাশনীল,আমি জাম্বু বলছি,আরিয়ানা,আমি জমিদার,আকাইম্মা,আলকায়ামতি,আহমেদ হেলাল ছোটন,আনোয়ারসাদী,
মারুফডি, k-79er34b,মুনিয়া, সৈয়দ আফছার, মকসুদ আলম,মইন তাসমান, মিশু মিলন,মাহবুব সুমন, মুনীর উদ্দিন শামীম ভাইয়া,মুকুট, মীতু , মগ্নতা,মরুবিজয় ,মোনাবেস্ট ,মেঘবালক অর্ভনীড় ,মুহাম্মদ মোহেব্বুর রহমান,মৃত হাসানের প্রেতাত্মা, মদন ,মিলটন রহমান মিয়াভাই সিলটী , মাদকতা,মোঃ গাউছুল আজম,মিছে মন্ডল চরণদাস, জনৈক আরাফাত , মিঠি,, মানবী, মফিজুল হক, মোহম্মদ রেজা , মুনতাসীর মারুফ,মিঞা ভাই,মাদকতা,মার্কজুবায়ের,মোতাব্বিরকাগু,মিঠুনভাই, মুহিব, মামুন,মাহমুদুল হাসান রুবেল,মুনমুন,মোহাইমেন,মোহনাঢাবিআ২০০৪,মানুষ আমি আমার কেনপাখির মত মন,বিষাক্ত আলো, বিষাক্ত মানুষ, বিদঘুটে, বিবেক সত্যি,
বৃত্তবন্দী, বরফ মাখা জল, বুলবুল পান্না,ব্যতিক্রমী,বোকামাষ্টার ,বদরুল খান ,ব্রহ্মপুত্র ,বিদ্রোহী রণ ক্লান্ত, বুমবুম,প্রিয়তা-প্রথমা ,
বৃষ্টিভেজাসকাল, বর্তমানবাংলা ,বিলাল আহমেদ, বিবর্ণসোহেল,
বটগাছ,রুহী , রাতের পরী,রোহান,রাতিফ,রাঙা মীয়া,রাফা, রিমঝিম ,রিক্সাওয়ালা,রাহাসান,রাজন রুহানি,রফিকুল ইসলাম,রাজন সান , রেটিং রাজর্ষী,রণদীপম বসু ,রাত্রী,রিভু,রূপক,রোবোট রোহান, রিফাজ,রাতের বৃষ্টির শব্দ,রাত, তানভীর আহমেদ
তাহসিন আলম , তারিক-আল-হাসান,তামো ব্লগ,তামজীদ,
তালপাতার সেপাই ,ত্রিশোনকু, তুতুষার, তিতিয়ানাতান্তা, তন্ময়ভট্টাচার্য,
শিট সুজি ,শাহারিয়ার আহমেদ,শেখ রহিম ,শওকত হোসেন মাসুম ,
শেখ জলিল ,শম্পাশাহরিয়ার,শাহ পরান,শান্ত কুটির, শেরজা তপন
শাহারিয়ার, শেখ রহিম ,শিবলী,হরিণসুদীপ ,হামোমপ্রমোদ
জলপাই দেশি,জামালiiuc, জয় রায়,জেনন, জেমসবন্ড জেসী,জয় শান্ত,
েজবীন,জয়িতা,জাফরসাদেক,জানজাবিদ,কণা , কালোমেঘ,
,কিস্তোয়ার,কন্টক ,কিছুকিছু,কখনও মেঘ কখনওবৃষ্টি,~,কলুর বলদ,কক,
কমেন্টবাজ ,হাই৫হাসানহুমায়ুন কবির হাকিম,হৃদছায়া,সজীব,
সমকালের গান, সিটিজিবিডি,স্টর্ম ট্রুপার,সৌরভ হাবিব ,এস রাহমান
সেতু,সুহেল রাজজ,স্বপ্নীল,,সোনা১ সালমা সাদা কাগজ, সর্বদা বেলায়েত
সুখী মানুষ,সুমন হাসান,রামন ,সৈয়দা তাহমিনা বেগম সীমা ,সাদী,সাইফ আসরার,সবাক,সৈয়দ শেইমছুল হুক ,সঞ্জিব,সজল শর্মা,সৈয়দ নাসের,সাইফুল্লাহ, সোজা কথা, সৈয়দ নাসের,সৈয়দ আফছার,,সাইফ শেরীফ, , ইন্ডিয়ানা জোন্স, ~জলতরঙ্গ~ , সাব ষ্ট্যান্ডার্ড ,ওমর হাসান আল জাহিদ,
সাগর বিলাস, সুদীপ চৌধুরী, টোকন,টিপু ,
টংকেশ্বরী,টুইংকল ট্রানজিস্টার,টানিম,এস,আহমেদ এম এ হক, দৌবারিক,
প্রমিতকুমার ,ধূমকেতু ,দেশী ক্যাঙ্গারু, দীপান্বিতা ,দিপক কুমার , দেশী পোলা,দিশাহারা ওমর সোলাইমান,দুঃখবিলাস,দ্বীপবালক, প্রজাপতিমন প্রিয়তমা,পীরসাহেব,,পার্থিবরাশেদ,পুসকি ,পথিক!!!!!!! , এক প্রযুক্তিবিদ,পার্থসারথি , ,পোলাপান,,প্রমিত কুমার ,পুতুল,
চীংখৈ, চিপা রংবাজ চৌধুরী নাজিম উদদীন,চিলেকোঠার সেপাই,চোখের বালি,নির্জন রহমান নামহীনা ,নীল বরষা,নিশ্চুপ আঁধার
নাজিরুল হক,নািহদ, নাসির উদ্দিন, নীল আলো,নদী নূরুল আমীন ,
নিপা,নিলাচল, নহর ,নতুন,লুকার, লুদ্ধক,যাযাবর পাখি
যুগান্তকারী,গোলাপি, কিংকং ,কাউবয়,
ওমর হাসান আল জাহিদ,ঝড়বাদল, ঝর্ণা চৌধুরী,ঝড়ো হাওয়া, খািল িপডাইেত ইচ্ছা করে ,ইচ্ছে,ডালটন ,ভাইপার,ঘটোৎকচ ,
ঘাসফুল,হাল্ক হাসান বিপুল,,হাই ৫ হাসান ,ধূমকেতু
ফারুক আহেমদ রনি, ফয়সাল,ফারুক,ফেণীফ্রুডো, ভোরেরকুয়াশা...
ভিয়েনাস,ওয়ার হিরো, গুপী গায়েন,এম্নিতেই,

