somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

হামু ব্লগের ব্লগার মজনুর এক দিন

২৮ শে জুন, ২০১৯ রাত ৮:৩৯
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :




মজনু একখানা ৫ টাকার নোট দোকানদার সবুজ মিয়ার নিকট বাড়াইয়া দিয়া বলিলো ১ প্যাকেট সার্ফ এক্সেল। সবুজ মিয়া ক্ষিপ্র হাতে একখানা সার্ফ এক্সেল এর প্যাকেট ও একটি হজম ক্যান্ডি মজনুর হাতে হস্তান্তর করিয়া পরের কাস্টমার কে অ্যাটেন্ড করিতে ব্যস্ত হইয়া পড়িলো। হজম ক্যান্ডির দিকে সবুজ মিয়ার দৃষ্টি আকর্ষণ করিয়া মজনু কহিল -'ইহা কি?' ব্যস্ততার মাঝে আজাইরা আলাপে ক্ষিপ্ত হইয়া সবুজ মিয়া বলিল-' উহা হজম ক্যান্ডি।' ইত্যবসরে পাড়ার ক্লাস নাইনে পড়ুয়া বখা ছেলে নিজাম আসিয়া সবুজ মিয়ার দিকে ১৫টাকা বাড়াইয়া দিয়া কহিল -'একখানা টেনশন।' । সবুজ মিয়া পুনরায় ক্ষিপ্রতায় এক শলাকা বেনসন এবং একটি হজম ক্যান্ডি নিজাম এর নিকট বাড়াইয়া ধরিলো। নিজাম ক্যান্ডির মোড়ক খুলিয়া এমন ভাবে ক্যান্ডি চুষিতে লাগিলো যেন দোকানের আগমনের উদ্দেশ্য ধুম্রপান না, হজম গোলা খাইতেই সে এখানে আসিয়াছিল। মজনু কন্ঠের উত্তাপ ঢাকিতে চেষ্টা করিয়া বলিল- ' আমার হজম শক্তি ঠিক আছে, আপনি আমাকে ভাংতি টাকা ফেরত দিন।' বখা ছেলে নিজাম পাস হইতে ফোড়ন কাটিলো -'ভাইজান অতিরিক্ত করলা পেট গরম করে, মাঝে মাঝে হজম গোলা খাওয়া স্বাস্থ্যের জন্য ভালো।' রোজার মাসের শেষের দিকে, যখন ঢাকায় লোকজন কম, কোন এক রাতে সবজি পচিয়া যাওয়ার ভয়ে ভ্যানওয়ালা ২০ টাকা কেজি করলা বিক্রি করিতেছিল। সস্তায় পাইয়া মজনু ৩ কেজি করলা কিনিয়াছিল । করলার স্ফিত ব্যাগ দেখিয়া দু-একজন মজনু কে কারন জিজ্ঞাসা করিলে সে গর্বের সহিত দর জানাইয়া ঘটনা বর্ণনা করিয়াছিল। ইহাতে কেহ কেহ হিংসার আগুনে জ্বলিয়া ছিল এবং দুই তালার সুন্দরী ভাবি রেবেকা ফেরদৌসী তাকে জিজ্ঞাসা করেছিল সে একা মানুষ এত করলা দিয়া কি করিবে? করলার নুডুলস বা বিরিয়ানি রান্না করিবে কি? করলার খোটা না মাখিয়া মজনু পুনরায় সবুজ মিয়াকে বলিল-- 'আমাকে আমার এক টাকা ভাংতি ফেরত দিন, ক্যান্ডির কোন প্রয়োজন নাই।' মজনু অনুভব করিল ২-৪ জন খরিদ্দার মজা পাইয়া ফেসবুকে লাইভ স্ট্রিমিং শুরু করিয়াছে। সবুজ মিয়ার বিরক্ত উত্তর -'এক টাকা ভাংতি দেওয়া যাইবে না।' ইত্যবসরে ফেসবুক মেসেঞ্জারে মেসেজ আসার টিং শব্দ শুনিয়া মজনু ফোন খুলিয়া দেখে নাজমা লিখিয়াছে- ' সকাল বেলা ঘুম থেকে উঠিয়া এত ছোটলোকগিরি করিতেছ, লজ্জায় আমার মাথা কাটা যায়।' (নাজমা মজনুর ছাত্রি কাম গার্ল ফ্রেন্ড, দ্বাদশ শ্রেণীতে ইংলিশ ভার্সনে পড়ে, দুর্দান্ত ইংরেজি ও যুগোপযগী বাংলা বলে।) মজনু পরীক্ষা করিয়া দেখে ইতোমধ্যে তাহার সহিত সবুজ মিয়ার কথোপকথনের ভিডিওটি ৫৩ বার শেয়ার হইয়াছে, কুড়িটি লাইক পড়িয়াছে। আপাতত রণেভঙ্গ দিয়ে মজনু হজম ক্যান্ডি হাতে লইয়া সবুজ মিয়ার দোকান হইতে রাস্তায় নামিয়া আসিল।

