somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

বাংলাদেশ: ফিরে দেখা ৪ আগস্ট

০৪ ঠা আগস্ট, ২০১৮ দুপুর ১:০৫
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :


সহজলভ্য রেফারেন্সের অভাবে বাংলাদেশের ইতিহাসের অনেক ঘটনা বিভিন্ন ব্যক্তি বিভিন্নভাবে বিশ্লেষণ করেন। এতে ইচ্ছায় বা অনিচ্ছায় বাংলাদেশের ইতিহাস বিকৃত হচ্ছে, বিতর্কের সৃষ্টি হচ্ছে। তাই ইতিহাসের উল্লেখযোগ্য কিছু ঘটনার তথ্য সহজলভ্য করার উদ্দেশ্যে 'ফিরে দেখা বাংলাদেশ' সিরিজ। প্রায় সব তথ্য যাচাই-বাচাই করে দেশের প্রধান সংবাদপত্রসমূহ থেকে নেওয়া হয়েছে। বাংলাদেশের ইতিহাসে ৪ আগস্ট ঘটে যাওয়া উল্লেখযোগ্য রাজনৈতিক ও সামাজিক ঘটনাবলি:

১৯৭২
====
ভূমিহীন কৃষকদের নিকট ১২ লক্ষ একর জমি বিনামূল্যে বন্দোবস্ত দেওয়ার সিদ্ধান্ত।

১৯৮১
====
চট্টগ্রাম বিদ্রোহ ও প্রেসিডেন্ট জিয়া সম্পর্কে শ্বেতপত্র প্রকাশ।

১৯৮৪
====
এরশাদের বঙ্গবন্ধুর মাজার জিয়ারত!

১৯৯৪
====
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় ক্যাম্পাসে ছাত্রদল-ছাত্রলীগের ভয়াবহ বন্দুকযুদ্ধ।

১৯৯৮
====
"তারা কান্নাকাটি করে, মাফ চেয়ে ক্ষমতায় গিয়ে এখন দেশবাসীকে কাঁদাচ্ছা।"—এক সমাবেশে খালেদা জিয়া

২০০০
====
"রাষ্ট্রের অন্য দুটি অঙ্গের যদি জবাবদিহিতা থাকে তা হলে বিচারবিভাগের থাকবে না কেন?—সাংবাদিকদের কাছে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা

২০০১
====
ঢাকা ত্যাগের আগে সাংবাধিক সন্মেলনে কার্টার বলেন:
১) সংসদ বর্জন নয়, ২) হরতাল নয়, ৩) সন্ত্রাস নয়, ৪) ভোট কেন্দ্রে স্থানীয় পর্যবেক্ষক, ৫) কমপক্ষে ৬০ মহিলা এমপি—এই পাঁচ প্রশ্নে আওয়ামী লীগ ও বিএনপি একমত হয়েছে।

২০০২
====
বান্দরবানে উপজাতীয় সন্ত্রসীদের ব্রাশফায়ারে আটজন নিহত।

২০০৩
====
ফ্রিগেট মামলায় শেখ হাসিনার বিরুদ্ধে চার্জশিটের প্রতিবাদে বিক্ষোভ।

২০০৪
====
'তত্ত্বাবধায়ক সরকার বৈধ।'—হাইকোর্টের এক পূর্ণ বেঞ্চের রায়।

২০০৫
====
২০ দিন আমেরিকা সফর শেষে শেখ হাসিনার ঢাকা প্রত্যাবর্তন।
- - - - - - - -
"সংস্কার প্রস্তাব মেনে নিয়ে নির্বাচন দিন।"— আমেরিকা থেকে ফিরে শেখ হাসিনা
- - - - - - - -
নীলফামারীর ডাঙ্গামারা সীমান্তে বিএডএফ-এড় গুলিতে ইদ্রিস আলী (২৫) নামক এক কৃষক নিহত।

২০০৬
====
আবারো সংগঠিত হচ্ছে জেএমবি
ভালুকায় ২৬ জন জঙ্গি গ্রেফতার হওয়ায় প্রশাসনের টনক নড়েছে।
- - - - - - - -
স্বপ্নের সিরিজ জয় হল না বাংলাদেশের
স্বাগতিক জিম্বাবুয়ের কাছে ৭ উইকেটের ব্যবধানে বাংলাদেশের হার।
- - - - - - - -
জকিগঞ্জ সীমান্তে বিডিআর বিএসএফ মুখোমুখি
লোকজন বাড়ি-ঘর ছাড়ছে।

