somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

সামু ব্লগারদের পরিচয়- প্রিয় উক্তি...

০১ লা এপ্রিল, ২০২১ রাত ১:০৬
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :



কোনটা কঠিন? একটা সমস্যার সমাধান করা নাকি সেই সমস্যাটা তৈরি করা?? আমার কাছে সবচেয়ে কঠিন কাজ নিজেকে পরিচয় করিয়ে দেয়া। না চাইতেও পৃথিবীর নিয়মগুলোর সাথে জড়িয়ে যায় আমরা। ঘড়ির কাটার মতো। একটা লক্ষ্যকে স্থির করে ঘুরতে থাকি। অসচেতন হলেই ছিটকে যাওয়ার ভয়! সেই ভয়কে জয় করে আমার মতো আপাত নির্বোধ-অহংকারী একজন ব্লগার হিসেবে কালের হিসেবে অর্ধযুগ কাটিয়ে দিয়েছে সামহোয়্যারইনব্লগে। এটা আমার কাছে বলার মতো একটা ঘটনাই বটে।

ব্লগারদের নিক-পরিচিতি-প্রিয় উক্তি/বাক্য আমি বেশ মনোযোগ দিয়ে পড়ি। যেমনটা বন্ধু-স্থানীয়দের সাথে দেখা হলে জেনে নিই প্লে লিস্টে কোন গানটা আজকাল বাজে বেশি। কোনো তদন্ত নয়, কেবল বন্ধুর মানসিক অবস্থাটা বুঝে নেয়ার চেষ্টা মাত্র। নিজেকে পরিচয় করিয়ে দেয়ার মধ্য দিয়ে অনেকে যা বলেন কিংবা লিখেন, তার চেয়েও অনেকবেশি কিছু প্রকাশ হয়ে যায়।

‘একদিন সব হাসির ময়নাতদন্ত হবে, ফরেনসিক রিপোর্টে লেখা থাকবে - সবই মিথ্যে।‘ এটা কাল্পনিক_ভালোবাসা ভাইয়ের কোট করা বাক্য। এই একটা বাক্য নিয়ে আমাই দীর্ঘদিন ভেবেছি। তিনি নিজেকে পরিচয় করিয়ে দিয়েছেন এভাবে- বহুদিন আগে কোন এক বারান্দায় শেষ বিকেলের আলোয় আলোকিত উড়ন্ত খোলা চুলের এক তীক্ষ্ণ হৃদয়হরনকারী দৃষ্টি সম্পন্ন তরুনীকে দেখে ভেবেছিলাম, আমি যাদুকর হব। মানুষ বশীকরণের যাদু শিখে, তাকে বশ করে নিশ্চিন্তে কাটিয়ে দিব সারাটি জীবন।

অগ্নি সারথি লিখেছেন- একটা বৈষম্যহীন সমাজের স্বপ্ন নিয়ে, আমি প্রান্তিক জনতার কথা বলতে এসেছি.......!

অপু তানভীর লিখেছেন- ‘আমার চোখে ঠোঁটে মুখে তুমি লেগে আছো'

অজ্ঞ বালক লিখেছেন- আমি আসলে একজন ভীষণ খারাপ মানুষ। তবে ভালো মানুষের মুখোশ পড়ে দুর্দান্ত অভিনয় করতে পারি বলে কেউ কিছু বুঝতে পারে না। সে হিসাবে আমি একজন তুখোড় অভিনেতাও বটে!!! ভেঙ্গে যাওয়া স্বপ্নগুলো কুড়িয়ে এখানে নিয়ে এসে ছুঁড়ে ফেলা হয়!!!

অধীতি লিখেছেন- ভেসে আসি সমুদ্রের ঢেউয়ে,বালুচর চুষে নেয় আমারে। আপনারেই চিনার তরে,পরিচয় দেই কি করে??

আমি রানা লিখেছেন- বাস্তব এবং সাধারন মানুষ আমার লিখার জীবন। এখানে রানা নামের একজন অতি সাধারন ব্যক্তির দৈনিক জীবন এবং তার দৃষ্টিতে সমাজের বর্তমান অবস্থা এবং এর প্রভাব তার নিজের ভাষায় প্রকাশ করা হবে। আমি বিশেষ কেউ বা কিছু না। যা মনে আসে যেভাবে মনে আসে তাই লিখি।

আখেনাটেন লিখেছেন- আমি আমাকে চিনব বলে বিনিদ্র রজনী কাটিয়েছি একা একা, পাই নি একটুও কূল-কিনারা কিংবা তার কেশমাত্র দেখা। এভাবেই না চিনতে চিনতেই কি মহাকালের পথে আঁচড় কাটবে শেষ রেখা? মনটা যদি তুষারের মতো...

আহমেদ জী এস- ট্রুথ নেভার ডাই্জ। পুরোপুরি একজন অতি সাধারন মানুষ । আমি যা আমি তাই ই । শয়তানও নই কিম্বা ফেরেশতা । একজন মানুষ আপনারই মতো দু'টো হাত, চোখ আর নিটোল একটা হৃদয় নিয়ে আপনারই মতো একজন মানুষ । প্রচন্ড রকমের রোমান্টিক আবার একই সাথে জঘন্য রকমের বাস্তববাদী...

