somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

আমার পরিচয়

তোমার চোখের তারায়...

আমার পরিসংখ্যান

তন্দ্রাকুমারী
quote icon
আমি একজন অতি সাধারণ মানুষ। কোলাহল বর্জন করে চলার চেষ্টা করি। অন্যের অনুভূতির মূল্যায়ণ করি। বড় হতে চাই না। ভাল হতে চাই। বিঃ দ্রঃ আইডির নামটা মেয়েদের, কিন্তু আমি একজন পুরুষ…
আমার সকল পোস্ট (ক্রমানুসারে)

বাবা প্রসঙ্গ

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ২১ শে মে, ২০১৯ সকাল ৮:০৯


বিশ্বচরাচরে আমাদের পদাতিক জিজ্ঞাসারা যখন পৌঁছায় পূর্ণতায়, তখন বাবা এসে হাজির হয় সামনে। সব উত্তর নিয়ে ঠায় দাঁড়িয়ে তিনি। সর্বরোগের ঔষধ নিয়ে। যেন ঈশ্বরের প্রতিলিপি অলক্ষ্যে। কোন এক বিজন রাতে, শোক-তাপে ছিন্নভিন্ন আমার অস্তিত্ব যেন বিশ্বাস করতে চায় না তার আবিষ্কারের মহাপৃথিবীটাকে। কিন্তু আমাদের... বাকিটুকু পড়ুন

১০ টি মন্তব্য      ৫৭ বার পঠিত     like!

মা

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ২০ শে মে, ২০১৯ বিকাল ৪:৫২

যতদূর দেখা যায় এই মহাবিশ্বে,
শত ক্রোশ পথ পাড়ি দিয়ে দৃষ্টির অভিলাষ
মা'কে দেখেই শেখা।

সৃষ্টির অর্বাচীন পথ কিংবা
নব নব বিজয়ের রথ-
সবকিছু মায়ের অশ্রুশূন্য ফসলের লেখা।

সেখানে কেউ ফুল দেখুক, কবিতা পড়ুক
আর গল্প, সবই মায়ের বন্দনার ছন্দে,
মুক্তির আলোকরেখা।

মা-মাতা-জননী যে নামেই ডাকুক কেউ,
এক সতেজ অনুভব, নিবিড় আদর-
দু হাত ভরে দিতে সদা প্রস্তুত।

যেন ইভ কিংবা... বাকিটুকু পড়ুন

১৪ টি মন্তব্য      ৭৬ বার পঠিত     like!

ব্যক্তিগত ডায়রির পাতা থেকে

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ১৯ শে মে, ২০১৯ রাত ৮:১২


ভূমিকাঃ
ইচ্ছা ছিল ব্লগে গদ্য লিখবো না। কিন্তু আজ লিখছি। ইচ্ছার ধর্মই বদলে যাওয়া। কিভাবে শুরু করবো? গদ্য কিভাবে লেখে আবার! নিজেকে বারবার প্রশ্ন করছি। মন তুই উড়ে যা। উড়িয়ে দিলাম মনটাকে।

নিবেদনঃ
... বাকিটুকু পড়ুন

২৬ টি মন্তব্য      ১৬০ বার পঠিত     like!

অনড় সন্ধ্যায়

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ১৮ ই মে, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:০৭


আলোর বৃক্ষ, না'কি সবুজ অন্ধকার,
কোনটা চাই তোমার-আমার?
নাকি ফুল হয়ে আঁকবো বৈশাখ?
কুলহারা কবি আমি: হাতে হাত থাক?
কবিতার মত কিছু সবুজ ছড়াক।
ভুল করে ভালবাসবে কি বারবার!
কী বললে? দরকার নেই আর?

যে যার অসহায়ত্ব মাঝে বাঁচুক তবে-
কার উত্তর শ্রাবণী যাচে কে কবে?
কোন ঘ্রাণে তবে মাতোয়ারা ছিলে তোমরা,
বিচিত্র ভংগিমায় যে ভাঙছিলে আড়মোড়া!

বিশ্বাসের... বাকিটুকু পড়ুন

১০ টি মন্তব্য      ৪৩ বার পঠিত     like!

স্পর্শকাতর দিন

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ১৮ ই মে, ২০১৯ সকাল ৭:১০


আমাদেরও কিছু কথা ছিল,
ঘুড়িটা বালিকা উড়িয়েই দিল।
বালকের হাতে লাটাই ঝিলমিল,
এখানে গানের সুর ভেসে যায় অনাবিল।
এক একটা আকাশের নীল ভোরে,
গোখুর ফণায়ে উঠে মাথার উপরে।
বালক-বালিকা তখন প্রাণপন ছুটছিল,
ঘুড়িতে আঁকা চিলের চোখগুলো জ্বলজ্বল করছিল।
যে চোখ মাটির দিকে চেয়ে থাকে অপলক,
চেয়ে থাকে মাটির দিকে যে চোখ অপলক।
শব্দ হয় তারপর অনেক গম্ভীর,
তারপর... বাকিটুকু পড়ুন

৬ টি মন্তব্য      ৪১ বার পঠিত     like!