২০০৭
====
কর ফাঁকি : বসুন্ধরা মালিকের আলিশান বাড়ি সিল
রাজধানীর গুলশান ২ নম্বর এলাকায় বসুন্ধরা গ্রুপের চেয়ারম্যান আহমেদ আকবর সোবহান ওরফে শাহ আলমের গুলশানের আলিশান বাড়িসহ সমুদয় মালামাল ক্রোক করা হয়েছে। কর ফাঁকির মামলায় আদালতের রায়ে গুলশান থানা পুলিশ গতকাল শনিবার ক্রোক চালায়। জাতীয় রাজস্ব বোর্ডের দায়ের করা কর ফাঁকির মামলায় আদালত রায়ে শাহ আলম, তার স্ত্রী ও সন্তানসহ বসুন্ধরা গ্রুপের ৮ জনের সম্পত্তি জব্দ করার নির্দেশ দেন।

২০০৮
====
জরুরি অবস্থার মধ্যে ৪ সিটি ও ৯ পৌর নির্বাচন


দেশে ওয়ান ইলেভেনের পটপরিবর্তনের পর তত্ত্বাবধায়ক সরকারের আমলে অনুষ্ঠিত প্রথম নির্বাচন। রাজশাহী, সিলেট, বরিশাল ও খুলনা সিটি কর্পোরেশন এবং রাজশাহীর নওহাটা, গাজীপুরের শ্রীপুর, ময়মনসিংহের ফুলবাড়িয়া, সিলেটের গোলাপগঞ্জ, চট্টগ্রামের সীতাকুন্ড, চুয়াডাঙ্গা, মানিকগঞ্জ, শরীয়তপুর ও বগুড়ার দুপচাঁচিয়া পৌরসভায় মেয়র পদে এই নির্বাচন। দেশের ইতিহাসে প্রথমবারের মত জরুরি অবস্থায় অনুষ্ঠিত এই নির্বাচনে আওয়ামী লীগ দলীয়ভাবে অংশগ্রহণ করলেও বিএনপি কেন্দ্রীয়ভাবে নির্বাচন বর্জন করে। চারদলীয় জোটের অন্যান্য শরিক দলও নির্বাচন বর্জন করে।

২০০৯
====
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের তিন শিক্ষকের দণ্ড বাতিল
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রবিক্ষোভ ও সহিংস ঘটনায় তিন শিক্ষকের বিরুদ্ধে দেওয়া রায় বাতিল করেছেন আদালত। এই তিন শিক্ষক হলেন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক সমিতির সাবেক সভাপতি সদরুল আমিন, সাবেক সাধারণ সম্পাদক আনোয়ার হোসেন ও হারুন-অর-রশিদ। আদালত দণ্ডাদেশ বাতিল করে তাঁদের খালাস করে দিয়েছেন। ঢাকার প্রথম অতিরিক্ত মহানগর দায়রা জজ আবুল বাসার এ আদেশ দেন।
জনাকীর্ণ আদালতে রায় ঘোষণার সময় আপিল আবেদনকারী তিন শিক্ষক হাজির ছিলেন না। পরে অধ্যাপক আনোয়ার হোসেনের আইনজীবী আব্দুল মান্নান খান সাংবাদিকদের বলেন, সরকার তিন শিক্ষকের সাজা মওকুফ করলেও দণ্ডাদেশ বহাল ছিল। এ কারণে তাঁরা কোনো গুরুত্বপূর্ণ পদে বসার সুযোগ পেতেন না। তা ছাড়া শিক্ষকেরা সব ক্ষেত্রে দণ্ডপ্রাপ্ত ব্যক্তি হিসেবে গণ্য হতেন। তিনি বলেন, ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ ও গোয়েন্দা সংস্থার চাপ থাকায় নিম্ন আদালত নিরপেক্ষভাবে বিচার করতে পারেননি। তাই রায়ের বিরুদ্ধে আপিল করা হয়।
গত বছরের ২২ জানুয়ারি ঢাকার প্রথম অতিরিক্ত মুখ্য মহানগর হাকিম আদালত জরুরি বিধিমালা ভঙ্গ করে বিশ্ববিদ্যালয়ের বিভিন্ন জায়গায় ভাঙচুর ও মিছিল-সমাবেশে প্রত্যক্ষ বা পরোক্ষ প্ররোচনা দেওয়ার দায়ে জরুরি বিধিমালার ৩(৪) বিধিতে তিন শিক্ষককে দুই বছরের কারাদণ্ড দেন। সরকার ওই দিনই সংবিধানের ৪৯ অনুচ্ছেদের ক্ষমতাবলে তিন শিক্ষকের দণ্ড মওকুফ করে তাঁদের মুক্তি দেয়।
গত বছরের ২৫ ফেব্রুয়ারি তিন শিক্ষক দণ্ডাদেশের বিরুদ্ধে মহানগর দায়রা জজ আদালতে পৃথক আপিল করেন।
ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের মাঠে ২০০৭ সালের ২০ আগস্ট খেলা দেখার সময় ছাত্র ও সেনা সদস্যদের মধ্যে অপ্রীতিকর ঘটনাকে কেন্দ্র করে ছাত্রবিক্ষোভ শুরু হয়। পরে তা রাজধানীর বিভিন্ন এলাকায় ছড়িয়ে পড়ে এবং সহিংসতার রূপ নেয়। এ ঘটনায় পুলিশ বাদী হয়ে রাজধানীর বিভিন্ন থানায় ৫৩টি মামলা করে। এর মধ্যে শাহবাগ থানায় করা হয় ১১ মামলা। আসামি করা হয় ৮২ হাজার অজ্ঞাতনামা ব্যক্তিকে। তদন্ত শেষে পুলিশ ১৪টি মামলায় অভিযোগপত্র দেয়। সাক্ষ্য-প্রমাণ না পাওয়ায় চূড়ান্ত প্রতিবেদন দেওয়া হয় ৩৯টি মামলায়।

