somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

পিশাচ সংসার ২ (পর্বঃ ২)

০৪ ঠা সেপ্টেম্বর, ২০১৯ রাত ৯:২৪
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :

আগের পর্বের লিংকঃ Click This Link

সবকিছু ঠিকঠাক মিটে গিয়েছে কিন্তু আমার চিন্তা বা মনের খটকা যাই হোক সেটা কমাতে পারছিনা ৷ আগে তো কখনো সন্তানদের নিয়ে এমন কিছু ঘটেনি যা নিয়ে আমার এত খটকায় পড়তে হবে ৷
যদিও শাফিন আর শিরিনকে নিয়ে অনেকদিন খুব চিন্তায় ছিলাম কারণ যদি ওদের মধ্যে ওদের বাবার স্বভাব....... উফ আর ভাবতে পারছিনা আমি ৷
কিন্তু কখনো সন্দেহজনক কিছু দেখিনি ৷ অথচ গতকাল একটা শুভদিনে কলস ভেঙ্গে গেলো আবার শাফিনের জ্যামে সাত ঘন্টা আটকে পরা সব মিলিয়ে আমার মনকে কিছুতেই মানাতে পারছিনা ৷
নাহ আমি কি অযথাই ভাবছি? সাতঘন্টা জ্যাম তো কাকতালীয়ভাবে মিলতেই পারে ৷ কিন্তু না সাত ঘন্টাই কেনো??? উফফ আর ভালোলাগছেনা ৷ অনেক বছর আগে অনেক খারাপ পরিস্থিতি সহ্য করেছি আর পারবোনা ৷ আমার যে ভয়টা ছিলো সেটা যেনো সত্যি না হয় ৷

-- মা! মা!

-- নিধী কি হয়ছে মা? তোমার চোখমুখ এমন লাগছে কেনো??

-- মা আমাদের দারোয়ান মার্ডার হয়েছে!!

-- কিহ??????

আমার মাথাটা বনবন করে ঘুরছে ৷ এ কি শুনলাম? ভয়টা এ জন্য না যে সে মারা গেছে ভয়টা এটাই সে মার্ডার কেনো হলো? পরিবারে কেউ নেই কারো সাথেপাছে নেই ৷ ডিউটি করে আর নিচতলাতেই সিরিঘরের পাশে ঘুমায় এমন একজন মানুষের শত্রু থাকতে পারেনা থাকলেও মার্ডার করবে এমন শত্রু নিশ্চই নেই ৷

কাল থেকে কি হচ্ছে এসব??

শুনে যতটা ভয় পেয়েছিলাম দারোয়ানকে দেখে আমার পিলে চমকে গেলো ৷ মনে হচ্ছে অনেক বছর আগে হওয়া সেই পার্লারের বাচাল মহিলার লাশ দেখছি ৷ একই রকম করে মারা হয়েছে ৷ একই মানে একদম একই ৷ আমার ভয় আরো বেড়ে গেলো ৷ আমি তাড়াতাড়ী দারোয়ানের রুমে গেলাম রুমে যেতেই চোখে পড়লো সেই অভিশপ্ত গোলাপ "কালো গোলাপ"

আজ আর আমার ঘুম হবে না ৷ কিন্তু এসব কেনো হচ্ছে? এমন তো হবার কথা নয় ৷ সব মেনে নিলাম কিন্তু কালো গোলাপটা কখনোই কাকতালীয় হতে পারেনা ইম্পসিবল ৷ এই জিনিসের ব্যখ্যাটা একমাত্র আমিই হয়তো জানি এই পৃথিবীতে ৷ আর জানি বলেই আমার বুকের ভেতরের এই ভয় সরাতে পারছিনা ৷ কিন্তু কোন সূত্র ধরে কাকে খুজবো আমি? কাকে সন্দেহ করবো? শাফিনকে??? না না এটা হতে পারেনা ৷ আমার ছেলে এমনটা হতে পারেনা ৷ কিন্তু দারোয়ানকে মারলো অবশ্যই কিছু ঘটেছিলো কিন্তু সেটা কি??

