somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

আধুনিক ইতিহাসের সর্বাধিক কুখ্যাতি অর্জন কারী ১০ জন অস্ত্র বিক্রেতা B-)B-)B-)

১৭ ই নভেম্বর, ২০১২ সকাল ৯:৫২
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :


অস্ত্র শিল্প বর্তমানে একটি সত্যিকারের বৈশ্বিক রুপ ধারন করেছে। সমস্ত বিশ্বের বড় বড় ব্যবসা মানে বন্দুক, গোলাবারুদ এবং অন্যান্য বড় অস্ত্রসম্ভার যা সারা বিশ্বে ছরিয়ে পড়েছে । অপরাধমূলক এই বাজারে নিম্নলিখিত পুরুষদের রয়েছে এতে একছত্র কর্তৃত্ব। এ - ছায়াময় ব্যক্তি রা যারা দিগদিগন্তরে অস্ত্র শিল্প ও পাচারের বানিজ্যর বিস্তিতি ঘটিয়েছেন। অস্ত্র বিতরণের জন্য এরা সবসময় কর্তৃপক্ষ থেকে এক ধাপ এগিয়ে ।

10. আদনান Khashoggi :


আদনান Khashoggi একজন অত্যন্ত সফল সৌদি ব্যবসায়ী । তিনি একজন বিশিষ্ট অস্ত্র ব্যাপারী । ১৯৮০ সাল থেকে তিনি বিশ্বের ধনী মানুষ হিসাবে গণ্য ।৭৬ বছর বয়সী Khashoggi আমেরিকান শিক্ষায় শিক্ষিত । তিনি ১৯৬০ সালে তার অস্ত্র ট্রেডিং শুরু করেন । Khashoggi এর সবচেয়ে বিখ্যাত ক্লায়েন্টদের মধ্যে ছিল লকহীড (এখন লকহীড মার্টিন)। তার কম্পানি মার্কিন কোম্পানীগুলো এবং সৌদি সরকারের মধ্যে brokering সামলায় । ফলে লক হীদ থেকে ১৯৭০ সালেই শুধু ১০৬ মিলিয়ন ডলার কমিশন পান । তিনি তার সমস্ত ব্যবসা পাতি সুইজার ল্যন্ড থেকে নিয়ন্ত্রন করেন।

9. Dale Stoffel :


Dale Stoffel ছিলেন অস্ত্র ডিলার । তিনি ইরাক যুদ্ধের প্রচেষ্টার সঙ্গে জড়িত ছিল প্রচন্ডভাবে। তিনি wye নামে অস্র বিক্রেতা প্রতিস্থান প্রতিষ্ঠা করেন । একটা চুরুট এবং একটি মেশিন বন্দুক পিঠ জুড়ে রয়েছে নিয়মিতভাবে এমন একটি জনপ্রিয় ছবি তার ছিল । Stoffel কে বাগদাদ এ যাওয়ার পথে ২০০৪ সালে আততায়ী হত্যা করে। ২০০৩ সালে তাঁর কোম্পানি Wye ওক প্রযুক্তি সদ্য প্রতিষ্ঠিত ইরাকী প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় থেকে প্রথম চুক্তি করে এবং শেষ পর্যন্ত বর্ধনশীল ইরাকি সরকারের সঙ্গে তার চুক্তি মূল্যের পরিমান প্রায় $ ৪০ মিলিয়ন ডলার । তার মৃৎত্যর পর তাঁর বিধবা স্ত্রী বারবারা $ 25 মিলিয়ন জন্য 2009 সালে ইরাকি সরকারের বিরুদ্ধে মামলা দায়ের করে ।

8. ডঃ ইউনুস বিন মুসা :


