somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

চুপ করে বসে থাকা ভাল মানুষদের প্রতি আমার একটি খোলা চিঠি [খোলা চিঠি -

১৫ ই মার্চ, ২০১৯ রাত ২:০৯
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :



রাজনীতি ভাল মানুষদের জায়গা। একটা পবিত্র স্থান বলতে গেলে। এখান থেকেই জাতির ভবিষ্যৎ নির্মান হয়।







কিন্তু এখন ঘৃণ্য মানুষে ভরে গেছে রাজনীতির ময়দান। তাঁদের ঘৃণ্য রাজনীতির কারণে রাজনীতি নামটা শুনলেও ঘৃণা লাগে। আর ভাল মানুষরা সেই ঘৃণ্যতা থেকে বাঁচতে রাজনীতি নাম শুনলেই নমস্কার জানিয়ে পিছ ফিরে। রাজনীতি থেকে ভালো মানুষদের এই মুখ ফিরিয়ে নেয়ায় খারাপ মানুষদের খারাপ কাজ করতে আরো সহজ হয়ে যাচ্ছে। ফলে, ধনীরা হয় আরো ধনী, আর গরীবরা হয় আরো গরীব।

যাদের পরিশ্রমের বদৌলতে আজকের এই সুন্দর ও সুসভ্য পৃথিবী গড়ে উঠেছে তারা আজ অবহেলিত। তারা আজ লাঞ্ছিত। তারা আজ বঞ্চিত। কাজী নজরুলের কবিতার মতো এখনো বাবু সাবরা কুলি মজুরদের ফেলে দেয় টেলে। বুকফাটা কষ্টে চোখে আসে জল।


আজকের  সুন্দর ও সুসভ্য পৃথিবী যারা গড়ে তুলেছেন তাঁরা কতটা অবহেলিত,  কতটা লাঞ্ছিত, কতটা দুঃখ কষ্ট বুকে নিয়ে তাঁদের বাঁচতে হয় জানেন?

একটা উদাহরণ দিলে বুঝবেন...

যিনি রিকশা চালান, যিনি রঙ মিস্ত্রি বা রাজমিস্ত্রি, যিনি কুলমজুর, যিনি নাপিত, যিনি ফেরিওয়ালা, যিনি কৃষক, যিনি জেলে তাদের ছেলে মেয়েরা পর্যন্ত তাঁদের পিতা মাতার পরিচয় দিতে লজ্জা করে....?

এরচেয়ে বড় কষ্ট পৃথিবীতে আর কিইবা আছে।

তাই আমি বলি কি , আপমারা যারা  ভালো মানুষ, আপনারা যারা শান্তিপ্রিয় মানুষ  আপনারা রাজনীতি এড়িয়ে চলিয়েন না অনুগ্রহ করে। আপনাদের দূরে থাকার ফলেই খারাপ মানুষদের খারাপ কাজ করা আরো সহজ হয়ে যাচ্ছে। তাঁদের রাজত্ব আরো বাড়ছে। তাঁদের স্পৃহা দিনকে দিন বেড়েই চলছে। অসহায়দের প্রতি তাঁদের অত্যাচার, অনাচার, নিপীড়ন বাড়ছে তো বাড়ছেই।

তাঁদের রাজত্ব, তাঁদের জুলুমের স্পৃহা আর বাড়তে দেয়া যাবে না। তাঁদের পথে রুখে দাঁড়াতে হবে আপনাদের। দিতে হবে বাঁধা, ভাঙতে হবে বাঁধ।

তাই  ভালো মানুষদের প্রতি আমার একখান খোলা চিঠি,








প্রিয় ভালো মানুষ ও শান্তিপ্রিয় মানুষ,  




             প্রথমে আমার ভালবাসা জানবে।                             আপনাদের কাছে একটা অনুরোধ নিয়ে এসেছি।           ঠিক অনুরোধ না। আপনার উপরে জোড়                      খাটাতেই এসেছি।




এগিয়ে আসুন আপনারা। রাজনীতিতে আসুন। ঘুণে খাওয়া সমাজকে বদলে দিতে আসুন। জং ধরা দেশকে চকচকে করতে আসুন। কুলিমজুরদের অধিকার ফিরিয়ে দিতে আসুন। সর্বহারার কান্নাকে হাসিতে রূপান্তর করতে আসুন। খাবার এর অভাবে ব্যাথায় চিনচিন করছে যার পেট তাঁকে আহার করার ব্যবস্থা করতে আসুন। ক্ষুদার ব্যাথায় কাতরানো আর্তনাদরত দেবশিশুর মুখে স্বর্গীয় হাসি ফুটাতে আসুন।


হে ভালমানুষ, হে শান্তিপ্রিয় মানুষ এগিয়ে আসুন আপনি/আপনারা। ঘৃণ্য রাজনীতিকে প্রেমময় আদর্শ রাজনীতিতে পরিণত করতে আসুন। অপবিত্র রাজনীতিকে পবিত্র করতে আসুন। রাজনীতিতে আসুন। রাজনীতিতে আসুন। অতঃপর রাজনীতিতে আসুন।


ও হ্যাঁ, একটি কথা মনে রাখবেন সব সময়। আলবার্ট আইনস্টাইন বলেছেন, "The world will not be destroyed by those who do evil, but by those who watch them without doing anything." 