আশরাফ সিদ্দিকী- পৃথিবীতে বিরল কিছু মানুষ থাকে যাদের কাছে কোন কিছু না হওয়াই এক ধরনের যোগ্যতা, জীবনের কোন এক পর্যায়ে এসে আমি নিজেকে আবিস্কার করলাম আমি সেই বিরল মানুষের শীর্ষে অবস্থান কারী একজন। তlই আমাকে কোন যোগ্যতার আলোকে বিচার না করলেেই ভালো লাগবে। আমার এই না পাওয়া জীবনে ভালোবাসার কিছু মানুষের সান্বিধ্যে ভালোই আছি।

আনসারী লিখেছেন- সত্য ও সুন্দরের পক্ষে কথা বলুন।

ইশতিয়াক ফাহাদ লিখেছেন- আমি নিকুঞ্জ পাগল এক আলোর সন্ন্যাসী।
ইলুসন- Sometimes people dont want to hear the truth because they dont want their illusions destroyed. Friedrich Nietzsche

ইছমাইল লিখেছেন- শিরোনামহীন

উপেক্ষিতা লিখেছেন- ‘উপেক্ষিতাদের কথা কেউই মনে রাখে না, কেউই তাদের বোঝে না। তারা উপেক্ষিত থেকেই নিরবে কাজ করে যায় পরিবারে ও সমাজে'।

উদাসী স্বপ্ন লিখেছেন- ঈশ্বর পটল তুলছে - নীৎসে/নীশে/নিৎচা। 'রক্তের নেশা খুব খারাপ জিনিস, রক্তের পাপ ছাড়ে না কাউকে, এমনকি অনাগত শিশুর রক্তের হিসাবও দিতে হয় এক সময়। গালাগাল,থ্রেট বা রিদ্দা করতে চাইলে এখানে যোগাযোগ করতে পারেন: [email protected]'

ঋণাত্মক শূণ্য লিখেছেন, দূরে থাকুন; ভালো থাকুন। নেগেটিভিটিতে বিশ্বাস করি না; তাই এমন নাম বেছে নিলাম, যা বাস্তব নয়!

ঋতো আহমেদ লিখেছেন- পেশায় প্রকৌশলী। অন্তর্মুখী। কবিতা ভালোবাসি ভীষণ। লিখিও। 'আমার হাতের দিকে বাড়ানো তোমার হাত। হাতের ভেতরে শিখা, শত্রুতার এমন রূপ! কামনা বিভীষিকা।'

ওমেরা লিখেছেন- শালীনতাই সৌন্দর্য্য

ক-খ-গ-ঘ-ঙ

কথাকথিকেথিকথন লিখেছেন- আমার একটি দুঃখ আছে, নাম তার 'সুখ' ! যার পেছনে দৌঁড়াতে দৌঁড়াতে হচ্ছি আমি নিত্যি বেহুশ !! ' আমি একজন পরীক্ষার্থী...'

ক্লে ডল লিখেছেন- কান্না হাসির এই খেলা ঘরে।আমি এক জীবন্ত মাটির পুতুল।সব খেলা সাঙ্গ হবে একদিন।অপূর্ণ স্বপ্নদের কাকুতি থেমে যাবে।মায়ার পৃথিবীর সাথে হবে চির ছাড়াছাড়ি। ' বিধাতা তোমার দয়ার আশায় ই প্রতিটি দীর্ঘশ্বাসের শেষে নতুন স্বপ্ন বুনি।

কল্পদ্রুম লিখেছেন- জ্ঞানিরা বলেন মানুষ জন্মমাত্রই মানুষ নয়,তাকে যোগ্যতা অর্জন করে তবেই মানুষ হিসেবে পরিচয় দিতে হয়।যোগ্যতা আছে কি না জানি না,হয়তো নিতান্তই মূর্খ এক বাঙ্গাল বলেই নিজেকে নির্দ্বিধায় মানুষ হিসেবে পরিচয় দিয়ে ফেলি। আমি আপনার চেয়ে আপন যে জন খুঁজি তারে আমি আপনায়

কলাবাগান১ লিখেছেন- ‘বাংলাদেশ হোক রাজাকার মুক্ত’

কিবরিয়া জাহিদ মামুন লিখেছেন- শহুরে ফোকলোর। যা শুনি- যা দেখি - যা ভাবি - তা লিখতে ইচ্ছে করে ।

কাজী ফাতেমা ছবি- নিজের পোস্টের উত্তর দিতে দেরী হয় সেজন্য সরি। সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। লেখকের অনুমতি ব্যতীত যে কোন কবিতা, গল্প, ছড়া, রম্য ইত্যাদি সাহিত্যকর্ম যে কোন গনমাধ্যমে যেমনঃ-ম্যাগাজিন, ফেসবুক, ব্যক্তিগত ব্লগ, সামাজিক মাধ্যম, পত্রিকা ও ওয়েবসাইটে প্রকাশ নিষিদ্ধ। বাংলাদেশ কপিরাইট আইন, ২০০০ লংঘন একটি শাস্তিযোগ্য ও দণ্ডনীয় অপরাধ। কপি পেস্ট-ভ্রমরের ডানা”

কাল হিরা লিখেছেন - জানিনা , কিছুই জানিনা , যা জানি তা অনেক অল্প , অল্প জানা মানুষ আমি। না বলতে পারার যন্ত্রনা বয়ে বেড়ান পোকা।

খেয়া ঘাট লিখেছেন- ভাষাহীন বাবুই।

খায়রুল আহসান লিখেছেন- একজন সুখী মানুষ, স্রষ্টার অপার ক্ষমা ও করুণাধন্য, তাই স্রষ্টার প্রতি শ্রদ্ধাবনত। ‘অবসরে আছি। কিছু কিছু লেখালেখির মাধ্যমে অবসর জীবনটাকে উপভোগ করার চেষ্টা করছি। কিছু সমাজকল্যানমূলক কর্মকান্ডেও জড়িত আছি। মাঝে মাঝে এদিক সেদিকে ভ্রমণেও বের হই। জীবনে কারো বিরুদ্ধে কোন অভিযোগ করিনি, এখন তো করার প্রশ্নই আসে না। জীবন যা দিয়েছে, তার জন্য স্রষ্টার কাছে ভক্তিভরে কৃতজ্ঞতা জানাই। যা কিছু চেয়েও পাইনি, এখন বুঝি, তা পাবার কথা ছিলনা। তাই না পাওয়ার কোন বেদনা নেই।‘

গার্ডেড ট্যাবলেট লিখেছেন- সুরক্ষিত আধারে ধারন করছি সব কষ্ট, দু:খ আমরন। "এমন মানব জনম আর কি হবে। মন যা কর, ত্বরায় কর এই ভবে।" ‘সুরক্ষিত আধার’