ডঃ ইউনুস বিন মুসা একজন বাংলাদেশী ব্যবসা পুঁজিপতি এবং ১৯৭০ থেকে ১৯৮০ সালের মধ্যে আন্তর্জাতিক অস্ত্র ব্যবসার প্রধান এবং সেই সাথে অন্যান্য ব্যবসায়িক উদ্যোগ সেই সময় তাকে আলাদা পরিচিতি এনে দেয়। "প্রিন্স Moosa" অন্যান্য বড় ধরনের লেনদেনের জন্য আদনান Khashoggi এবং Sarkis Soghanalian এর মত এই তালিকায় উচ্চ প্রফাইল অস্ত্র বিক্রেতা হিসেবে পরিচিত । শুধু মাত্র সুইস ব্যাংক তার $ 7 মিলিয়ন ডলার অ্যাকাউন্ট "অনিয়মিত" লেনদেন এর কারনে বন্ধ করে দেয় । 1974 সালে গঠিত ইউনুস এর ব্যবসা প্রতিস্তান DATCO বিশ্বব্যাপী ট্যাংক, জঙ্গী বিমান এবং ব্যালিস্টিক মিসাইল সহ নানা অস্ত্রসম্ভার সরবরাহ করে । প্রায় সব হিসাবে ইউনুস বিখ্যাত তার অতিরিক্ত প্রেম নিয়ে । তিনি কয়েক শত ব্যক্তিগত গাড়ির বহরের মালিক যার মধ্যে রোলস রয়েস মডেল এবং limousines অন্তর্ভুক্ত এবং তিনি হীরা খচিত $ 3 মিলিয়ন ডলারের মূল্যবান জুতা পরেন।

7. Samuel ক্যুমিংস :


Samuel ক্যুমিংস ছিলেন আমেরিকান আর্মস ডিলার । পরে তিনি আমেরিকান ইন্টারন্যাশনাল রণসজ্জা কর্পোরেশন নামে একটি কোম্পানী প্রতিষ্ঠা করেন । যে সমস্ত প্রতিস্তান ব্যক্তিগত অস্ত্র বিক্রয়ে বিশ্ব বাজারে আছে । তাদের মধ্যে এর ব্যবসা একচেটিয়া বৃদ্ধি পায় । ক্যুমিংস 1998 সালে মারা যান 71 বছর বয়সে স্ট্রোক করে । নিউ ইয়র্ক টাইমসে তার সম্পরকে বলা হয়েছে "অবিতর্কিত অস্ত্র বাণিজ্য-দার্শনিক রাজা" । তিনি 1950 সালে CIA অস্ত্র বিশেষজ্ঞ হিসেবে নিয়োগ পান । মূলত ক্যুমিংস নেতৃত্বাধীন অস্ত্র ব্যবসা র ফলে 1950 এবং '60s অস্ত্র বাজারে আমেরিকা প্রাধান্য লাভ করে।

6. শেখ Fares মানা :



শেখ Fares মানা ইয়েমেন এর সবচেয়ে কুখ্যাত অস্ত্র ব্যাপারী বলা হয়ে থাকে । মুহম্মদ Mana'a উত্তর পশ্চিম ইয়েমেন Sa'dah শহরের গভর্নর ।
Mana'a এর বেআইনী কার্যক্রম জাতিসংঘের নিরাপত্তা পরিষদের নজরে পড়েছে । insurgents অস্ত্র কারবারী হিসেবে অভিযুক্ত ব্যক্তিদের তালিকা থেকে তার নাম যোগ দ্বারা উল্লিখিত হয়েছে । যারা সোমালি হারকত- আল- সাবাব-মুজাহিদিন হিসাবে পরিচিত । এছারা ও Mana'a কে লিবিয়ার নেতা কর্নেল Gaddafi র কাছ থেকে লক্ষ লক্ষ টাকার বিনিময়ে গুপ্তচরবৃত্তি জন্য অভিযুক্ত করা হয়েছে । মার্চ 2011 সালে, Mana'a Sa'dah নতুন গভর্নর হিসেবে সরকার এবং Mana'a সমর্থিত আদিবাসী Houthi বিদ্রোহীদের মধ্যে একটি যুদ্ধে তিনি আদিবাসী দের অস্ত্র সরবরাহ করেন বলে আভীযোগ করা হয় ।