এত সহজে এক টাকা ছাড়িয়া দেওয়া সম্ভব নহে। পরবর্তী গন্তব্য ৩০০ গজ দূরে থানা ভবন।



থানার হেড কনস্টেবল রুকু মুন্সি সকাল সকাল মুরগির ভুনা মাংস দিয়ে খিচুড়ি খাইয়া ডেস্কে বসিয়া খিলোল দিয়া দাঁতের ফাঁকে আটকাইয়া থাকা মাংসের কনা পিচিক পিচিক করিয়া থুতুর সঙ্গে সামনে ফেলিতেছিল। মজনুর অভিযোগ অর্ধেক শেষ হইতে না হইতে বলিয়া উঠিল- আপনার শ্লীলতাহানি করিয়াছে? মারধর করিয়াছে? শরীরে হাত দিয়াছে? কোথায় হাত দিয়াছে? কতখানি হাত দিয়াছে? হাত দিয়ে কোন কিছু টিপিয়া ধরিয়াছিল? ও, এক টাকা অতিরিক্ত রাখিয়াছে । আচ্ছা ঠিক আছে। বড় বাবুরা এখন ক্রসফায়ারে বালুর মাঠ এলাকায়। তাহা ছাড়া জিডির খাতা শেষ হইয়া গিয়াছে। আপনি বিকেলে আসিয়া লিখিত অভিযোগ করিয়া যাইয়েন।

ফেসবুকে ভিডিও শেয়ার এখন ৩১৮ বার। একজন কমেন্ট করিয়াছে- লোকে বিদেশি টেলিভিশন চ্যানেল দেখিয়া এই সমস্ত কিপটামি শিখিয়াছে। কমেন্টটিতে ৪৩ টি লাইক পড়িয়াছে। আর একজন কমেন্ট করিয়াছে এই সমস্ত অসাধু দোকানদারদের ফাঁসি চাই । উহাতে এযাবত ৩৯ টি লাইক পড়িয়াছে।

মজনু এত সহজে হাল ছাড়িয়া দেওয়ার ছেলে নহে। পরবর্তী একশন দুদক এ ১০৬ নম্বরে ফোন।



সুন্দরী মহিলার কন্ঠে-' আপনার কল আমাদের নিকট অতীব গুরুত্বপূর্ণ। অনুগ্রহ করে লাইনে থাকুন।' শুনিতে শুনিতে যখন মজনুর কানের পোকা বাহির হইয়া যাইবার উপক্রম, তখন অপর প্রান্তে দুদকের কর্মকর্তা ফোন ধরিলেন। সব শুনিয়া তিনি মহা খাপ্পা হইয়া বলিলেন -'আপনি এক টাকার অভিযোগ জানানোর জন্য ১০৬ নাম্বারে ফোন করিয়াছেন! এই নাম্বারে ফোন ফ্রি বলিয়া এরূপ করিতে পারিলেন। এই নাম্বারে ফোন করিতে পয়সা লাগিলে কি পয়সা খরচ করিয়া এক টাকার অভিযোগ জানাইতেন? চেয়ারম্যান মহোদয় কমিশনের তাগাদা করিতে লন্ডনে আছেন। উনি আসিলে উনাকে বিস্তারিত জানাইবো । অর্থমন্ত্রী এবং টেলিযোগাযোগ মন্ত্রীকেও জানাইতে হইবে। এই নাম্বারে কল এর উপরে চার্জ এবং ভ্যাট ধার্যকরিতে হইবে।' মজনু ঘাবড়াইয়া ফোন কাটিয়া দিল।