গেঁয়ো ভূত- দুঃখের হাটে সুখ বেচি, শান্তি খুঁজি অশান্তির বাজারে। দাম দিয়ে কিনি যন্ত্রণা।

চ-ছ-জ-ঝ-ঞ

চাঁদগাজী ভাই বলেছেন সম্পদহীনদের জন্য শিক্ষাই সম্পদ। ‘শিক্ষা, টেকনোলোজী, সামাজিক অর্থনীতি ও রাজনীতি জাতিকে এগিয়ে নেবে'।

জুন লিখেছেন- The best and most beautiful things in the world cannot be seen or even touched - they must be felt with the heart---Helen Keller ইবনে বতুতার ব্লগ

জুল ভার্ন- সামু, আমার প্রিয় সামু-প্রত্যাশা পুরণে ব্যার্থতার ভারে নূহ্য! বর্তমান সামু কোনো দিন প্রত্যাশিত ছিলনা-তাই আপাতত সামু চর্চা বন্ধ। আপাতত সামু নষ্টদের দখলেই থাকুক। যদি মডারেটর চান-তাহলেই সামু আবার ফিরে আসবে স্বমহিমায়, ফিরে আসবো আমিও অনেকের মতই। ভালো থেকো প্রিয় বন্ধুরা। সকলের জন্য শুভ শুভ কামনা। * প্রানবন্ত কল্পনাশক্তির প্রয়োগে স্বচ্ছ ভাবনা আর বাস্তবতার মিশেলে মানুষ ক্রমশই সংকীর্ণ আর ক্ষুদ্র গন্ডিতে আবদ্ধ হয়ে যাচ্ছে।সব কিছু ছোট হয়ে যাচ্ছে, ছোট হয়ে যাচ্ছে আমাদের চিন্তা শক্তি-ছোট হয়ে যাচ্ছে আমাদের মন। আসুন পারস্পরিক মূল্যবোধ বিনিময়ে নিজ নিজ ভুল্গুলো শুধরে নিয়ে নিজেকে বিকশিত করি।

জি এম হারুন অর রশিদ লিখেছেন- আমার কারো কাছে নেই কোন অভিমানের দেনাপাওনা, নেই কোন কষ্টের হিসাব, তবুও লুকিয়ে থাকা হাহাকার পরম যতনে আগলে রাখি-- প্রথম পাওয়া চিঠির মত, আমি এই রকমই বন্ধু । ‘আরেকটা জীবন যদি পেতাম আমি নির্ঘাত কবি হতাম’

জাহিদ অনিক লিখেছেন- আমি বাপু নিরীহ নিপাট ভদ্দরলোক।'ভালোবাসি কবি ও কবিতাকে'।

ট-ঠ-ড-ঢ-ণ

ডার্ক ম্যান বলতে চান, আমি বিশুদ্ধ কোন মানব নই, তুমি তোমার মত করে শুদ্ধ করে নিও আমায়। ‘…’

ডাব্বা লিখেছেন- জোছনা রাত। হট চকলেট। লেক এর পাড়। ছোট ছোট চুমুক। ভেজা রাস্তায় চেনা মুখ। আলিঙ্গন। তার প্রিয় উক্তি- ‘প্রতিবাদ তো পজিটিভও হতে পারে’।

ত-থ-দ-ধ-ন

তারেক ফাহিম লিখেছেন- সর্বদায় জীবনের অর্থ খুঁজে বেড়াই। ‘অজানাকে জানতে গিয়ে অস্থিরতার বোঝা নিয়ে স্পষ্টতাকে পুড়ে দিয়ে অন্ধকারে বুক পুলাই’।

ত্রিশিলা লিখেছেন- মেঘের আড়ালে বৃষ্টি খুজি। মাথার উপর যদি রাখতে না পারো তাহলে মস্তিস্কের চিন্তা্য় রেখো । তারপর আমরা ভিন্ন পথের পথিক হবো।

দূর আকাশের নীল তারা লিখেছেন- ‘লেখালেখির অভ্যাসটা আগে ছিল, এখন আর লেখা হয় না। এককালে কবিতাও লিখতাম। পড়াশোনা করেছি ঢাবি-র প্রাণরসায়নে। ৪বছরে প্রাণরসায়ন প্রাণটুকু রেখে রসটুকু কেড়ে নিয়েছে। তাই এখন আর কবিতা লিখাও হয় না। আমি রাজনীতি করি না, কিন্তু আমার দেশকে নিয়ে কেউ বাজে কিছু বললে মাথা ঠিক রাখতে পারি না। আসলে দেশের বাইরে থাকি বলেই বোধ হয় দেশ এত ফীল করি'।

দ্বীপ রয় লিখেছেন- সময়ের স্রোতে-উল্টো পথে,উল্টো রথে চলছি...

নতুন লিখেছেন- স্বপ্ন দেখি নতুন বাংলাদেশের, সোনার বাংলা।শখ ফটোগ্রফি, স্বাধ আছে বিশ্বদেখার। অবসর সঙ্গী আমার কম্পিউটার আর বই। ভালবাসি-আমার জানটুপুটুস কে, নিজেকে, আমার মা, মাটি আর দেশকে

নতুন নকিব; আলহামদুলিল্লাহ। যা চাইনি তার চেয়ে বেশি দিয়েছেন প্রিয়তম রব। যা পাইনি তার জন্য আফসোস নেই। সিজদাবনত শুকরিয়া। প্রত্যাশার একটি ঘর এখনও ফাঁকা কি না জানা নেই, তাঁর কাছে নি:শর্ত ক্ষমা আশা করেছিলাম। তিনি দয়া করে যদি দিতেন, শুন্য সেই ঘরটিও পূর্নতা পেত! ‘যবে উৎপীড়িতের ক্রন্দল-রোল আকাশে বাতাসে ধ্বনিবে না, অত্যাচারীর খড়্গ কৃপাণ ভীম রণ-ভূমে রণিবে না- বিদ্রোহী রন-ক্লান্ত। আমি সেই দিন হব শান্ত।‘

নয়ন বড়ুয়া লিখেছেন- একজীবনে শুধু মানুষের গল্প শুনতে চাই, আর নিজের মত করে গল্পগুলো লিখতে চাই...। 'মানুষ দেখতে পছন্দ করি, এবং মানুষের গল্প শুনতে পছন্দ করি...'