5. Sarkis Soghanalian :


সম্প্রতি অক্টোবর 5, 2011 ফ্লোরিডা ভিত্তিক ব্যক্তিগত অস্ত্র ব্যাপারী Sarkis Soghanalian মারা যান । এক অসাধারণ জীবনআবসান ঘটে । তিনি ১৯২৯ সালে জন্মগ্রহণ করেন । Soghanalian "দ্য মার্চেন্ট অফ ডেথ" নামে ও পরিচিত ছিলেন । ঠান্ডা যুদ্ধের সময় তিনি নিজেকে প্রতিষ্ঠিত করেন এবং রাজনৈতিক সংঘাতের সময় হয়ে উঠেন নেতৃস্থানীয় অস্ত্র বণিক ।এছাড়াও তিনি 1980 সালের সময় সাদ্দাম হুসেন কে অস্ত্র বিক্রি করার জন্য কুখ্যাত । পূর্ণ জ্ঞান ও CIA এর ব্যাকিং নিয়ে Soghanalian ইরাক ইরান-ইরাক যুদ্ধ অস্ত্র বিক্রি করেন । লেবাননের গৃহযুদ্ধের সময়, Falklands যুদ্ধে আর্জেন্টিনা , ইকুয়েডর এবং নিকারাগুয়া সৈন্যবাহিনী কে অস্ত্রসম্ভার বিক্রি করেন । প্রথম উপসাগরীয় যুদ্ধের পর ইরাকের কাছে অস্ত্র বিক্রি করার দায়ে Soghanalian কে ছয় বছর জন্য জেল দেয়া হয় । তবে পরে সাজার মেয়াদ ২ বছর এ নিয়ে আসা হয় ।

4. মনযের -আল-কাসসার :



সিরিয়ার-জন্মগ্রহণকারী মনযের -আল-কাসসার এর মুগ্ধকর শিরোনাম "প্রিন্স অফ Marbella" । এই নামেই তিনি বেশি পরিচিত । তিনি আন্তর্জাতিক খ্যাতি সম্পন্ন অস্ত্র ব্যাপারী ।
তাঁর কর্মজীবন শুরু হয় 1970 সালে যখন ইয়েমেনি সরকার তাকে অনুরোধ করে যে তিনি তাদের জন্য পোল্যান্ড থেকে ট্রেডিং অস্ত্র কিনতে সহায়তা করেন ।
তিনি লন্ডনে বসবাস করেন প্রায় 1972 থেকে 1984 সাল পর্যন্ত । নিশিধ অস্ত্র এবং মাদক পাচারের জন্য ব্রিটিশ সরকার তাকে দেশে অবৈধ ঘোষণা করে । জাতিসংঘের তিনটি দেশের সঙ্গে অস্ত্র নিষেধাজ্ঞা ছিল । কিন্তু তিনি লক্ষ লক্ষ টাকার বিনিময়য়ে আস্র ক্রোয়েশিয়া, বসনিয়া এবং সোমালিয়া তে বিক্রয় করার চেষ্টা করেন । Kassar 2006 সালে ধরা পরেন মাদ্রিদে এবং এর এক বছর পরে 2007 সালে মার্কিন যুক্তরাস্টে হস্তান্তর করা হয় । গ্রেপ্তারের পরে তাকে দোষী সাব্যস্ত করা হয়েছিল ।

3. জাঁ বার্নার্ড Lasnaud :


ফরাসি-জন্মগ্রহণকারী জাঁ বার্নার্ড Lasnaud কে 2002 সালে সুইজারল্যাণ্ডের গ্রেফতার করা হয়েছিল । এটি Argentinian আদালত এবং Interpol থেকে অনুরোধের প্রায় তিন বছর শেষে গ্রেপ্তার করা হয় । পরিচয় গুপন করে amazingly Lasnaud শান্তিপূর্ণভাবে দক্ষিণ ফ্লোরিডা শহরে দশ বছরেরও বেশি সময়ের ধরে বসবাস করেন । Lasnaud তার বিলাসবহুল gated সম্প্রদায় থেকে অস্ত্র বিক্রি করতেন । শুধুমাত্র দুটি সন্দেহভাজন ক্লায়েন্ট দেশের সাথে চীন এবং সোমালিয়া । নিজের অনুমান অনুযায়ী, Lasnaud এর কোম্পানি ক্যারিবিয়ান গ্রুপের মধ্যে $ 1 এবং অস্ত্র মধ্যে$ 2.5 মিলিয়ন বিক্রি প্রতি বছর হত । ক্রোয়েশিয়া এবং ইকুয়েডর এর মধ্যে 1992 এবং 1995 সালের মধ্যে হাজার হাজার টাকার অস্ত্র সাহায্য এমনকি Lasnaud লেনদেনের সঙ্গে সাহায্যের জন্য তার নিজের ওয়েবসাইটের ব্যবহার করেন ।