ইতি

রাজনীতির কষাগাতে জর্জরিত

এক উদ্ভ্রান্ত যুবা দুচোখে যার স্বপ্ন পৃথিবীতে স্বর্গ দেখার।










সর্বশেষ এডিট : ২০ শে মার্চ, ২০১৯ রাত ৯:৩২
১২টি মন্তব্য ১২টি উত্তর

আপনার মন্তব্য লিখুন

ছবি সংযুক্ত করতে এখানে ড্রাগ করে আনুন অথবা কম্পিউটারের নির্ধারিত স্থান থেকে সংযুক্ত করুন (সর্বোচ্চ ইমেজ সাইজঃ ১০ মেগাবাইট)
Shore O Shore A Hrosho I Dirgho I Hrosho U Dirgho U Ri E OI O OU Ka Kha Ga Gha Uma Cha Chha Ja Jha Yon To TTho Do Dho MurdhonNo TTo Tho DDo DDho No Po Fo Bo Vo Mo Ontoshto Zo Ro Lo Talobyo Sho Murdhonyo So Dontyo So Ho Zukto Kho Doye Bindu Ro Dhoye Bindu Ro Ontosthyo Yo Khondo Tto Uniswor Bisworgo Chondro Bindu A Kar E Kar O Kar Hrosho I Kar Dirgho I Kar Hrosho U Kar Dirgho U Kar Ou Kar Oi Kar Joiner Ro Fola Zo Fola Ref Ri Kar Hoshonto Doi Bo Dari SpaceBar
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :
আলোচিত ব্লগ

আমাদের দেশের নানান বাহারি নৌকার হারিয়ে গেছে অধিকাংশই। আসুন, জেনে নিই, কয়েকটির পরিচয়!

লিখেছেন নতুন নকিব, ২৩ শে মার্চ, ২০১৯ সকাল ১১:১২



আমাদের দেশের নানান বাহারি নৌকার হারিয়ে গেছে অধিকাংশই। আসুন, জেনে নিই, কয়েকটির পরিচয়!

গঠনশৈলী ও পরিবহনের ওপর নির্ভর করে বাংলাদেশে বিভিন্ন ধরনের নৌকার প্রচলন রয়েছে। এসব নৌকার রয়েছে মজার... ...বাকিটুকু পড়ুন

অপরূপা চন্দ্রঘোনায় কাটানো কিছু দিন

লিখেছেন জুন, ২৩ শে মার্চ, ২০১৯ সকাল ১১:১৩

আমার ছোট বেলায় এক অপার আনন্দ নিয়ে এসেছিল তিন মাস চন্দ্রঘোনায় অবস্হান। চিটাগাং থেকে চন্দ্রঘোনায় আব্বা বদলী হয়ে গেলেন তার কিছুদিন পরে আমাদেরকেও নিয়ে গেলেন সেই অপূর্ব জায়গাটি তে যার... ...বাকিটুকু পড়ুন

'সোনালী কাবিন' যতবারই পড়ি ততবার রোমাঞ্চকর অনুভূতি হয়

লিখেছেন এম. বোরহান উদ্দিন রতন, ২৩ শে মার্চ, ২০১৯ দুপুর ২:০৫

'সোনালী কাবিন' যতবারই পড়ি ততবার রোমাঞ্চকর অনুভূতি হয়, একজন কবি কি অসাধারণ সনেটই রচনা করেছেন, এমন একজন গুণী কবিকে আমরা তাঁর প্রাপ্য সম্মান দিতে কৃপণতা দেখেছি প্রতিহিংসাপরায়ন হয়ে।

সোনালী কাবিন
কবি আল... ...বাকিটুকু পড়ুন

যে মেয়েটির সাথে জ্বীন ছিলো

লিখেছেন চাঁদগাজী, ২৩ শে মার্চ, ২০১৯ বিকাল ৫:১২



*** কেহ ১ জন আমার পোষ্টটিকে রিফ্রেশ করছেন; নিজকে সন্মান করুন, অপ্রয়োজনীয় কাজ করবেন না ***

তখন আমি ১০ম শ্রেণীতে; এক সকালে যখন স্কুলের দিকে পা... ...বাকিটুকু পড়ুন

আগে কি সুন্দর দিন কাটাইতাম আমরা :(

লিখেছেন কথার ফুলঝুরি!, ২৩ শে মার্চ, ২০১৯ বিকাল ৫:৪২



আগে বলতে সময়টা খুব বেশীদিন আগেরও নয় যেখানে সামুতে আমার নিজেরই বয়স মাত্র ১০ মাস ৩ সপ্তাহ সেখানে আর কতদিন আগেইবা হবে ।
এইতো কিছুদিন... ...বাকিটুকু পড়ুন

×