নান্দনিক নন্দিনী লিখেছি- যে কোনো ভূমিকায় সমানে লড়ে যাই, আপনি যেমন চান আমি ঠিক তাই। ‘লেখালেখি হচ্ছে প্রেমে পড়ার মতন একটা ব্যাপার, কোনো ধরনের কর্তৃত্ব জাহির করা নয়।

নির্বাসিত শব্দযোদ্ধা লিখেছেন- যেন মৃত্যু হচ্ছে লোকালয়ে প্রতিদিন,মরে যাচ্ছি আজাবে সুদহীন...। 'শহুরে ডিপ্রেশনে আবদ্ধ.....'

নজসু লিখেছেন- একদিন হাঁস হবো..।

নেওয়াজ আলী লিখেছেন- হে পরমেশ্বর,এই নশ্বর নিখিল সৃষ্টিতে রেখো না ওই মানুষ যার ভিতর নরত্বের অভিনিবেশ নাই ।

নাজমুল হক জুয়েল লিখেছেন- ভাষায় মুক্তি, মুক্তিতে ভাষা। মনে ও মননে রবীন্দ্রনাথ ও লালনকে ধারন করেছি তাই মানুষেই পরম ভক্তি।

নেয়ামুল নাহিদ লিখেছেন- লেখালেখি আমার সখ নয়, আমার প্রয়োজন। ‘আমাকে আমি বুঝি কতটুকু!’

নিক্সন লিখেছেন- “Be real, be yourself, be unique, be true, be honest, be humble, be happy” “মানুষকে ভালবাসার মধ্যে নিহিত আছে পরম তৃপ্তী”

নেক্সাস লিখেছেন- কে হায় . হৃদয় খুঁড়ে বেদনা জাগাতে চায়

নিয়াজ আহমাদ - আমি একজন মনুষ্য ছাত্র।এর থেকে বড় পরিচয় আমার বর্তমানে আর নেই।আর প্রচণ্ড তথ্যপিপাসু মানুষ।সবসময় নতুন নতুন তথ্যের সন্ধান করি আর সেগুলো থেকে সত্যকে বাছাই করি।এই দুনিয়াতে সত্য আর মিথ্যার পার্থক্য করতে পারাটাই হয়ত সবচেয়ে কঠিন আর আনন্দদায়ক কাজ।সময় পেলে ধর্ম,রাজনীতি,বিজ্ঞান নিয়ে পড়াশোনা করি আর অবাক হই যে এত এত ভুলের মধ্য দিয়েও দেশ,জাতি কিভাবে তরতর করে এগিয়ে যাচ্ছে।

নীলসাধু লিখেছেন- সম্পাদক, শিল্প ও সাহিত্য বিষয়ক ত্রৈমাসিক 'মেঘফুল'। প্রতিষ্ঠাতা স্বেচ্ছাসেবী মানবিক সংগঠন 'এক রঙ্গা এক ঘুড়ি'। ‘আমি খুব সহজ এবং তার চেয়েও বেশী সাধারন একজন মানুষ । আইটি প্রফেশনাল হিসেবে কাজ করছি। টুকটাক ছাইপাশ কিছু লেখালেখির অভ্যাস আছে। মানুষকে ভালবাসি। বই সঙ্গে থাকলে আমার আর কিছু না হলেও হয়। ভালো লাগে ঘুরে বেড়াতে। ভালবাসি প্রকৃতি; অবারিত সবুজ প্রান্তর। বর্ষায় থৈ থৈ পানিতে দুকুল উপচেপরা নদী আমাকে টানে খুব। ব্যাক্তিগতভাবে বাউল, সাধক, সাধুদের প্রতি আমার দুর্বলতা আছে। তাই নামের শেষে সাধু। এই নামেই আমি লেখালেখি করি। আমার ব্লগে আসার জন্য আপনাকে ধন্যবাদ। শুভকামনা রইলো। ভালো থাকুন সবসময়। শুভ ব্লগিং।

নূর মোহাম্মদ নূরু- (পেশাঃ সংবাদ কর্মী), জন্ম ২৯ সেপ্টেম্বর প্রাচ্যের ভেনিস খ্যাত বরিশালের উজিরপুর উপজেলাধীন সাপলা ফুলের স্বর্গ সাতলা গ্রামে ।দেখি শুনি স্মৃতিতে জমা রাখি আগামী প্রজন্মের জন্য, বিশ্বাস রাখি শুকনো ডালের ঘর্ষণে আগুন জ্বলবেই। ভবিষ্যৎকে জানার জন্য আমাদের অতীত জানা উচিতঃ জন ল্যাক হনঃ ইতিহাস আজীবন কথা বলে। ইতিহাস মানুষকে ভাবায়, তাড়িত করে। প্রতিদিনের উল্লেখযোগ্য ঘটনা কালক্রমে রূপ নেয় ইতিহাসে। সেসব ঘটনাই ইতিহাসে স্থান পায়, যা কিছু ভাল, যা কিছু প্রথম, যা কিছু মানবসভ্যতার অভিশাপ-আশীর্বাদ। তাই ইতিহাসের দিনপঞ্জি মানুষের কাছে সবসময় গুরুত্ব বহন করে। এই গুরুত্বের কথা মাথায় রেখে সামুর পাঠকদের জন্য আমার নিয়মিত আয়োজন ‘ইতিহাসের এই দিনে’। জন্ম-মৃত্যু, বিশেষ দিন, সাথে বিশ্ব সেরা গুণীজন, এ্ই নিয়ে আমার ক্ষুদ্র আয়োজন।


প-ফ-ব-ভ-ম

পদ্ম পুকুর লিখেছেন- লেখালেখি একটা নেশার মত। বিভিন্ন ঘাট পেরিয়ে কর্পোরেট জগতে থিতু হওয়ার পরও তাই লিখে যাই যা মনে আসে তাই। পদ্মার ওপাড়ের মানুষ হওয়ায় জন্মগতভাবেই স্মৃতিকাতর। এ আমার দুর্বলতা নয়, অহংকার। 'একজন শভেনিস্ট ও স্মৃতিকাতর মানুষ'।

প্রনব দেবনাথ একজন চিত্র সাংবাদিক। ‘সময়ের থেকে দামী, জ্ঞানের থেকে উৎকৃষ্ট কোনো বস্তু বা তত্ত্ব নেই’

পার্থসারথী ব্যানার্জী; কিছু কথা, কিছু ভাবনা.. কিছু জরুরী, কিছু ফেলনা।

পাজী- পোলা লিখেছেন- অযথা হাবিজাবি। কিছুই পারি না, হুদায় লাফালাফি করি....