২০১০
====
আশুলিয়ায় প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়ার জমির স্থাপনাসহ তিন শতাধিক অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ
ঢাকার সাভারের আশুলিয়া থানার মির্জানগর এলাকার উত্তর রামচন্দ্রপুর ও টাকসুট মৌজাধীন প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের ১৮ শতাংশ জমির ওপর নির্মিত স্থাপনাসহ কয়েকটি শিল্পপ্রতিষ্ঠানের মালিকানাধীন তিন শতাধিক স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে।
আশুলিয়ায় উচ্ছেদের ব্যাপারে প্রশাসনের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, আদালতের নির্দেশ অনুযায়ী টাকসুট মৌজার ৪৬৮ একর জমি দখলমুক্ত করে প্রকৃত মালিকদের কাছে বুঝিয়ে দেওয়া হয়েছে। তবে উচ্ছেদের শিকার শিল্পপ্রতিষ্ঠান কর্তৃপক্ষ ও স্থাপনার মালিকদের দাবি, ক্রয়সূত্রে তাঁরা ১৫-২০ বছর ধরে এসব জমি ভোগদখল করছেন। বিনা নোটিশে তাঁদের উচ্ছেদ করা হয়েছে।
- - - - - - - -
‘ফোর্স রিজার্ভ আছে, যথাযথ সময়ে প্রয়োগ করা হবে’ : জামায়াত নেতা আবদুল্লাহ তাহের
জামায়াতের কর্মপরিষদ সদস্য সৈয়দ আবদুল্লাহ মো. তাহের বলেছেন, সময় এলে যথাযথ ব্যক্তি ও সরকারের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তিনি বলেন, সরকার সব কিছুতেই বাড়াবাড়ি করছে। কিন্তু ভুলে গেলে চলবে না, জামায়াতের দেড় থেকে দুই কোটি সমর্থক রয়েছে। ফোর্স রিজার্ভ আছে, যথাযথ সময় যথাযথ ব্যক্তি ও সরকারের ওপর প্রয়োগ করা হবে।

২০১১
====
সাংসদ পাপিয়াসহ তিন আইনজীবী গ্রেপ্তার
বিএনপির সংরক্ষিত মহিলা আসনের সাংসদ সৈয়দা আশিফা আশরাফী পাপিয়াসহ তিনজন আইনজীবীকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। রাজধানীর শাহবাগ থানা ও মহানগর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) তাঁদের গ্রেপ্তার করে। গ্রেপ্তার হওয়া অন্য দুই আইনজীবী হলেন তৌহিদুল ইসলাম ও আবু বকর সিদ্দিক। গত ২ আগস্ট সংবিধান নিয়ে ইসলামী ঐক্যজোটের একাংশের চেয়ারম্যান ফজলুল হক আমিনীর কটাক্ষপূর্ণ বক্তব্যের অভিযোগে রিটের শুনানিকালে হাইকোর্টের এজলাসকক্ষে হইচই ও বিশৃঙ্খলার ঘটনায় ওই রাতেই পুলিশ বাদী হয়ে ১৪ জন আইনজীবীসহ অজ্ঞাতনামা ৩০ থেকে ৪০ জনের বিরুদ্ধে শাহবাগ থানায় মামলা করে। এ ঘটনায় পাপিয়াসহ তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হলো।
- - - - - - - -
বিরোধী দলের ইতিবাচক সাড়া পেলে সংলাপ: হানিফ
অন্তর্বর্তীকালীন সরকারের প্রশ্নে বিরোধী দলের ইতিবাচক সাড়া পেলে সংলাপে বসবে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ।
- - - - - - - -
সংবিধান অনুযায়ী পার্বত্য জেলার লোকজন ক্ষুদ্র নৃতাত্ত্বিক জনগোষ্ঠী - দীপু মনি
দেশের তিন পার্বত্য জেলার লোকজনকে সংবিধান অনুযায়ী ক্ষুদ্র নৃতাত্ত্বিক জনগোষ্ঠী হিসেবে উল্লেখ করা হয়েছে। কাজেই তাদের পরিচয় সেভাবেই থাকবে। পররাষ্ট্রমন্ত্রী দীপু মনি এক আন্তমন্ত্রণালয় বৈঠক শেষে তাঁর দপ্তরে সাংবাদিকদের কাছে এ মন্তব্য করেন।