ভালোবাসা ভালোবাসি

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ১৬ ই মে, ২০১৯ সকাল ৮:১৫


যেহেতু মৃত্যুর চেয়ে বড় কোন ঘর নেই
সূর্যের চেয়ে বড় কোন আগন্তুক নেই,
যেহেতু শুধু তুমি বাজো এসব ছন্দে-
হাসি-গানবিহীন সময়ে ভাসো সদানেন্দে,
যেহেতু তোমার সব ভালোলাগাগুলো এখানে
সেহেতু এই সাভানায় তুমি আমার শুধু একজন
আপনার চেয়ে আপন, বনের চেয়ে বন।

তুমি আমার শতজন্মের প্রেম-ব্যথা-যন্ত্রণা
মন্ত্রমুগ্ধ প্রাণ তুমি, আদি ধর্মের দেহহীন বঞ্ছনা
কতবার স্পর্শ করেছিলে হায়... বাকিটুকু পড়ুন

১২ টি মন্তব্য      ৬৯ বার পঠিত     like!

প্রেমের প্রাণ আছে

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ১৫ ই মে, ২০১৯ সকাল ৭:০৫


সত্যিই আমার পুরুষ হৃদয় প্রেমিক হতে চায়,
গতিই একদিন সজীব হবে কি অবুঝ বেদনায়?

কৃষিকাজ না জেনেই তোমার প্রিয় ফুল ফোটাবো,
কী হতে কি হয়ে যাবে-আর তোমায় গান শোনাব!

নিয়মবিহীন লিখবো তোমার জন্য অদ্ভুত সব বসচা,
সুর না এলে তোমার পায়ের দিকেই আমার ভরসা!

তোমার হাসির জন্য খুনী হতে গিয়ে হয়ে যাব... বাকিটুকু পড়ুন

১৪ টি মন্তব্য      ৯১ বার পঠিত     like!

একটি শুকনো বুনো কবিতা

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ১৩ ই মে, ২০১৯ রাত ১০:১৫


আঁধার ছড়িয়ে আছে মেঘ হয়ে
আঁধারে আঁধারে।
গভীর রাতের সে রাঙা স্তব্ধতা
এসে বারে বারে,
ভোরের গোলাপ হয়ে ফুটেছে
অভিসারের দুয়ারে।
আহা ত্রিনয়ন, আহা ভিন্নতা
এসো রোববারে,
এসো স্কটিশ সমস্যা নিয়ে।

এসব শেকড়, বিশুষ্ক আলো
আজো কারাগারে।
সেসব মাঝির শক্ত উরুতে,
অবিভাজ্য সাঁতারে,
বালির সূর্যে মাখা অমৃতে
অমরত্বে, অনাহারে-
বলা, না বলা পরিভাষা
দোলে যে জোয়ারে
যে সংগ্রামে, সে সংকেতে।

বিলুপ্তরাও মরে না... বাকিটুকু পড়ুন

২০ টি মন্তব্য      ৮৯ বার পঠিত     like!

তোমার জন্য এলিজি

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ১২ ই মে, ২০১৯ বিকাল ৫:২৪

হার মানা হার দিলাম তোমায় দিলাম রাণী-
তোমার কাজল-কালো চোখের ভাঁজে
রয়েছে আমার প্রেমের অমিয় বাণী।

তোমার মনের, ঐ না মাধবী বনে,
আজও হারাই সকাল-সন্ধ্যা মাঝে,
হারিয়ে যাই বৃষ্টিস্নাত ভীষণ সন্ধিক্ষণে।

সাঁতার জানিনা বলে- সবাই করছে কানাকানি,
কৃষ্ণচূড়ার গভীর মূলে মরণ ঘ্ণ্টা বাজে,
কালো কাফনে আত্মা সাজায়, বুকের আতরদানী।

ভালবেসে তাই নাম দিয়েছি... বাকিটুকু পড়ুন

৬ টি মন্তব্য      ৩৭ বার পঠিত     like!

শুধু তুমি

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ১১ ই মে, ২০১৯ দুপুর ১:৪৬

আজো জীবন মানে, তোমার ভরাট দু'টি চোখ,
দুপুর মানে, তোমার শরীরে রয়েছে আমার শোক।

পৃথিবী মানে, সন্ধ্যা বেলার বিষন্ন বৈদগ্ধতা,
বুকে-পিঠে তোমার হৃদয় বহন করার উষ্ণতা।

তোমার জন্য হয়েছি আমি, একলা আমি খুব,
তোমার হৃদয়ে, তাইতো সেদিন দিয়েছিলাম ডুব।

অত গভীর কখনো নয়তো সাগরভেজা তল
তারচেয়ে অনেক বেশি, আমার দুই নয়নের জল।

আজও আকাশ মানে,... বাকিটুকু পড়ুন

১০ টি মন্তব্য      ৭৮ বার পঠিত     like!