নাহ চুপ থাকলে হবেনা আমার এর উত্তর খুঁজতেই হবে ৷ মাথা ঠান্ডা রাখো নাদিয়া তোমাকে পারতে হবে বহু বছর আগে পেরেছিলে তুমি তোমাকে পারতেই হবে ৷ হুম মনকে স্থির করে নিয়েছি ৷ আমি পারবো ৷ চুল পেকেছে তো কি হয়েছে? আমি সাহসী আছি হুহ ৷

মনে মনে হাসলাম ৷ এখন আমাকে সব পরিস্থিতি নিখুতভাবে খেয়াল রাখতে হবে ৷ আমার বাড়ীতেই সবকিছুর উত্তর আছে ৷ এখন বুঝতে পারছি শাফিনের সাত ঘন্টা জ্যাম আর শাকিলের সাত ঘন্টা জ্যামে আটকা পরায় হয়তো কোনো যোগসূত্র আছে ৷ আমাকে সাবধান থাকতে হবে ৷

আজ ১৫ দিন হলো শাফিনের বিয়ের সাথে আমার মেয়েটারো ৷
আজকে আমি সুযোগের অপেক্ষায় বসে আছি ৷ কারণ আমার মামী শ্বাশুড়ী বয়স্কা মহিলা সাথে কুসংস্কারচ্ছন্ন ৷ আমার বৌমা নিধি তাকে ভাত দেবার সময় হাত ফসকে গায়ে পরে যায় তার জন্যে নতুন বৌমাকে আচ্ছা ঝাড়ি মেরেছেন সে ৷ আমি পাশের ঘর থেকে সব দেখেও ঘুমের ভান করে ছিলাম ৷ কারণ আমি চাই উনি বকুক তাহলেই আমি বুঝতে পারবো শাফিন আসলেই তারা বাবার মতো....... নাহ ভাবতে পারছিনা ওপরওয়ালার কাছে একটাই চাওয়া এটা যেনো না হয় ৷ কিন্তু আমাকে তো কোন একটা সুত্র ধরে এগোতে হবে ৷ তাই এটাই প্রথম প্রচেষ্টা ৷

মামী শ্বাশুড়ীকে হাতছাড়া করছিনা কিছুতেই ৷ উনি বাথরুমে গেলেও আমি বহিরে দাড়িয়ে থাকছি ৷ টানা তিনদিন হয়ে গেলো কিন্তু কিছুই হলোনা ওনার ৷ যদিও হতে চাইলেও হতে দিতামনা শুধু সত্যটা জানার জন্য এই রিস্ক নেয়া ৷ নাহ তিনি চলেও গেলেন কিন্তু কোন সমস্যা হয়নি তার ৷ তাহলে কি ভুল ভাবছি আমি? কিন্তু কালো গোলাপটা??? সব তালগোল পাকিয়ে যাচ্ছে ৷

মানুষ এতো নিচু মনের কি করে হয়? আজ বাল্যবন্ধু সুমনার সাথে দেখা ৷ ছেলে মেয়ে বিয়ে দিলাম সে কিনা আমাকে বলে এখন বিয়ে করতে ৷ সহসটা দেখে অবাক হলাম৷ বললোই বা কোন রুচীতে কথাটা? যত্তসব !!!

শিরিনের সাথে আজ কথা হলো অনেক্ষন ৷ সবাই নাকি ওকে অনেক আদর করে যাক ভালই হয়েছে ৷ ছোট মেয়েটা আমার সুখে থাকলেই আর কি চাই?
ফোন বেজে উঠলো,

রিসিভ করতেই আমি আকাশ থেকে পড়লাম সুমনার মৃত্যু সংবাদে ৷ কাল মেয়েটার সাথে কথা হলো আর আজ!!!

সুমনাকে শেষ দেখা দেখতে এসে দেখলাম অন্য কিছু ৷ হ্যাঁ গোলাপ সেই কালো গোলাপ!!!
শাফিন হতে পারেনা তাহলে ওর বউয়ের অপমানে সেদিন ও চুপ থাকতো না ৷ তাহলে কে????

শাকিল কি ফিরে এসেছে তবে??????

চলবে....