২০১২
====
বিরোধী দলের ইতিবাচক সাড়া পেলে সংলাপ: হানিফ
অন্তর্বর্তীকালীন সরকারের প্রশ্নে বিরোধী দলের ইতিবাচক সাড়া পেলে সংলাপে বসবে বলে জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ।
- - - - - - - -
সাবেক ৪২ আমলার সচিবালয়ে প্রবেশে নিষেধাজ্ঞা
‘রিটায়ার্ড সিভিল অফিসার্স ফাউন্ডেশন’ নামের একটি সংগঠন প্রতিষ্ঠা করেছেন প্রশাসনের শীর্ষ পর্যায়ের ৪২ জন সাবেক আমলা। প্রশাসনে রাজনৈতিক নিয়োগ, পদোন্নতি ও পদায়ন বন্ধ করতে সরকারের ওপর চাপ সৃষ্টি করতে চান তাঁরা।
ফাউন্ডেশনের বেশির ভাগ সদস্য বিএনপির নেতৃত্বাধীন চারদলীয় জোট সরকারের আমলে সচিবসহ শীর্ষ পর্যায়ের কর্মকর্তা ছিলেন। সরকার বলছে, প্রশাসনে বিশৃঙ্খলা ছড়াতে ও মানবতাবিরোধী অপরাধে অভিযুক্তদের রক্ষা করতেই এই ফাউন্ডেশন গঠন করা হয়েছে। সরকার তাঁদের গতিবিধির ওপর নজর রাখছে। তাঁদের সচিবালয়ে প্রবেশে নিষেধ করা হয়েছে।

২০১৩
====
সবার জন্য খুলে গেল কুড়িল উড়ালসেতু


প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আজ রাজধানীর কুড়িল উড়ালসেতু (ফ্লাইওভার) উদ্বোধন করেছেন। দুপুর পৌনে ১২টার দিকে সেতুটি উদ্বোধন করার পরপরই সর্বসাধারণের জন্য এটি খুলে দেওয়া হয়। আশা করা হচ্ছে, এর ফলে সংশ্লিষ্ট এলাকায় যানজট তুলনামূলকভাবে কমে যাবে। এটি ঢাকা-সিলেট, ঢাকা-ময়মনসিংহ ও ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে সংযোগ সেতু হিসেবেও কাজ করবে। এই সেতু দিয়ে নিরবচ্ছিন্নভাবে পূর্বাচল থেকে প্রগতি সরণি হয়ে রামপুরা, বনানী, নিকুঞ্জ ও উত্তরা আবাসিক এলাকায় একমুখী যান চলাচল করবে। রাজউকের নিজস্ব অর্থায়নে ২০১০ সালে এই উড়ালসেতুর কাজ শুরু হয়।
৩ দশমিক ১ কিলোমিটার দীর্ঘ এই সেতু নির্মাণ করতে ব্যয় হয়েছে ৩০৩ কোটি টাকা।
- - - - - - -
আমানতের খেয়ানত করবেন না: প্রধানমন্ত্রী
আজ রোববার কুড়িল উড়ালসেতু উদ্বোধন শেষে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, ‘আমাদেরই ঠিক করে নিতে হবে, আমরা অন্ধকার যুগে ফেরত যাব, না আলোকিত পথে হাঁটব। ভোটাধিকার মানুষের সাংবিধানিক অধিকার। এটি জনগণের আমানত। কোনো অপাঙক্তেয় ব্যক্তিকে ভোট দিয়ে আমানতের খেয়ানত করবেন না। এমন কাউকে নির্বাচিত করুন, যিনি দেশপ্রেমিক, দেশের উন্নয়ন অব্যাহত রাখবেন।’ প্রধানমন্ত্রী বলেন, দেশের উন্নয়নে সরকারের অনেক পরিকল্পনা বাস্তবায়নাধীন আছে। সরকারের ধারাবাহিকতা প্রয়োজন।