পাকাচুল লিখেছেন- ‘অনেক হয়েছে, আর না’

ফয়সাল রকি লিখেছেন- চূড়ান্ত রকম ফাঁকিবাজ একজন মানুষ আমি।
বিদ্রোহী ভৃগু লিখেছেন- আমি সেই দিন হব শান্ত.... “সকল অনাচার আর অনিয়ম জাগায় দ্রোহ.....”

বেঙ্গল রিপন লিখেছেন- পথের মাঝেই পথ হারানো এক ক্লান্ত পথিক আমি, জীবনপথের ঠিকানা হারিয়ে ছুটে বেড়াই দিক-বিদিক, ছুটতে ছুটতে আজ বড্ড ক্লান্ত !!!

ভুয়া মফিজ লিখেছেন- ভুয়া মফিজের সাথে ভুয়ামি না করাই ভালো...

মনিরা সুলতানা লিখেছেন- চলে গেলে- তবু কিছু থাকবে আমার : আমি রেখে যাবো আমার একলা ছায়া, হারানো চিবুক, চোখ, আমার নিয়তি। ‘সামু র বয় বৃদ্ধার ব্লগ'

মুক্ত মানব লিখেছেন- ‘কহিলো সে ফিরে দেখো, দেখিলাম থামি , সম্মুখে ঠেলিছে মোরে পশ্চাতের আমি...

মি. বিকেল লিখেছেন- আমি অতি সাধারণ। তাই সাধারণের মাঝেই ডুবে থাকতে ভালোবাসি। 'বিকেলের ক্লান্তিকতা আমার খুব ভালো লাগে। কারণ সেই ক্লান্তিকতায় ডুবে থাকা মানুষদের না জানিয়ে আমি আমার কাজটুকু নিরবে করে যেতে পারি।'

মেঘনা পাড়ের ছেলে লিখেছেন- জনারণ্যে নির্জনতায় আক্রান্ত

মোহাম্মদ সাজ্জাদ হোসেন লিখেছেন- বাংলা ভাষা অনেক সুন্দর একটি ভাষা। বাংলা আমার ভাষা। বাংলা আমার দেশ। ‘আমি কেউ না। কবে যে কেউ হতে পারবো।‘

মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান তমাল বলেছেন, প্রগতিশীলতায় বিশ্বাসী। কূপমণ্ডুকতা ঘৃণা করি। ভালোবাসি সাহিত্য। ‘বলার মত কিছুই নই আমি। একজন মহামূর্খ।

মোঃ মাইদুল সরকার লিখেছেন - জীবন কেবলই ফুরিয়ে যায়।একদিন জীবন শেষ হয়ে যাবে তবুও অনেক কিছু করার সাধ জাগে..............

মাহিরাহি লিখেছেন - আধার রাত্রি ভোরের অনেক বাকী স্বপ্ন দেখার সুযোগ এখন তাই । বাড়ী আখাউড়া।
আখাউড়া রেলওয়ে হাইস্কুল থেকে পাস করে সোজা ঢাকায় চলে আসি। কিছুদিন সিটি কলেজে ছিলাম। ছিলাম জগন্নাথেও। তারপর টোকিওতে কাটিয়েছি সাড়ে ছয়টি বছর। দেশে ফিরে এসে চাকুরি আর সংসার নিয়ে আছি। দুটো ছেলে, মাহি আর রাহি। একজনের সাড়ে ছয় আর আরেকজনে সদ্য চার পেরিয়েছে। ওদের নামদুটো জুড়ে দিয়েই আমার নিকের জন্ম। বেশিরভাগ সময়কাটে সন্তানের সান্নিধ্য। ঘরকুনো মানুষ আমি। লেখালেখিতে হাতেখড়ি এই সা ইন বল্গে এসেই। কেউ বন্ধুত্বের হাত বাড়িয়ে দিল ফিরিয়ে দেয়ার মত উদ্ধত্য আমার নেই। সবারই বন্ধু হতে চাই।


য-র-ল-শ-ষ-স

যাযাবর জোনাকি লিখেছেন- 'আমাদের চাওয়া আর পাওয়ার মাঝখানে একটা দেয়াল আছে, এর একদিকে থাকে চাওয়া,আর একদিকে পাওয়া। মুখ্য সমস্যা হল দেয়ালটা স্বচ্ছ কাঁচের'।‘আমাদের চাওয়া আর পাওয়ার মাঝখানে একটা দেয়াল আছে, এর একদিকে থাকে চাওয়া,আর একদিকে পাওয়া। মুখ্য সমস্যা হল দেয়ালটা স্বচ্ছ কাঁচের’।

রাজীব নুর লিখেছেন- আমার নাম- রাজীব নূর খান। ভালো লাগে পড়তে- লিখতে আর বুদ্ধিমান লোকদের সাথে আড্ডা দিতে। কোনো কুসংস্কারে আমার বিশ্বাস নেই। নিজের দেশটাকে অত্যাধিক ভালোবাসি। সৎ ও পরিশ্রমী মানুষদের শ্রদ্ধা করি। ‘আমি একজন ভাল মানুষ বলেই নিজেকে দাবী করি। কারো দ্বিমত থাকলে সেটা তার সমস্যা।‘