পরের পর্বের লিংকঃ Click This Link

সর্বশেষ এডিট : ০৬ ই সেপ্টেম্বর, ২০১৯ দুপুর ২:৫৩
৪টি মন্তব্য ৩টি উত্তর

আপনার মন্তব্য লিখুন

ছবি সংযুক্ত করতে এখানে ড্রাগ করে আনুন অথবা কম্পিউটারের নির্ধারিত স্থান থেকে সংযুক্ত করুন (সর্বোচ্চ ইমেজ সাইজঃ ১০ মেগাবাইট)
Shore O Shore A Hrosho I Dirgho I Hrosho U Dirgho U Ri E OI O OU Ka Kha Ga Gha Uma Cha Chha Ja Jha Yon To TTho Do Dho MurdhonNo TTo Tho DDo DDho No Po Fo Bo Vo Mo Ontoshto Zo Ro Lo Talobyo Sho Murdhonyo So Dontyo So Ho Zukto Kho Doye Bindu Ro Dhoye Bindu Ro Ontosthyo Yo Khondo Tto Uniswor Bisworgo Chondro Bindu A Kar E Kar O Kar Hrosho I Kar Dirgho I Kar Hrosho U Kar Dirgho U Kar Ou Kar Oi Kar Joiner Ro Fola Zo Fola Ref Ri Kar Hoshonto Doi Bo Dari SpaceBar
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :
আলোচিত ব্লগ

এক জীবন

লিখেছেন ঘুটুরি, ২৭ শে জানুয়ারি, ২০২০ বিকাল ৪:২৭



গাছটার সাথে বন্ধুত্ব অনেক দিনের। কি ভীষন বর্ষনের সন্ধা, কি তপ্ত রোদেলা দুপুরবেলা, অথবা ফাল্গুনের পড়ন্ত বিকেলবেলায় জীবনটা যখন ভীষন ক্লান্ত, অথবা কোথাও কথা বলার কেউ থাকত... ...বাকিটুকু পড়ুন

=তুমি নাকি আজ ইচ্ছে ঘুড়ি?

লিখেছেন কাজী ফাতেমা ছবি, ২৭ শে জানুয়ারি, ২০২০ বিকাল ৫:০৮



ডানা নাকি গজিয়েছে
তোমার পিঠে দুটো
ইচ্ছে ফড়িঙ হয়ে নাকি
যেথায় ইচ্ছে ছুটো?

তুমি নাকি ইচ্ছে ঘুড়ি
উড়তে নেইকো মানা
তোমার নাকি গজিয়েছে
দুটো ইচ্ছে ডানা?

পালাবে কী আমায় ছেড়ে
দূর কোথাও তুমি?
সুখের ঢেউয়ে দুলছে বুঝি
তোমার মনোভূমি?

ডানার উপর... ...বাকিটুকু পড়ুন

করোনা ভাইরাস মানুষের থেকে অর্থনীতি ও ফ্যাইন্যান্সকে ধরেছে শক্ত করে

লিখেছেন চাঁদগাজী, ২৭ শে জানুয়ারি, ২০২০ রাত ৮:০৪



**** উহানে ভ্রমন ও চলাচল বন্ধ করার পর, ৫০ লাখ মানুষ চলাচল করে নববর্ষে যোগদান করায়, শহরের মেয়রকে পদত্যাগ করতে বাধ্য করেছে চীন সরকার। ****

চীনের উহান শহর... ...বাকিটুকু পড়ুন

আপনি কি বুদ্ধিমান?

লিখেছেন রাজীব নুর, ২৭ শে জানুয়ারি, ২০২০ রাত ১০:২৮



১. আপনি বিস্কুট কিনতে গেলেন। দোকানি বললেন দাম ২০% বেড়ে ১২০ টাকা হয়েছে। আপনি বললেন না, না, ২০% কমাতে হবে। দোকানি ১২০ টাকার ওপর ২০% কমিয়ে দাম নিলেন। বলুন তো... ...বাকিটুকু পড়ুন

রাস্তায় পাওয়া ডায়েরী থেকে-১২৯

লিখেছেন রাজীব নুর, ২৮ শে জানুয়ারি, ২০২০ সকাল ১০:১৯



১। আর মাত্র ৪ দিন পর বইমেলা শুরু।
সব প্রকাশনীতে উৎসবের আমেজ। বাংলাদেশে যত মেলা হয়- তার মধ্যে বই মেলা'ই বেষ্ট।
গতবার বই মেলায় বৃষ্টির কারনে প্রকাশক'রা ব্যাপক ক্ষতির মুখে... ...বাকিটুকু পড়ুন

×