২০১৪
====
জুলাইয়ে রেকর্ড রেমিটেন্স
চলতি বছরের জুলাই মাসে দেশের ইতিহাসে সর্বোচ্চ রেমিটেন্স এসেছে। এ মাসে প্রবাসী বাংলাদেশিরা রেমিটেন্স পাঠিয়েছেন ১৪৮ কোটি ২০ লাখ মার্কিন ডলার। এর আগে দেশে সর্বোচ্চ রেমিটেন্স আসে ২০১২ সালের অক্টোবরে, ১৪৫ কোটি ৩৬ লাখ ডলার।
- - - - - - -
মাওয়ায় শতাধিক যাত্রী নিয়ে লঞ্চডুবি
মুন্সীগঞ্জে মাওয়া-কাওড়াকান্দি নৌপথে মাওয়া ঘাটে পদ্মা নদীতে শতাধিক যাত্রী নিয়ে পিনাক-৬ নামের একটি লঞ্চ ডুবে গেছে। মুন্সীগঞ্জে পদ্মা নদীতে অন্তত আড়াইশ' যাত্রী নিয়ে সকাল ১১টার লঞ্চটি ডুবে যায়। বেলা একটার দিকে শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত বেশ কয়েকজনের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে বলে খবর পাওয়া গেছে। বেলা সাড়ে ১১টার দিকে এ দুর্ঘটনা ঘটে। লঞ্চটি শরীয়তপুরের কাওড়াকান্দি থেকে মাওয়া লঞ্চঘাটে যাচ্ছিল।

২০১৫
====
‘মন্ত্রীত্ব গেলেও মহাসড়কে অটোরিকশা চলাচলে ছাড় নেই।' —ওবায়দুল কাদের
সড়ক পরিবহণ ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এমপি বলেছেন, ‘‘জাতীয় মহাসড়কে সিএনজি, ব্যাটারি চালিত অটোরিকশা, ইজিবাইক, নসিমন, করিমন, লেগুনার বেপরোয়া চলাচলের কারণে অহরহ দুর্ঘটনা ঘটেছে। এতে চালক-হেলপার ছাড়াও যাত্রীদের প্রাণহানির ঘটনা ঘটেছে।”

২০১৬
====
হাসনাত ও তাহমিদ রিমান্ডে


নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক শিক্ষক হাসনাত করিম ও কানাডার একটি বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্র তাহমিদ হাসিব খানকে রিমান্ডে নিয়ে আট দিন করে জিজ্ঞাসাবাদের অনুমতি পেয়েছে পুলিশ।
হলি আর্টিজানে হামলার পর এক বিদেশির ধারণ করা কয়েকটি ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে। ওই ভিডিওতে হামলাকারীদের সাথে বেশ ঘনিষ্ঠ হয়ে কথা বলতে ও ঘুরতে দেখা যায় হাসনাত করিমকে; যার বিরুদ্ধে নিষিদ্ধ ঘোষিত জঙ্গি সংগঠন হিযবুত তাহরীরের সঙ্গে যোগাযোগের অভিযোগ ছিল নর্থ সাউথ বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক থাকাকালে।
- - - - - - -
সাংবাদিক প্রবীর সিকদারের বিচার শুরু


তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি আইনে দায়ের করা মামলায় সাংবাদিক প্রবীর সিকদারের বিরুদ্ধে অভিযোগ গঠন করেছেন আদালত। ফলে এ মামলায় তার বিরুদ্ধে বিচার শুরু।
মামলার অভিযোগ থেকে জানা যায়, প্রবীর সিকদার গত বছরের ১০ আগস্ট আসামি তার ফেসবুকে ‘আমার জীবনের শঙ্কা তথা মৃত্যুর জন্য যারা দায়ী থাকবেন’ এ শিরোনামে একটি স্ট্যাটাস দেন। শিরোনামের নিচে তার (প্রবীর সিকদার) মৃত্যুর জন্য যারা দায়ী থাকবেন এমন তিনজনের নাম উল্লেখ করেন। এদের মধ্যে স্থানীয় সরকার, পল্লী উন্নয়ন ও সমবায় মন্ত্রী (এলজিআরডি) খন্দকার মোশাররফ হোসেনের নাম রয়েছে।
- - - - - - -
সুন্দরবনে ‘অপারেশন পাইরেটস হান্ট’ শুরু
সুন্দরবনের জলদস্যু ও বনদস্যুদের বিরুদ্ধে ‘অপারেশন পাইরেটস হান্ট’ শুরু করেছে বাংলাদেশ নৌ-বাহিনী ও কোস্টগার্ড। বেলা ১১টায় পূর্ব সুন্দরবনের হাড়বাড়িয়া এলাকা থেকে এই অপারেশন শুরু হয়।
সুন্দরবনের জলদস্যু ও বনদস্যুদের বিরুদ্ধে ‘অপারেশন পাইরেটস হান্ট’ শুরু করেছে বাংলাদেশ নৌ-বাহিনী ও কোস্টগার্ড। বেলা ১১টায় পূর্ব সুন্দরবনের হাড়বাড়িয়া এলাকা থেকে এই অপারেশন শুরু হয়।
- - - - - - -
‘বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় ও মাদ্রাসাশিক্ষার মধ্যে পার্থক্য নেই’ : অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী
শিক্ষাবিদ ও ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইমেরিটাস অধ্যাপক সিরাজুল ইসলাম চৌধুরী বলেছেন, বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয় ও মাদ্রাসাশিক্ষার মধ্যে পার্থক্য নেই বললেই চলে। দুই জায়গায় মাতৃভাষার চর্চা সেভাবে নেই। ইতিহাস পড়ানো হয় না। দেশীয় সামাজিক-সাংস্কৃতিক আচরণের শিক্ষা দেওয়া হয় না। এ কারণে এখানকার শিক্ষার্থীদের মধ্যে বিচ্ছিন্নতাবোধ তৈরি হয়, আর বিচ্ছিন্নতা তো একটি রোগ। বিচ্ছিন্নতা থেকেই এই তরুণেরা মাদকাসক্ত হয়ে পড়ে, নয়তো জঙ্গি হয়।