রাফা লিখেছেন- আমি নিরপেক্ষ নই, আমি মুক্তিযুদ্ধের পক্ষে।ভালবাসি জন্মভুমি বাংলাদেশ ।অসহ্য মনে হয় যে কোন অন্যায়-কে।অসততার সাথে আপোষ নয় কখনই।গালি সহ্য করার মানসিকতা শুণ্যের কোঠায়।রাজাকার,আলবদর ,আল সামস মোট কথা বাংলাদেশের বিরোধী যে কোন শক্তিকে প্রচন্ড রকম ঘৃণা করি। তার চাইতে বেশি ঘৃণা করি নব্য ছাগিয়তাবাদিদের। যারা আশ্রয় প্রশ্রয় দেয় যুদ্ধাপরাধীদের ।

রামিসা রোজা লিখেছেন- সমুদ্রের যেমন জোয়ার ভাটা আছে, মানুষের জীবনে তেমনি জোয়ার ভাটা আছে। সমুদ্রের এদিক টার সাথে মানুষের জীবনের বড্ড মিল খুঁজে পাই ...।

রানার ব্লগ লিখেছেন- আশা নিয়ে বসে আছি। ‘দুরে থাকুন তারা যারা ধর্ম কে পুজি করে জীবিকা নির্বাহ করেন। দূরে থাকুন তারা যারা ১৯৭১ থেকে আদ্যাবদি বাংলাদেশ বিরধী কর্মকাণ্ডে লিপ্ত এবং সকল পাকিস্থানী প্রেমী গন'।

রাকু হাসান- আশাবাদী। সাদামাটা জীবন পছন্দ । ভালোবাসা ছড়িয়ে দাও ।ভালোবাসো এ দেশ,মানুষ,প্রকৃতি কে ।

রাবেয়া রাহীম- কস্তুরী খুঁজে ফিরে তার সুবাস..হায় মৃগ, যদি জানত গন্ধ কার! পাখিও খুঁজে ফিরে শিস--হায়, যদি সে জানত! সুর থাকে ভেতরে, অন্তরে.। চুপটি করে এই তো এখনো ডাকে, ব্যকুল হয়ে - ডাকে আর ডাকে ।। মানব মন বুঝে, সাধ্য আছে কার ! কখনো আবেগী গাঁথুনিগুলো যেন নিরেট কনক্রিট কখনো আবার গভীরে সাজানো আবেগগুলো- সৌরভে সুবাসিত হয়ে আনন্দে লীন !

রোকসানা লেইস- স্রোতের অজানা টানে সমুদ্র বালিয়াড়ি বেয়ে বোহেমিয়ান- গৃহকোন, জীবন যাপন ফেলে চলে যায়। তুমি দুহাত বাড়িয়ে আলিঙ্গনে বাঁধতে চাও জোছনা গলে হারিয়ে যায় সুখ । আছড়ে পরা ঘূর্ণিজল মনে বাজায় অচেনা সবুজ দিগন্ত .. প্রকৃতি আমার হৃদয়

রূপক বিধৌত সাধু; মন রে, কৃষিকাজ জানো না; এমন মানবজমিন রইলো পতিত আবাদ করলে ফলতো সোনা! রামপ্রসাদ সেন
নেয়ামুল নাহিদ,; লেখালেখি আমার সখ নয়, আমার প্রয়োজন। ‘আমাকে আমি বুঝি কতটুকু!’

রহমান লতিফ,,,, (ল) লিখেছেন- ‘তুমি জীবন খুঁজো সুখের নীড়ে, আমি জীবন খুঁজি দুঃখের ভীরে।,,,

লীনা দিলরুবা লিখেছেন- একটি পৃথিবী নষ্ট হয়ে গেছে আমাদের আগে।

শহুরে আগন্তুক- তবু আজও স্বপ্ন দেখার নেই মানা ........। নিজের কাছে নিজেই অচেনা রয়ে গেছি আজো । চেনার চেষ্টা করছি । মানুষ হিসেবে কেমন তা অন্যরাই ভাল বলতে পারবে । আমার কাছে আমি আমার মতোই । আশাবাদী , স্বপ্ন দেখতে ভালোবাসি । সুন্দর এবং শুদ্ধ অনুভূতিময় স্বপ্ন ।

শিখা রহমান লিখেছেন- কবিতা প্রেমী; একটু এলোমেলো; উড়নচণ্ডী; আর বই ভালবাসি। শব্দ নিয়ে খেলা আমার বড্ড প্রিয়। গল্প-কবিতা-মুক্ত গদ্য সব লিখতেই ভালো লাগে। "কেননা লেখার চেয়ে ভালো ফক্কিকারি কিছু জানা নেই আর।" পুরনো ইমেজারির ব্যবসা করি। চিত্রকল্প সস্তায় বানাই। টান টান রিমেকশিল্প, ওপরে ঝকঝক করছে স্কাই।.........লোকে পড়ে ভাবে এ তো নতুন, আনকোরা কৌটো। কিন্তু সেই একই, সেই একই বন্দিপ্রাণ ছটফট ভ্রমর....।

শের শায়রী লিখেছেন- অমরত্বের লোভ কখনো আমাকে পায়না। মানব জীবনের নশ্বরতা নিয়েই আমার সুখ। লিখি নিজের জানার আনন্দে, তাতে কেউ যদি পড়ে সেটা অনেক বড় পাওয়া। কৃতজ্ঞতা জানানো ছাড়া আর কিছুই নেই।হৃদয়ের কাছে বুদ্ধির বাস ভাল কথা। কিন্তু মাঝে মঝে হৃদয়ের ওপর থেকে বুদ্ধির শাসন তুলে দিতে হয়, হৃদয়কে স্বাধীন করে দিতে হয়, মুক্ত করে দিতে হয়। স্বাধীন মুক্ত হৃদয়ের ধর্মকে সব সময় বুদ্ধি দিয়ে বিচার করতে নেই।

শেরজা তপন লিখেছেন- মাঝে মাঝে মনে হয় জীবনটা অন্যরকম হবার কথা ছিল! অনেক সুখের গল্প হল-এবার কিছু কষ্টের কথা শুনি...

