অনুসন্ধান:
cannot see bangla? সাধারণ প্রশ্ন উত্তর বাংলা লেখা শিখুন আপনার সমস্যা জানান ব্লগ ব্যাবহারের শর্তাবলী transparency report
কিছুই নেই বলার
আর এস এস ফিড

আমার লিঙ্কস

আমার বিভাগ

    কোন বিভাগ নেই

জনপ্রিয় মন্তব্যসমূহ

আমার প্রিয় পোস্ট

হ য ব র ল কথামালা

বাংলাদেশে সমকামীদের সামাজিক ও আইনগত স্বীকৃতি দেয়া হোক

১৫ ই ফেব্রুয়ারি, ২০১২ রাত ১০:৩৩ |

শেয়ারঃ
0 0



হিসাব কষে দেখলাম প্রকৃতিই হয়তো এখন সমকামিতা চায় । বিশেষ করো বাংলাদেশের জন্য ব্যাপারটা আরো বেশি মঙ্গলজনক । দেশে জনসংখ্যা এখন প্রায় ১৫ কোটি । ছোট্ট একটা দেশে ঠাঁই নাই ঠাঁই নাই অবস্থা । জনসংখ্যার চাপে ঢাকার প্রায় বসবাসের অযোগ্য হয়ে যাওয়ার মত অবস্থা । এই রকম অবস্থায় সমকামিতাকে সামাজিক ও আইনগত স্বীকৃতি দেয়া হলে অনেকগুলো সুফল পাওয়া যেতে পারে ।

১। সাধারনভাবে বিভিন্ন পরিসংখ্যানে ২-৩% মানুষ নিজেদের সমকামী বলে স্বীকার করেছে । সে হিসাবে বাংলাদেশে সমকামীর সংখ্যাটা ৪৫ লাখ । তারা যদি বিপরীত লিঙ্গের কাউকে বিয়ে না করে সমলিঙ্গের সাথে বিবাহবন্ধনে আবদ্ধ হয় তাহলে সমকামী দম্পতির সংখ্যা হয় ২২ লাখের উপরে । ধরি তাদের মধ্যে প্রাপ্তবয়ষ্ক প্রায় ১৫ লাখ । ১৫ লাখ মানুষ যদি কোন সন্তান জন্ম না দেয় ,তাহলে দেশের উপর একটা বিরাট চাপ কমে যাবে ।

২ । এই ১৫ লাখ দম্পতি তো আর সারাজীবন একাকী থাকবে না । নিসঙ্গতা দূর করার জন্যে যদি একজন করে সন্তানও দত্তক নেয় , তাহলে ১৫ লাখ এতিম শিশুর জীবন ধারনের উপযুক্ত ব্যাবস্থা হয়ে যাবে । এতিমখানার দয়া মায়া ভালবাসাহীন পরিবেশের বদলে পারিবারিক মায়া মমতার মধ্যে দিয়ে বেড়ে উঠবে , এতে বখাটে না হয়ে উপযুক্ত নাগরিক হিসাবে গড়ে উঠার সুযোগ পাবে । দেশের অর্থনীতিতে এই ১৫ লাখ যে বেটার ইকোনোমিক ভ্যালু ক্রিয়েট করতে পারবে তা বিরাট ।

৩। সামাজিক আর ধর্মীয় স্বীকৃতির অভাবে আমাদের দেশের সমকামীরা তাদের স্বাভাবিক জীবন যাপন করতে পারে না । সারাজীবন ধরে অভিনয় করে যায় বিষমকামীর মত । দাম্পত্য জীবনে তারা নিজেরাও সুখী হতে পারে না ,বরং তাদের সাথে যাদের বিয়ে হয়, তারাও অসুখী হয় । সামাজিক আর ধর্মীয় স্বীকৃতি পেলে তারা সুখী জীবন যাপন করতে পারবে , এতে সমকামীদেরও লাভ আবার দেশেরও লাভ । কারন সুখী জনগনের প্রোডাক্টিভিটি অসুখী জনগনের চেয়ে বেশী ।

৬। স্বাভাবিক প্রকাশ্য জীবনের সুযোগ না পেয়ে তারা অনেকসময় বিষমকামির দিকে বা কোন শিশুর দিকে হাত বাড়ায় , যা খুবই আপত্তিকর । স্বীকৃতি পেলে এটা একেবারে বন্ধ না হলেও প্রকোপ যে কমবে তা নিশ্চিত করেই বলা যায় ।



৫। মানুষ প্রজাতি হিসাবে বির্বতনের ধারায় সবচেয়ে বেশী সাকসেসফুল । এই সফলতা এখন আমাদেরই বিপদের কারন হয়ে দাড়িয়েছে । ৭ বিলিয়ন মানুষের শক্তির যোগান দিতে গিয়ে পৃথীবিই সব সম্পদ শেষ হতে চলেছে । এখন তাই দরকার জনসংখ্যার নেগেটিভ গ্রোথ । চিন্তা করে দেখুন বাংলাদেশের জনসংখ্যা যদি তিন ভাগের একভাগ হতো , তাহলো চারপাশের এত ক্রাইসিস কি থাকত ? তাই প্রকৃতি হয়তো একটু ভারমুক্ত হতে চাইছে, মানব বা জীব বিবর্তনের ধারায় এটাও হয়ত কোন নকশা ।

[দয়া করে আমাকে সমকামী ট্যাগ দেবেন না , সমকামীতা ব্যাপারটা নিয়ে সেদিন ভাবছিলাম, তখনই মনে হলো এরকমটা :| ]

 

বিষয়বস্তুর স্বত্বাধিকার ও সম্পূর্ণ দায় কেবলমাত্র প্রকাশকারীর...

 


৬১টি মন্তব্য

 

সকল পোস্ট     উপরে যান

সামহোয়‍্যার ইন...ব্লগ বাঁধ ভাঙার আওয়াজ, মাতৃভাষা বাংলায় একটি উন্মুক্ত ও স্বাধীন মত প্রকাশের সুবিধা প্রদানকারী প্ল‍্যাটফমর্। এখানে প্রকাশিত লেখা, মন্তব‍্য, ছবি, অডিও, ভিডিও বা যাবতীয় কার্যকলাপের সম্পূর্ণ দায় শুধুমাত্র সংশ্লিষ্ট প্রকাশকারীর...

 

© সামহোয়্যার ইন...নেট লিমিটেড | ব্যবহারের শর্তাবলী | গোপনীয়তার নীতি | বিজ্ঞাপন