২০১৭
====
সংসদে আবারও ষোড়শ সংশোধনী পাস হবে: অর্থমন্ত্রী
বিচারপতিদের অভিশংসনের ক্ষমতা সংসদের হাতে রেখে প্রণীত সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী যতবার আদালতে বাতিল হবে, ততবার তা সংসদে পাস করা হবে বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত।
- - - - - - - -
যাঁদের টাকা আছে পার্লামেন্ট তাঁদের: বিমানমন্ত্রী
বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটনমন্ত্রী এবং ওয়ার্কার্স পার্টির সভাপতি রাশেদ খান মেনন বলেছেন, যাঁদের টাকা আছে পার্লামেন্ট (সংসদ) এখন তাঁদের। এই পার্লামেন্টে আজ শ্রমিক-কৃষকের জায়গা নেই। আমাদের অবশ্যই এই পার্লামেন্ট সম্পর্কে ভাবতে হবে।

২০১৮
====
গুজব থেকে উত্তেজনা, আওয়ামী লীগ কার্যালয়ে হামলা, ধানমণ্ডিতে রক্তাক্ত সংঘর্ষ


শিক্ষার্থীদের মারধর করে আটকে রাখা হয়েছে- এমন গুজবে গতকাল শনিবার দুপুরে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার ধানমণ্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ে হামলা চালায় নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলনরত ছাত্ররা। শিক্ষার্থীরা চড়াও হলে আওয়ামী লীগের কর্মীরা তাদের ধাওয়া করে। দু'পক্ষের দিনভর সংঘর্ষে ধানমণ্ডির জিগাতলা এলাকা রণক্ষেত্রে পরিণত হয়। এতে শিক্ষার্থী, পথচারী, আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীসহ অর্ধশত আহত হন। সন্ধ্যায় শিক্ষার্থীদের প্রতিনিধিরা আওয়ামী লীগের কার্যালয় ঘুরে নিশ্চিত করে- গুজবে কান দিয়ে তারা এসেছিল। তারা ফিরে গিয়ে অন্য শিক্ষার্থীদের বিষয়টি জানালে পরিস্থিতি স্বাভাবিক হয়ে আসে। এদিকে এ ঘটনাকে কেন্দ্র করে গুজব ছড়ানোর অভিযোগে রাতে অভিনেত্রী কাজী নওশাবাকে আটক করেছে র‌্যাব।
- - - - - - - -
আন্দোলনে সপ্তাহ পার
গেল রবিবার বিমানবন্দর সড়কে বাস চাপায় দুই শিক্ষার্থীর মৃত্যুর প্রতিবাদে ওই দিনই রাজপথে নেমে শিক্ষার্থীরা আন্দোলন শুরু করেছিল। আজ সেই আন্দোলনের এক সপ্তাহ পেরিয়ে গেল। এর মধ্যে সাপ্তাহিক ছুটি, বিশেষ ব্যবস্থায় একদিনের ছুটিও ছিল। ওই ছুটির দিনগুলোতেও রাস্তায় ছিল শিক্ষার্থীরা। অন্যান্য দিনের মতো গতকালও বৃষ্টিতে ভিজে রাস্তায় নেমে ট্রাফিক পুলিশের দায়িত্ব পালন করেছে শিক্ষার্থীরা। কিভাবে সড়কে শৃঙ্খলভাবে গাড়ি চলতে হয়, কিভাবে কাগজপত্র তল্লাশী করতে হয় সেগুলোও তারা দেখিয়ে দিচ্ছে। একটা জরুরী লেন ফাঁকা রেখে গাড়ি চলাচলের ব্যবস্থাও করেছে তারা। রাজধানীর অন্তত ২০ থেকে ২৫টি পয়েন্টে শিক্ষার্থীরা সড়কে জড়ো হয়ে মিছিল সমাবেশ করেছে। সঙ্গে ছিল প্লাকার্ডও।
- - - - - - - -
গুজব ছড়িয়ে বিভ্রান্ত করার চেষ্টা
নিরাপদ সড়কের দাবিতে আন্দোলনে থাকা ছাত্রদের ওপর হামলার গুজব ছড়িয়ে শিক্ষার্থীদের বিভ্রান্ত করার চেষ্টা চালিয়েছে সংঘবদ্ধ কয়েকটি চক্র। তারা ফটোসপে এডিট করা বিভিন্ন হামলার ছবি, ও অশ্লীল ভাষার প্ল্যাকার্ড তৈরি করে ফেসুবকে ভাইরাল করেছে। এতে আন্দোলনকারী শিক্ষার্থীদের পুলিশ ও সরকারের মুখোমুখি করে তোলার চেষ্টা করা হয়েছে। কেউ ফেসবুকে এসে লাইভে জানিয়েছে ধানমন্ডিতে ২ জন মারা গেছে, কেউ কান্নকাটি করে বলেছে চারজন শিক্ষার্থী ধর্ষণের শিকার হয়েছে, কেউ বলেছে আইডিয়াল স্কুলের ফারদিন ফাহিম নামে এক শিক্ষার্থী পুলিশের হামলায় মারা গেছে, আবার কেউ কেউ বলেছে ছাত্রলীগ পিটিয়ে হত্যা করেছে। তবে এ সব সংবাদের কোনোটিরই সত্যতা পাওয়া যায়নি। অনেক ফেসবুক আইডি থেকে অসংখ্য শিক্ষার্থীর মৃত্যুর গুজব, নৌমন্ত্রীর পদত্যাগ, প্রধানমন্ত্রীর ভুল বার্তা ইত্যাদি দেয়া হয়েছে। এ সব গুজবের ভিডিও দেখার পর আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা আরো ফুঁসে ওঠে। চলমান আন্দোলনকে ভিন্ন খাতে প্রবাহিত করার উদ্দেশ্যে এ সব গুজব ছড়ানো হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে।