ফেসবুকে ইতোমধ্যে ভিডিওটি ২৮৩৪ বার শেয়ার হইয়াছে। নাজমা 'তোমার সহিত আর কোন কথা নাই' বলিয়া মজনুকে ব্লক করিয়া দিয়াছে। নাজমার অভিমান দীর্ঘস্থায়ী নয়, ইহা মজনু জানে। ইহা বড় সমস্যা না। কিন্তু এক টাকার সমাধান করিতে হইবে। মজনুর মনে পড়িল স্থানীয় ওয়ার্ড কমিশনার বীরেন্দ্রনাথ শম্ভুর কথা। সারারাত কত কষ্ট করিয়া , কত হাত ব্যথা উপেক্ষা করিয়া ওনাকে ৯৯% ভোটে জয়যুক্ত করার পিছনে মজনুর অবদান অস্বীকার করা যায় না। মজনু বীরেন্দ্র কাকার অফিসের দিকে রওনা হইল।

ইতোমধ্যে ভিডিও ৭৩২১ বার শেয়ার হইয়াছে। তথ্যমন্ত্রী বক্তব্য দিয়াছেন -বাজারে খুচরা পয়সার সঙ্কট বিরোধী দলের ষড়যন্ত্রের কারনে হইয়াছে। এফবিসিসিআইয়ের সভাপতি বলিয়াছেন ব্যবসায়ীদের এইরূপ হয়রানি তাহারা সহ্য করিবেন না। বিরোধীদলীয় নেতা বলিয়াছেন সরকার ধাতব মুদ্রা ভারতে পাচার করিয়া উহা দিয়া চামুচ বানাইয়া আনিতেছে। দেশের চামুচের সংখ্যা বাড়িয়া গিয়াছে।




মজনু বীরেন্দ্র কাকার অফিসে আসিয়া দেখিল কাকা অফিসের বারান্দায় বসিয়া ঠিকাদারদের সহিত চা চপ সিঙ্গারা সমুচা খাইতেছেন। সব শুনিয়া তিনি বলিলেন -' আমার এলাকায় এই রূপ কুলাঙ্গার দুর্নীতিবাজ ব্যবসায়ী আছে তাহা আমার ধারনায় ছিলনা। আপাতত আমি উন্নয়নের আলোকসজ্জার কাজে ব্যস্ত আছি। ইহা শেষ করিয়া ই তোমার এক টাকার বিষয়ে ব্যবস্থা নিতেছি ।'

খানিকটা চিন্তিত মুখে মজনু বিরেন কাকার অফিস হইতে বাহির হইয়া আসিল। কাকা যখন বলিয়াছেন, টাকা উদ্ধার হইবে কিন্তু কতদিন পরে হইবে ইহাই ভাবনার বিষয়। ইতোমধ্যে ভিডিও ১৩৮১৭ বার শেয়ার হইয়াছে। চল্লিশ কদম হাটিবার পূর্বেই মজনুর ফোনে টিং করিয়া পুনরায় শব্দ। মজনু নিজের চোখকে বিশ্বাস করিতে পারিল না। দয়াময়ী প্রধানমন্ত্রী সুইডেনে বসিয়া ফজরের নামাজের পরে কোরআন তেলাওয়াত করতঃ দেশের খবর জানার জন্য ইন্টারনেট খুলিয়া বিএস-১ স্যাটেলাইট এ কানেক্ট করিয়া মজনুর খবর দেখিয়া ব্যথিত হইয়াছেন। তিনি প্রশাসনকে নির্দেশ দিয়াছেন যেন তাহারা মজনুর এক টাকা উদ্ধার করিয়া দেয়। আনন্দে মজনুর চোখে অশ্রু চলিয়া আসিল। বীরের ন্যায় বুক ফুলাইয়া বাড়ির দিকে মজনু রওনা হইল। বাড়ির গেইটেই সবুজ মিয়ার দোকান। মজনু সেখানে যাইয়া হজম গুলি বাহির করিয়া সবুজ মিয়ার দিকে বাড়াইয়া দিতে সবুজ মিয়া কথা না বলিয়া পাইলস রোগির ন্যায় মুখ করিয়া হজম গুলি ফেরত লইয়া মজনুকে একটি টাকার কয়েন দিল। আশেপাশের কয়েকজন এই শুভ মুহূর্তটি কি তাহাদের ক্যামেরায় বন্দী করিয়া ফেসবুকে পোস্ট দেওয়া শুরু করিলেন । টিং করিয়া শব্দ হইতেই মজনু ফোন খুলিয়া দেখিল নাজমা ব্লক খুলিয়া ইংরেজি বাংলা মিশাইয়া মেসেজ লিখিয়াছে -'you my super hero. I your for many proud. আমি তোমার জন্য গর্ভিত।'