সকলেই নানা সময়ে আমার পোস্ট পড়ে ও মতামত দিয়ে আমাকে অনুপ্রেরণা যুগিয়েছেন, তাদের সকলের প্রতি জানাই আমার অকৃত্রিম কৃতগ্গতা ও ভালোবাসা।

সবার জন্য শুভকামনা।

সর্বশেষ এডিট : ২৬ শে নভেম্বর, ২০০৯ বিকাল ৪:১৮
২৪৬টি মন্তব্য ২৪৯টি উত্তর পূর্বের ৫০টি মন্তব্য দেখুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

ছবি সংযুক্ত করতে এখানে ড্রাগ করে আনুন অথবা কম্পিউটারের নির্ধারিত স্থান থেকে সংযুক্ত করুন (সর্বোচ্চ ইমেজ সাইজঃ ১০ মেগাবাইট)
Shore O Shore A Hrosho I Dirgho I Hrosho U Dirgho U Ri E OI O OU Ka Kha Ga Gha Uma Cha Chha Ja Jha Yon To TTho Do Dho MurdhonNo TTo Tho DDo DDho No Po Fo Bo Vo Mo Ontoshto Zo Ro Lo Talobyo Sho Murdhonyo So Dontyo So Ho Zukto Kho Doye Bindu Ro Dhoye Bindu Ro Ontosthyo Yo Khondo Tto Uniswor Bisworgo Chondro Bindu A Kar E Kar O Kar Hrosho I Kar Dirgho I Kar Hrosho U Kar Dirgho U Kar Ou Kar Oi Kar Joiner Ro Fola Zo Fola Ref Ri Kar Hoshonto Doi Bo Dari SpaceBar
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :
আলোচিত ব্লগ

ইসরায়েলী ভোট, নাতানিয়ানাহু পরাজিত হওয়ার সম্ভাবনা আছে

লিখেছেন চাঁদগাজী, ১৮ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সকাল ৭:০৬



***আপডেট: ৯৫% ভোট গণনা হয়ে গেছে। ( সেপ্টেম্বর ১৯)

লিকুদ দল পেয়েছে: ৩১ সীট
নীল-সাদা দল পেয়েছে: ৩২ সীট
বাকী দলগুলো: সর্বাধিক ৫৭ সীট... ...বাকিটুকু পড়ুন

মুক্তিযুদ্ধ আমাদের গৌরব গাঁথা আমাদের ইতিহাস : ঘটনাপঞ্জি ও জানা অজানা তথ্য। [২]

লিখেছেন ইসিয়াক, ১৮ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৩:১৮


[link|https://www.somewhereinblog.net/blog/Rafiqvai/30280327|মুক্তিযুদ্ধ আমাদের গৌরব গাঁথা আমাদের ইতিহাস : ঘটনাপঞ্জি ও জানা অজানা তথ্য। [১]]
২য় পর্ব
যুক্তফ্রন্ট গঠনঃ
৪ ডিসেম্বর, ১৯৫৩।
প্রধান সংগঠকঃ মাওলানা আব্দুল হামিদ... ...বাকিটুকু পড়ুন

দেশে হচ্ছেটা কি!!!

লিখেছেন সাকলাইন তুষার, ১৮ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৯ বিকাল ৪:৩৪

বাংলাদেশের জাতীয় ডাটা সেন্টারে নাকি অনেক অনেক ভুয়া ভোটার আইডির ইনফরমেশন পাওয়া গিয়েছে,এদের প্রায় সবাই রোহিঙ্গা জনগোষ্ঠীর। এই আইডি ব্যবহার করে পাসপোর্ট-এর মতো গুরুত্বপূর্ণ পেপারও বের করে নিয়ে যাচ্ছে... ...বাকিটুকু পড়ুন

মনের কথা শুনতে হয়, মন'ই তো ঈশ্বর

লিখেছেন রাজীব নুর, ১৮ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:১৬



ঢাকা শহরের অবস্থা ভালো না।
আসলে সারা বাংলাদেশের অবস্থাই ভালো না। অল্প কিছু নোংরা মানুষ মিলে দেশের অবস্থা খারাপ করে রেখেছে। খবরের কাগজ পড়া বাদ দিয়ে দিয়েছি। টিভি দেখা... ...বাকিটুকু পড়ুন

মরীচিকা ( পর্ব - ২৮ )

লিখেছেন পদাতিক চৌধুরি, ১৮ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ১০:০৭



সেদিন ইচ্ছে করে কিছুটা খোঁচা দিতেই মিলিদিকে জিজ্ঞাসা করি,
-আচ্ছা মিলিদি, রমেনদাকে তোমার কেমন লাগে?
আমার কথার কোন উত্তর না দিয়ে মিলিদি বরং কিছুটা উদাস ভাবে ম্লান মুখে চুপচাপ দাঁড়িয়ে... ...বাকিটুকু পড়ুন

×