শিসতালি লিখেছেন- ইচ্ছে থাকিলে উপায় হয়, আমার কেবল উপায় থাকিলেই ইচ্ছে হয়। Stay Hungry, Stay Foolish!Stay Sexy, Stay Virgin!!!

শূন্য সারমর্ম লিখেছেন- "নিজকে জানো"- বাক্য নিয়ে জ্ঞানীকুলের ব্যস্ত থাকার পথে ভ্রমন করতে চাচ্ছি,এর বেশি কিছুই না। Two things define you: Your patience when you have nothing & your attitude when you have everything.

শাহেদ শাহরিয়ার জয় লিখেছেন- সত্য সবসময় সত্য,আমি সত্যেরই সারথী।লেখালেখির অভ্যাস পুরানো,ফেলতে পারি না;সময় অসময়ে জেগে ওঠে।ব্লগ কিংবা ফেবুতে আমি একজনই.."শাহেদ শাহরিয়ার'',জয়' নামটা বন্ধুদের দেয়া।ওটা'ও তাই রেখেই দিয়েছি।লিখছি,যতকাল পারা যায় লিখব;ব্যস এতটুকুই!আমি শাহেদ শাহরিয়ার,একটু আবেগি আর খানিকটা যৌক্তিক।

শরীফ রায়হান লিখেছেন- নাথিং ...... এভরিথিং ... 'স্বপ্ন দেখি বলেই সকাল বেলা দেরিতে ঘুম থেকে উঠি, তারপর সারাটাদিন রাতের জন্য অপেক্ষায় থাকি।

সাহসী সন্তান লিখেছেন- যদি কখনো নিজেকে একা ভাবো, তাহলে ঐ দূর আকাশের অসীম সীমান্তের দিকে তাকিয়ে থাকো! কখনো নিরাশ হয়ে যেও না! হয়তো বা একটা বাজপাখিও তোমার দিকে উড়ে আসতে পারে! 'আমাকে তোর ভালোবাসার দরকার নেই। শুধু পাশে থেকে একটু সাহস যোগাস, দেখবি তখন ভালোবাসাটা এমনিতেই চলে আসবে!!'

সামু পাগলা ০০৭ লিখেছেন- আমি অতিআবেগী, আগে ব্যাপারটা লুকানোর চেষ্টা করতাম। এখন আর করিনা।

সাকিবুল ইসলাম সাজ্জাদ লিখেছেন- ভূমিষ্ঠ হওয়ার পরই আমার ছাড়পত্র নিয়ে আমার আগমন।

সামিয়া লিখেছেন- ব্লগের স্বত্বাধিকারী সামিয়া।সৎ, সাদাসিধা মানুষ। একটু স্বাধীন টাইপ। পড়তে ভাললাগে, লিখতে ভাললাগে, ছবি তুলতে ভাললাগে, মানুষের মুখে হাসি দেখতে ভাললাগে।

সোনাবীজ; অথবা ধুলোবালিছাই লিখেছেন-শব্দকবিতা : শব্দেই দৃশ্য, শব্দেই অনুভূতি ‘দুঃখের কবিতাই শ্রেষ্ঠ কবিতা। ভালোবাসা হলো দুঃখ, এক ঘরে কবিতা ও নারী।‘

সোহানী লিখেছেন- হাজার হাজার অসাধারন লেখক+ব্লগারের মাঝে আমি এক ক্ষুদ্র ব্লগার। পৈত্রিক সূত্রে পাওয়া লেখালেখির গুণটা চালিয়ে যাচ্ছি ব্লগ লিখে। যখন যা দেখি, যা মনে দাগ কাটে তা লিখি এই ব্লগে। ‘আমি অতি বিরক্ত হয়ে আমার অনেক লিখাই ড্রাফটে নিয়েছি কারন সামুতে আমার কিছু ভাবনা শেয়ার করছি, আর এ ভাবনা গুলো আমার অনুমতি ব্যাতিরেকে কপি না করার অনুরোধ করেছিলাম কিন্তু যত্রতত্র আমার লিখার কপি পেস্ট দেখেই যাচ্ছি দিনের পর দিন।

সেলিম আনোয়ার লিখেছেন- বেঁচে থাকা দারুন একটা ব্যাপার ।কিন্তু কয়জন বেঁচে থাকে। আমি বেঁচে থাকার চেষ্টা করি।সময় মূল্যবান ।জীবন তার চেয়েও অনেক বেশী মূল্যবান।আর সম্ভাবনাময়।সুন্দর।ঢাকাবিশ্বদ্যিালয়ের পাঠ চুকিয়ে নিরস চাকুরীজীবন।সামনে আরও নিরস ভবিষ্যৎ। নিরস জীবন সরসভাবে কাটানোর প্রচেষ্টায় আমি সেলিম আনোয়ার।

সিগনেচার নসিব লিখেছেন- ব্যক্তিগত ভাবে খুবই শান্তিপ্রিয় মানুষ। আবার প্রবলভাবে সেলফ ডিফেন্সের সমর্থক। ‘প্রবল ইচ্ছাশক্তি ও পরিশ্রম মানুষকে শীর্ষস্থানে অধিষ্ঠিত করে'।

স্থিতধী লিখেছেন- মনেরও ঘর থাকে। মন ও উদ্বাস্তু হয়।হয়ে পড়ে ভ্রাম্য মন। স্থিতধী আর ভ্রাম্য মনের লড়াইয়ে জন্ম নেয়, কিছু স্পষ্ট উচ্চারণ। 'আমরা সবাই যেন একেকটি খামে মোড়া চিঠি। সবাই পারেনা সে খাম খুলে আমাদের পড়ে নিতে।'

স্বপ্নের শঙখচিল এর পরিচিতি- মানুষের জীবন প্রতিদিন তার বেঁচে থাকার লাইসেন্স নবায়ন করে ।প্রকৃতি এটা নিয়ন্ত্রন করে,যেদিন নবায়ন হবেনা,সেদিন মৃত্যু অনিবার্য । তার প্রিয় উক্তি ‘আমার মনের মাঝে শঙ্খচিল ডানা মেলে প্রতিদিন,ভুলতে পারিনি সেই অভিমান আবার ফিরে আসা তোমার কাছে !’