মজনু বাসায় ফিরিয়া হামু ব্লগ খুলিয়া দেখে ইতোমধ্যে ব্লগে এই বিষয়ে আাঠারো খানা পোস্ট আসিয়া গিয়াছে। ১১টি কবিতা, ৬ টি গদ্য এবং একটি পোস্টে শুধু ভিডিও লিংক আছে, কোন টেক্সট নাই। ব্লগার বাঁশবাগানের একটি পোস্টে ৪৪ টি মন্তব্য আসিয়াছে, ৯ টি লাইক পড়িয়াছে, ৪ জন উহাপ্রিয়তে নিয়াছেন । ব্লগার রানার ছুটেছে মন্তব্য করিয়াছেন- পিতা ছিলেন সক্রেটিস- প্লেটো- অ্যারিস্টোটলের ন্যায়, কন্যা বাদশা হারুনুর রশিদের ন্যায়। তাহার মন্তব্যে ৬টি লাইক পড়িয়াছে। ব্লগার লাল আকাশ পোস্ট দিয়েছেন সরকারের বেইমানির কারণে জনগণের নাভিশ্বাস। ওই পোস্টে ৪৫ টি মন্তব্য পড়িয়াছে ১০ টি লাইক পড়িয়াছে, ৪ জন উহা প্রিয়তে নিয়াছে। অসাম শালা, পাগলা চুলকে দে, তুমি গুরু ভালো সহ বিভিন্ন মন্তব্য আসিয়াছে। ব্লগার জুতা বাবা মন্তব্য করিয়াছেন - নামের আগে লাল লাগাইলেই বিপ্লবী হওয়া যায় না। কলোনিয়াল মেন্টালিটির পিগমিদের পক্ষে বিপ্লব বোঝা সম্ভব না। এই মন্তব্যে আটটি লাইক পড়িয়াছে।

টিং করিয়া পুনরায় শব্দ হইতেই মেসেঞ্জার খুলিয়া মজনু দেখিল বাল্যবন্ধু অভিজিৎ দুঃখ ও যন্ত্রণা ভরা পোস্ট দিয়াছে -'বউয়ের যন্ত্রণায় আর পারি না। প্রতিদিন তরকারিতে লবণ আর লবণ । বউ হিসাব করিয়া টাকা দেয়, বাহিরে খাইবার সুযোগ নাই। দিনের পর দিন আধ পেটা খাইয়া না মরিয়া বাঁচিয়া আছি। আত্মহত্যা করিতে মন চায়।' মজনু তৎক্ষণাৎ মেসেঞ্জারে রিপ্লাই টাইপ করে- নিউজ প্রধানমন্ত্রীকে শেয়ার করো, উনি হুকুম দিলে বউ তরকারিতে লবণ দেওয়া কমাইয়া দিবে।

মেসেন্জারে জবাব দিতে না দিতেই আর এক কাণ্ড। ব্লগার লাল আকাশের ব্যবহৃত ''বেইমান'' শব্দ ব্লগের মডারেটর অনন্ত ভালোবাসার ইমানী জজবা ও চেতনায় ধাক্কা দেওয়ায় উনি ব্লগার লাল আকাশকে জেনারেল করিয়া দিয়াছেন। মজনু ব্লগার লাল আকাশকে ফলো করিতো, এক্ষণে ভয় পাইয়া আনফলো করিয়া দিতে না দিতেই পুনরায় টিং করিয়া মেসেঞ্জারে মেসেজ আসিবার শব্দ। নাজমা লিখিয়াছে -' জানু আজ আমি বড়ই খুশি। আজ তোমাকে বিভিন্ন মূলকের ভিজা পরীক্ষার সুযোগ দিব । মিন্ট চুইংগাম খাইয়া আসিও।'

মিন্ট চুইংগাম এর দাম ১৪ টাকা প্যাকেট। ১৫ টাকা দিলে পুনরায় এক টাকার ধাক্কা। মজনু সার্ফ এক্সেল লইয়া বাথরুমের দিকে হাটা দিল । আজ সার্ফ এক্সেল দিয়াই দাঁত মাজিয়া লইবে


সকল চরিত্র কাল্পনিক। ঘটনা সম্পুর্ন কাল্পনিক । জীবিত বা মৃত কোন ব্যক্তি বা বস্তুর সাথে কোন মিল পাওয়া গেলে তা নিতান্তই কাকতালীয়।

ছবি বিভিন্ন যায়গা থেকে টুকলিফাই করা।
সর্বশেষ এডিট : ২৯ শে জুন, ২০১৯ রাত ১২:২৯
২২টি মন্তব্য ২২টি উত্তর