গুজব ও বিভ্রান্তিমূলক তথ্য ছড়িয়ে ধ্বংসাত্মক কার্যক্রমের উসকানিদাতা হিসেবে ২৮টি ফেসবুক ও টুইটার আইডি শনাক্ত করেছে প্রশাসন। এ সব আইডির মালিক ও অ্যাডমিনদের আইনের আওতায় আনতে গত রাত থেকে পুলিশের সাইবার ক্রাইম বিভাগ অভিযান শুরু করেছে। ইতোমধ্যে এ ২৮টি ফেসবুক আইডির বিরুদ্ধে রমনা থানায় একটি মামলা করেছে পুলিশের সাইবার ক্রাইম বিভাগ।

সব থেকে বেশি ভাইরাল হয়েছে অভিনেত্রী কাজি নওশা’র ভিডিও। বিকালে অভিনেত্রী কাজি নওশাবা ফেসবুক লাইভে এসে কান্নাকাটি করে বলেন, ধানমন্ডির ঝিগাতলায় দুইজনকে মেরে ফেলা হয়েছে বলে গুজব ছড়িয়ে দেন। আর তা দ্রুত সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়ে যায়। কিন্তু এই রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত এ খবরের কোনো সত্যতা পাওয়া যায়নি।
- - - - - - - -
আন্দোলন উসকে দেওয়ার ফোনালাপে তোলপাড়
নিরাপদ সড়ক দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষার্থীদের উসকে দেওয়ার ফোনালাপে সারাদেশে তোলপাড়ের সৃষ্টি হয়েছে। বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরীর সাথে এক ছাত্রের অডিও ফোনালাপ ভাইরাল হয়েছে; যা ব্যাপক বিতর্কের সৃষ্টি করেছে। অডিও ক্লিপটি আন্দোলনের সপ্তম দিন গতকাল শনিবার সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ভাইরাল হয়ে যায়। ওই অডিওতে ওই ছাত্র নওমিকে কুমিল্লা থেকে ঢাকায় এসে আন্দোলনে সক্রিয় হতে অনুরোধ করেন আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী।

সূচীপত্র:→ বাংলাদেশ: ফিরে দেখা

________________
তথ্য ও ছবিসূত্র:
দৈনিক ইত্তেফাক, দৈনিক প্রথম আলো, দৈনিক সমকাল, দৈনিক যুগান্তর এবং অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ সংবাদ মাধ্যম।
বাংলাদেশের তারিখ : বিচারপতি মুহাম্মদ হাবিবুর রহমান।
বাংলাদেশের ইতিহাস সংক্রান্ত বিভিন্ন বই-পুস্তক ও পত্রপত্রিকা।
ইন্টারনেট, উইকিপিডিয়া, বাংলাপিডিয়া।
সর্বশেষ এডিট : ০৬ ই আগস্ট, ২০১৮ বিকাল ৩:৩৯
৩টি মন্তব্য ২টি উত্তর