সুনীল সমুদ্র লিখেছেন- কেবল সমুদ্র পারে শুষে নিতে সব..
সাইন বোর্ড লিখেছেন- আশা আছে বলে এখনো স্বপ্ন দেখি, নিজেকে নির্মাণ করার চেষ্টা করি প্রতিনিয়ত... সব কিছুর উর্ব্ধে উঠা যায় না, তবু মাঝে মাঝে ইচ্ছে হয়...

সূর্য রয় লিখেছেন- আশাবাদী, স্বপ্ন দেখি, ভোর ভাল লাগে। কলম ঘষে চলছি লেখক হবার উদ্দেশ্যে নয় কেবল নিছক আনন্দ পাবার উদ্দেশ্যে। না বলা কথা লিখে লিখে বলি।

ৎঁৎঁৎঁ লিখেছেন- এমন মানব জনম আর কি হবে ! 'আমি যুক্তিশূন্য ঈশ্বর মানতে রাজী আছি, কিন্তু কোন হৃদয়হীন ঈশ্বর না।'

আরও কিছু ব্লগারদের পরিচিত এবং উক্তি যুক্ত হচ্ছে...
সর্বশেষ এডিট : ১৮ ই মে, ২০২১ সন্ধ্যা ৬:৩৫
৩৫টি মন্তব্য ৩৫টি উত্তর

আপনার মন্তব্য লিখুন

ছবি সংযুক্ত করতে এখানে ড্রাগ করে আনুন অথবা কম্পিউটারের নির্ধারিত স্থান থেকে সংযুক্ত করুন (সর্বোচ্চ ইমেজ সাইজঃ ১০ মেগাবাইট)
Shore O Shore A Hrosho I Dirgho I Hrosho U Dirgho U Ri E OI O OU Ka Kha Ga Gha Uma Cha Chha Ja Jha Yon To TTho Do Dho MurdhonNo TTo Tho DDo DDho No Po Fo Bo Vo Mo Ontoshto Zo Ro Lo Talobyo Sho Murdhonyo So Dontyo So Ho Zukto Kho Doye Bindu Ro Dhoye Bindu Ro Ontosthyo Yo Khondo Tto Uniswor Bisworgo Chondro Bindu A Kar E Kar O Kar Hrosho I Kar Dirgho I Kar Hrosho U Kar Dirgho U Kar Ou Kar Oi Kar Joiner Ro Fola Zo Fola Ref Ri Kar Hoshonto Doi Bo Dari SpaceBar
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :
আলোচিত ব্লগ

আমাদের কথা এমন লগনে তুমি কী ভাবো না ?

লিখেছেন সেলিম আনোয়ার, ২৬ শে জানুয়ারি, ২০২২ বিকাল ৫:৩৩



প্রবল বৃষ্টি
তোমার জ্বর,
বৃষ্টিতে আটকা পড়ে
আমি যেন বাসর রাতের অবরুদ্ধ লক্ষ্ণীন্দর।

বসে আছি— কোন এক অদূরে

শীতের প্রকোপ বাড়ে..
কিছুই কী করার নেই
হিমেল হাওয়া গায়ে মেখে
বৈরী আবহাওয়ায়... ...বাকিটুকু পড়ুন

জাতে বাংলাদেশিরা সব পারে!

লিখেছেন মোহাম্মাদ আব্দুলহাক, ২৬ শে জানুয়ারি, ২০২২ বিকাল ৫:৪৮



A rural hospital in an area of Bangladesh vulnerable to rising sea levels has been named winner of the prestigious RIBA International Prize.

সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা বৃদ্ধির জন্য ঝুঁকিপূর্ণ বাংলাদেশের একটি... ...বাকিটুকু পড়ুন

শিক্ষার্থীদের অনশন তো ভাঙল, জিতলো কে ?

লিখেছেন মাহমুদ পিয়াস, ২৬ শে জানুয়ারি, ২০২২ রাত ১০:২৪

কোনো সরকারী অফিসার নয়- মন্ত্রী নয়, একজন অবসরপ্রাপ্ত শিক্ষক জাফর ইকবালের অনুরোধে SUST এর শিক্ষার্থীরা অনশন ভেঙেছে, যিনি প্রায় বছর তিনেক আগেই অবসর গ্রহন করেছেন !
অথচ মাত্র কয়েকদিন আগেও... ...বাকিটুকু পড়ুন

করোনা নির্মূলের জন্য বিশ্বের ঐক্যের দরকার ছিলো

লিখেছেন রাজীব নুর, ২৭ শে জানুয়ারি, ২০২২ রাত ১:১১

ছবিঃ গুগল।

করোনা মহামারী দুই বছর চলছে।
আরো কত বছর চলবে বলা মুশকিল। করোনার ফলে অনেক জাতির অর্থনীতি ভয়ঙ্কর সমস্যার মাঝে প্রবেশ করেছে। করোনামুক্ত হতে হলে- বিশ্বে... ...বাকিটুকু পড়ুন

সামুর মোবাইল এপ্লিকেশনের ইউজার ইন্টারফেস কেমন হতে পারে !

লিখেছেন অপু তানভীর, ২৭ শে জানুয়ারি, ২০২২ দুপুর ১:২১



কয়েক দিন ধরে একটা অনলাইন কোর্সে ফটোশপ এবং ইলাস্ট্রেটরের বিভিন্ন টুলসের ব্যবহার শিখছি। তবে শিখতে গিয়ে যা টের পেলাম তা হচ্ছে আমার ভেতরে ক্রিয়েটিভি শূন্য। যাই হোক, সেখানকার একটা... ...বাকিটুকু পড়ুন

×