2. Leonid Minin :


Leonid Minin জন্ম সূত্রে একজন ইউক্রেনীয় । তিনি কুখ্যাত আন্তর্জাতিক অস্ত্র ব্যাপারী । তিনি 1947 সালে জন্মগ্রহণ করেছেন এবং 1970 সালে ইজরায়েল এ চলে যান । তিনি জার্মান কর্তৃপক্ষ কর্তৃক গ্রেফতার হন। কিন্তু উপযুক্ত প্রমানের অভাবে ছাড়া পান । পরে 2000 সালে অবৈধ অস্ত্র লেনদেন জন্য ইতালীয় কর্তৃপক্ষ দ্বারা গ্রেফতার হন এবং দুই বছর দন্ডিত ছিলেন । 2005 সালে তাদের নিয়ে একটি সিনেমা তৈরি করা হয় । যাতে Nicolas Cage এর চরিত্র Minin, সেইসাথে Sarkis Soghanalian এবং আমাদের এক নম্বর, Viktor এর উপর ভিত্তি করে আংশিকভাবে নির্মিত ।

1. Viktor আনাতোলিয়েভিচ :


Viktor আনাতোলিয়েভিচ সবচেয়ে কুখ্যাত এই তালিকায় অস্ত্র চোরাইচালানকারী, বর্তমানে বিচারের সম্মুখীন এবং এইজন্য তার জীবনের বার বছর বিশ্রামে কাটাটে হয়েছে । 2010 সালে নিম্নলিখিত আভীযুগ আনা হয় । থাইল্যান্ড থেকে আমেরিকা DEA দ্বারা পাঁচ বছর অপারেশন , রাশিয়ান বেআইনীভাবে বিপ্লবী কলম্বিয়া মধ্যে সশস্ত্র মার্কিন বাহিনীর বিরুদ্ধে তাদের অভিযানের বাহিনী কে অস্ত্রশস্ত্র দেওয়ায় অভিযুক্ত ।
জুরি তাকে দোষী সাব্যস্ত করে এবং 2012 সালে প্রথম দিকে তাকে শাস্তি পেতে হবে । তাকে যাবজ্জীবন সাজা প্রাপ্ত আসামী হিসেবে ঘুষনা করা হতে পারে । তার আফ্রিকা এবং মিডিল ইস্ট টাকা ও অনান্য জিনিষপত্র এর পরিমাণ 1990 এবং 2000 সালে করেছেন রিপোর্ট করা হ্যান্য
"নিষেধাজ্ঞার গুরু" কুনু অভিযোগ করেনি কারণ তিনি যে এ্যাঙ্গোলা, লাইবেরিয়া, সিয়েরা লিওন এবং কঙ্গো সঙ্গে একই দশকে জাতিসংঘের ট্রেডিং মধ্যে অস্ত্র বিক্রির embargoes অতিক্রান্ত করেন । ২০০১ সালে আফগানিস্তানের ক্যাশ আউট আন্দোলনে তদ্ব্যতীত উপলক্ষ ছিল । তার বিরুদ্ধে চার্জ করা আভি যুগ গুলু কঠিন এবং প্রকৃতপক্ষে এর ভবিষ্যত সম্ভাবনাগুলি মোটামুটি ভয়ানক।

2010 সালে হস্তান্তরকৃতরা থেকে থাইল্যান্ড আমেরিকা একটি DEA দ্বারা পাঁচ বছর অপারেশন অনুসরণ রাশিয়ান জাতীয় দাঁড়িয়েছে বেআইনীভাবে বিপ্লবী কলম্বিয়া মধ্যে সশস্ত্র মার্কিন বাহিনীর বিরুদ্ধে তাদের অভিযানের বাহিনী কে অস্ত্রশস্ত্র দেওয়ায় অভিযুক্ত ।