আমি যদি তোমাকে না পাই

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ০৩ রা মে, ২০১৯ বিকাল ৫:৪৯

হয়তো আমাদের পরিচয় হয়েছিল ঈশ্বরের সর্বোচ্চ করুণার দানে
হয়তো আমার মধ্যে সেই প্রথম পরিচয়ের ক্ষতাক্ত দগদগে আঁচড়-
নোঙর হয়ে থাকবে অসীম সময়ের তীর্থভূমিতে অনন্তকাল।
কিংবা হাওয়াই মিঠাইয়ের মতো তোমার সে মেঘ মেঘ কথা,
আমার খুব পরিচিত কবিতায় আরেক যমুনা হয়ে ফুটবে।
বাতাসে তোমার চুলের গন্ধ ছটফট করতে করতে আমদেরই-
প্রেমের মরুভূমিতে পদচিহ্ন আঁকতে থাকবে ম্যাজিকের... বাকিটুকু পড়ুন

৫ টি মন্তব্য      ৮৬ বার পঠিত     like!

তিনি আর নেই

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ২৫ শে এপ্রিল, ২০১৯ সকাল ৯:৩৫

আমি অপনার খেলনা হবো, দোলনা?
আলোর পথে বন্যা হবো, ঝর্ণা?
আকাশ ছোয়া স্বপ্ন হবো, অনন্যা?
কিংবা একটু কষ্ট হবো, কান্না?
অথবা এক দস্যু হবো, চান না?
আমার আমি দুপুর বেলা খান না,
বুকের ভিতর বৃষ্টি করেন রান্না,
ঘুমের ঘোরে আপনাকে খোঁজেন না।

তিনিতো রেগেই আছেন-
আরেকটু রাগাবেন না?
ঘড়ির মতো শুকনো থাকতে দিন না!

তিনিতো মরেই গেছেন,
আরেকটু... বাকিটুকু পড়ুন

১০ টি মন্তব্য      ৭৬ বার পঠিত     like!

পৃথিবী

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ২৩ শে এপ্রিল, ২০১৯ দুপুর ১২:৪৭

আমিও ঘুমিয়ে ছিলাম, পৃথিবীর প্রস্থ বরাবর
তারপর এক সময়, ভেজা আলোয় পা ডুবিয়ে
অনেক দিন-রাতের শেষে এক বিন্দু অবসর
এসেছে এখানে, জীবন নদীর মত গুটিয়ে।
বারবার বসেছে সে জাহাজের ইঞ্জিনের উপর
তার মুখে অন্য আরেক মুখ আছে লুকিয়ে!

হায় আমার ক্লান্তিকর তাকিয়ে থাকা বিকেল বেলা,
নৈশব্দে পুড়ে যাওয়া ফুসফুসের স্মৃতির ডায়েরী-
কেন এই হিমঘরে এনেছিলে... বাকিটুকু পড়ুন

০ টি মন্তব্য      ১০ বার পঠিত     like!

মাটির কথা

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ২১ শে এপ্রিল, ২০১৯ দুপুর ১:৪৪

একদিন সবকিছু জেগে ওঠবে
আমাদের বেলাভূমিতেও ফুল ফুটবে,
ফুলেদের মস্তিষ্কে অবাক তাকাবো-
যেখানে ঘাসফুলেরা হরিণের মত,
বৃষ্টির রাত হবে পদ্মপাতার গান
দৃষ্টিরা আধো জ্বলে নিভে যাবে;
কুয়াশার খড় দিয়ে গড়া স্বাপ্নিক খাদ্য
নতুন আশা হবে: ঝরে পড়বে
তারপর, সব ফুলেরা আমাদের হবে।

কাকের মিছিলগুলো করবে আহ্বান
বিস্বাদের মনে, আকাশের তারা ছুটবে,
প্রতিজ্ঞালিপি এক শিলারাত্রির মর্মে তখনও
সেখানে লেখা, “শুধু তোমার জন্য.......”

... বাকিটুকু পড়ুন

৬ টি মন্তব্য      ৬৬ বার পঠিত     like!

আত্মপ্রবঞ্চক

লিখেছেন তন্দ্রাকুমারী, ১৭ ই এপ্রিল, ২০১৯ সন্ধ্যা ৬:৪৬

আজও আমি সমুদ্রের উদ্দাম নৃত্য দেখি
পৃথিবীর সব ডাহুক কানে কানে আজও বলে,
ওরা আমায় খুঁজে পায় শাপলা-শালুকের দলে
ঐ গম্ভীর রজনীগন্ধাও দেখা দেয় একাকী;

কী কথা বলে যায় ওরা ভোরের প্রাণে?
আমার অশ্রুহীন কান্নারত কণ্ঠস্বর চুপ
কারণ, আজও আমি তাকে ভালবাসি খুব,
তাঁর বিরহ বেঁচে থাক আমার নিরব গানে।

তৃতীয় বিশ্বে বেদনার মেয়াদ মাত্র... বাকিটুকু পড়ুন

১২ টি মন্তব্য      ৮৩ বার পঠিত     like!
আরো পোস্ট লোড করুন
ব্লগটি ১৭৮৭ বার দেখা হয়েছে

আমার পোস্টে সাম্প্রতিক মন্তব্য

আমার করা সাম্প্রতিক মন্তব্য

আমার প্রিয় পোস্ট

আমার পোস্ট আর্কাইভ