আপনার মন্তব্য লিখুন

ছবি সংযুক্ত করতে এখানে ড্রাগ করে আনুন অথবা কম্পিউটারের নির্ধারিত স্থান থেকে সংযুক্ত করুন (সর্বোচ্চ ইমেজ সাইজঃ ১০ মেগাবাইট)
Shore O Shore A Hrosho I Dirgho I Hrosho U Dirgho U Ri E OI O OU Ka Kha Ga Gha Uma Cha Chha Ja Jha Yon To TTho Do Dho MurdhonNo TTo Tho DDo DDho No Po Fo Bo Vo Mo Ontoshto Zo Ro Lo Talobyo Sho Murdhonyo So Dontyo So Ho Zukto Kho Doye Bindu Ro Dhoye Bindu Ro Ontosthyo Yo Khondo Tto Uniswor Bisworgo Chondro Bindu A Kar E Kar O Kar Hrosho I Kar Dirgho I Kar Hrosho U Kar Dirgho U Kar Ou Kar Oi Kar Joiner Ro Fola Zo Fola Ref Ri Kar Hoshonto Doi Bo Dari SpaceBar
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :
আলোচিত ব্লগ

কাজে যোগদান ভুল হচ্ছে, ইউরোপ আমেরিকায় শীপমেন্ট বন্ধ থাকার কথা

লিখেছেন চাঁদগাজী, ০৫ ই এপ্রিল, ২০২০ দুপুর ২:১৭



গত ৪০ বছরে, গার্মেন্টস'এর মালিকরা ও অন্যান্য মধ্যভোগীরা যেই পরিমাণ সম্পদের মালিক হয়েছে, তাতে তাদের কর্মচারীদের বিনা কাজে ২/১ বছর মিনিমাম বেতন দেয়ার ক্ষমতা তারা রাখে। গার্মেন্টস'এর... ...বাকিটুকু পড়ুন

আল্লাহ কেলা?

লিখেছেন মোহাম্মাদ আব্দুলহাক, ০৫ ই এপ্রিল, ২০২০ সন্ধ্যা ৬:০৮




মানুষ মারার সব আছে, আহত অথবা অসুস্থ মানুষকে সম্পূর্ণ সুস্থ করার কিচ্ছু নেই। কেন জানেন? আঁতেলরা বলেন, মানুষ মানুষকে মারতে পারে, মানুষ মানুষকে বাঁচাতে পারে ন। জন্ম মৃত্যু মুসলমানদের... ...বাকিটুকু পড়ুন

— করোনার সাথে পথে চলতে চলতে———

লিখেছেন ওমেরা, ০৫ ই এপ্রিল, ২০২০ সন্ধ্যা ৭:২২



সারা পৃথিবী লক-ডাউন হয়ে আছে কভিড- ১৯ করোনা আতংকে। মানুষের প্রতিটা মূহুর্ত কাটছে ভয় আর উৎকন্ঠায়। এই মূহুর্তে সম্ভবত পৃথিবীর একমাত্র ব্যাতিক্রম দেশ,সেই দেশের বাসিন্দা আমি, নাম তার... ...বাকিটুকু পড়ুন

থটস

লিখেছেন জেন রসি, ০৫ ই এপ্রিল, ২০২০ রাত ১১:৪৬





১৮৪৬ সালে মার্কস এবং এঙ্গেলস মিলে “The German Ideology” নামে একটা বইয়ের পান্ডুলিপি লিখেছিলেন। কিন্তু বইটা প্রকাশিত হয় ১৯৩২ সালে। এই বইতে তারা শুধু ভাববাদকেই না ফয়েরবাখের... ...বাকিটুকু পড়ুন

শেখ হাসিনা কমপক্ষে গার্মেন্টস'এর ছুটিটা নিজ হাতে কন্ট্রোল করতে পারতো

লিখেছেন চাঁদগাজী, ০৫ ই এপ্রিল, ২০২০ রাত ১১:৫২



শেখ সাহেব জানতেন যে, উনার মেয়ে বুদ্ধিমতি নন, সেজন্য মেয়েকে রাজনীতিতে আসতে দেননি; কিন্তু রাইফেল জিয়া শেখ হাসিনার জন্য পথ রচনা করে গেছে। কমবুদ্ধিমানরা অনেক সময় খুবই নিবেদিত... ...বাকিটুকু পড়ুন

×