আপনার মন্তব্য লিখুন

ছবি সংযুক্ত করতে এখানে ড্রাগ করে আনুন অথবা কম্পিউটারের নির্ধারিত স্থান থেকে সংযুক্ত করুন (সর্বোচ্চ ইমেজ সাইজঃ ১০ মেগাবাইট)
Shore O Shore A Hrosho I Dirgho I Hrosho U Dirgho U Ri E OI O OU Ka Kha Ga Gha Uma Cha Chha Ja Jha Yon To TTho Do Dho MurdhonNo TTo Tho DDo DDho No Po Fo Bo Vo Mo Ontoshto Zo Ro Lo Talobyo Sho Murdhonyo So Dontyo So Ho Zukto Kho Doye Bindu Ro Dhoye Bindu Ro Ontosthyo Yo Khondo Tto Uniswor Bisworgo Chondro Bindu A Kar E Kar O Kar Hrosho I Kar Dirgho I Kar Hrosho U Kar Dirgho U Kar Ou Kar Oi Kar Joiner Ro Fola Zo Fola Ref Ri Kar Hoshonto Doi Bo Dari SpaceBar
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :
আলোচিত ব্লগ

জীবন রহস্যময় !

লিখেছেন মাধুকরী মৃণ্ময়, ২১ শে আগস্ট, ২০১৯ বিকাল ৫:০৪



মনে করেন আপনি জন্ম নেন নাই। যেহেতু নিজের জন্মের উপর আপনার কোন হাত নাই । সেহেতু সে ক্রেডিট আপনি নিতে পারেন না। তো জন্ম না নিলে কি হতো ,... ...বাকিটুকু পড়ুন

» মানুষ, ভুত পেত্নি জীন সাপ দেখতে হলে ঢুকে পড়ুন নির্দ্বিধায়..(ফান পোষ্ট)

লিখেছেন কাজী ফাতেমা ছবি, ২১ শে আগস্ট, ২০১৯ বিকাল ৫:১৪

১। দাদী বুড়ি :D



©কাজী ফাতেমা ছবি
=ফ্রেমবন্দির গল্প=
নেই কাজ তো খই ভাজ্, যদিও আমার ক্ষেত্রে কথাটা সত্য না। কাজে কামে ব্যস্ততাতেই বেশী থাকতে হয়। কিন্তু বুড়া বেডি আমি মন যেনো... ...বাকিটুকু পড়ুন

অদূরদর্শিতা, অবিশ্বাস এবং দুর্ভাগ্য - ২য় পর্ব

লিখেছেন মাহের ইসলাম, ২১ শে আগস্ট, ২০১৯ বিকাল ৫:২৯



প্রথম পর্বের লিংক অদূরদর্শিতা , সন্দেহ এবং দুর্ভাগ্য

দুই
পূর্ব পাকিস্তানের স্বাধিকার আদায়ের আন্দোলনে উপজাতি সম্প্রদায়কে জাতীয় রাজনৈতিক দলগুলো সম্পৃক্ত করেনি বলে অভিযোগের সুর শোনা যায়। এমনকি যে... ...বাকিটুকু পড়ুন

নবীজি - হুমায়ুন আহমেদ

লিখেছেন ঠাকুরমাহমুদ, ২১ শে আগস্ট, ২০১৯ সন্ধ্যা ৭:১১



‘আরব পেনিনসুয়েলা। বিশাল মরুভূমি। যেন আফ্রিকার সাহারা। পশ্চিমে লোহিত সাগর, দক্ষিণে ভারত মহাসাগর, পূর্বে পার্শিয়ান গালফ। উত্তরে প্যালেস্টাইন এবং সিরিয়ার নগ্ন পর্বতমালা। সমস্ত পৃথিবী থেকে বিচ্ছিন্ন একটি অঞ্চল। এখানে শীত-গ্রীষ্ম-বর্ষা... ...বাকিটুকু পড়ুন

যারা জাতীয় সঙ্গীত পরিবর্তনের কথা বলে এদের পাত্তা দিবেন না।

লিখেছেন নূর আলম হিরণ, ২১ শে আগস্ট, ২০১৯ রাত ১০:০১


আমাদের জাতীয় সংগীত পরিবর্তনের কথা এবার নতুন করে উঠছে না। তবে হ্যাঁ, এবারের মত প্রচার হয়তো আগে হয়নি। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবকে হত্যা করার পর খন্দকার মোশতাক ২৫শে আগস্ট অর্থাৎ দশ... ...বাকিটুকু পড়ুন

×