২৭টি মন্তব্য ২০টি উত্তর

আপনার মন্তব্য লিখুন

ছবি সংযুক্ত করতে এখানে ড্রাগ করে আনুন অথবা কম্পিউটারের নির্ধারিত স্থান থেকে সংযুক্ত করুন (সর্বোচ্চ ইমেজ সাইজঃ ১০ মেগাবাইট)
Shore O Shore A Hrosho I Dirgho I Hrosho U Dirgho U Ri E OI O OU Ka Kha Ga Gha Uma Cha Chha Ja Jha Yon To TTho Do Dho MurdhonNo TTo Tho DDo DDho No Po Fo Bo Vo Mo Ontoshto Zo Ro Lo Talobyo Sho Murdhonyo So Dontyo So Ho Zukto Kho Doye Bindu Ro Dhoye Bindu Ro Ontosthyo Yo Khondo Tto Uniswor Bisworgo Chondro Bindu A Kar E Kar O Kar Hrosho I Kar Dirgho I Kar Hrosho U Kar Dirgho U Kar Ou Kar Oi Kar Joiner Ro Fola Zo Fola Ref Ri Kar Hoshonto Doi Bo Dari SpaceBar
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :
আলোচিত ব্লগ

এই তো আছি বেশ

লিখেছেন রানার ব্লগ, ১৯ শে অক্টোবর, ২০২১ দুপুর ১২:২১




বেশ হয়েছে বেশ করেছি
কানে দিয়েছি তুলো
জগত সংসার গোল্লায় যাক
আমি বেড়াল হুলো

আরাম করে হাই তুলে
রোজই দেখি পেপার
দেশ ভর্তি অরাজকতা
আচ্ছা!! এই ব্যাপার

কার ঘরেতে... ...বাকিটুকু পড়ুন

বাবনিক~২য় পর্ব (তৃতীয় খন্ড)

লিখেছেন শেরজা তপন, ১৯ শে অক্টোবর, ২০২১ দুপুর ১:৩৯


আগের পর্বের জন্যঃ Click This Link
ভোরের শুরু থেকে রাতের দ্বি-প্রহর পুরোটা সময় আমার এলিনার কাছে পিঠে থাকতে হয়। অল্প বয়সীরা যা হোক আকার ইঙ্গিত আর অতি ভাঙ্গা ইংরেজি বুঝে... ...বাকিটুকু পড়ুন

অন্বিষ্ট

লিখেছেন শিখা রহমান, ১৯ শে অক্টোবর, ২০২১ বিকাল ৪:৫৮


আজকাল কোন কিছুই আর অবাক করে না।
রাজপথে ফুটপাতে হেঁটে যাওয়া অগণিত মানুষের গল্প
খুব সাদামাটা মনে হয়;
কোন কবিতাই অবাক করে না আর,
উপমা-উৎপ্রেক্ষা শব্দের ব্যাঞ্জনা আশ্চর্য করে না আজকাল।

মহামারীতে উজাড় হয়ে... ...বাকিটুকু পড়ুন

কথায় কথায় ধর্মকে গালি ও উপহাস করবেন না.........

লিখেছেন জুল ভার্ন, ১৯ শে অক্টোবর, ২০২১ বিকাল ৫:১২

কথায় কথায় ধর্মকে গালি ও উপহাস করবেন না.........

ধর্মীয় উগ্রবাদ ও সংখ্যালঘুদের উপর অনাকাংখিত হামলার জন্য যে কোন ধর্মকে গালাগালি করা বা ধর্মকে দোষারোপ করা বন্ধ করুন।

১। মুসলমানদের মধ্যে একদল... ...বাকিটুকু পড়ুন

ধর্মীয়গ্রন্হ কে কিনতে পারবে, বহন করতে পারবে, কোথায় রাখতে পারবে?

লিখেছেন চাঁদগাজী, ১৯ শে অক্টোবর, ২০২১ সন্ধ্যা ৬:২১



কে ধর্মীয় বই কিনতে পারবেন, পড়তে পারবেন, কোথায় রাখতে পারবেন, কোথায় ফেলে দিতে পারবেন, এই নিয়ে কোন নিয়ম কানুন আছে?

আমি বাংলাদেশের কথা জানি না, নিউইয়র্কের কথা বলি;... ...বাকিটুকু পড়ুন

×