somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

Find Hot Russian Singles – বিশাল জ্বালার অপর নাম

১৫ ই নভেম্বর, ২০১৭ সকাল ১১:৫৯
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :




সামুতে আমার যে কোন পোষ্ট খুললেই ইদানিং পোস্টের শেষে যে এড টা আসে সেটা হচ্ছে Find Hot Russian Singles, একটা সুদর্শনা, স্বল্পবসনা এবং নিঃসন্দেহে আকর্ষনীয়া তরুনী উপুর হয়ে শুয়ে আছে। সাথে আবার জয়েন করার জন্য বাটন ও আছে! তো আমার এটা নিয়ে কোনো সমস্যা নাই। ইন ফ্যাক্ট, কি এড দেখায় এটা নিয়ে আমার তেমন একটা মাথা ব্যাথাই নাই। নেহায়েত চোখের সামনে এমন সুন্দরী তাই মাঝে-মধ্যে চোখ যায়, সেটা কার না যায়!! তবে ট্রাস্ট মি, সুন্দরীকে আমি আমার মা-বোনের মতো না দেখলেও কোন খারাপ নজরে দেখি না। আর জয়েন করার তো কোনো প্রশ্নই আসে না। এতদিন সবই ঠিক-ঠাক মতো চলছিল, সমস্যা বাধলো গতপরশু রাতে!

ফেসবুকে আমার একটা নামমাত্র একাউন্ট আছে, আমি সেখানে একেবারেই সক্রিয় না। আমার বউ এর ব্যাপারটা ঠিক উল্টা। সারাদিন উটপাখির মতো মুখ গোজা থাকে। কিছু বললে উত্তর দেয়, তবে মোবাইলের স্ক্রীন থেকে চোখ সরায় না। ও জানে আমি সামুতে লেখালেখি করি, ল্যাপটপ নিয়ে বসে থাকি। ও নিজে যেহেতু মোবাইল নিয়ে বসে থাকে তাই এটা নিয়ে তেমন কিছু বলে না।

কাল রাতে বললো, ইদানীং দেখি বাসায় যতোক্ষন থাকো, ল্যাপটপ নিয়েই বসে থাকো, টিভিও দেখো না। ঘটনাটা কি? লেখালেখি করো নাকি অন্য কিছু করো?
আমি বললাম, অন্যকিছু মানে কি? অন্যকিছু কি করবো? সামুতে ইদানীং কিছু পরিবর্তন হচ্ছে, তাছাড়া ইটালীর লেখাটাও শেষ করবো তাই একটু বেশী সময় দিচ্ছি। তারপর একটু খোচা দিয়ে বললাম, ফেসবুক বাদ দিয়ে অন্যদিকে নজর দেয়ার সময়ও তোমার তাহলে হয়! ভালোই তো, ভালো না! এই খোচাটা দিয়েই খাল কেটে কুমির আনলাম। ও মোবাইল ফেলে রেখে উঠে এসে বললো, দেখি তো লেটেস্ট কি লিখলা?

আমি পেইজটা ওপেন করে দিয়ে ওর মুখের দিকে হা করে তাকিয়ে রইলাম যেনো একটা এক্সপ্রেশানও মিস না করি। দেখি আমার বউএর হাসি হাসি চাদমুখখানা আস্তে আস্তে অন্ধকার হয়ে যাচ্ছে। দেখছে তো দেখছেই, আবার মাঝে মাঝে মাউস ক্লিকও করে! একটা ছোট লেখা পড়তে এতোক্ষন লাগে? এদিকে বউ এর মুখ থেকে কিছু প্রশংসাবাক্য শোনার জন্য আমার আর তর সইছে না। শেষে আর না পেরে অধৈর্য হয়ে বললাম, একটা ছোট লেখা পড়তে এতোক্ষন লাগে? ধীরে ধীরে ল্যাপটপ থেকে চোখ সরিয়ে ও পূর্ণদৃষ্টিতে আমার দিকে তাকালো। চোখে একটা অপার্থিব গা শিউরানো শীতল ভাব, দেখার ভূল হতে পারে তবে একটু আগুনও দেখলাম বলে মনে হলো। সম্পুর্ন অচেনা দৃষ্টি। ভাবলাম, কি হলো! ইটালীর ভ্রমন কাহিনী পড়ে তো ওর উপর প্রেতাত্মা ভর করার কথা না! ওর সাথে পরবর্তী কথাবার্তা হলো নিম্নরুপ;

- তোমার সব পোষ্টেই মেয়েদের এড কেন?
- এড তো আমি দেই না। আমি কি করে বলবো?
- নিশ্চয়ই তুমি এই ধরনের কোন পেইজে ক্লিক করছো, তাই এই এড আসে।
- তুমি অযথাই সন্দেহ করছো। আশেপাশে এতো ইংলিশ মেয়ে তাদের দিকেই নজর দেই না, আর এতো দুরের রাশিয়ান মেয়ে!! ইনফ্যাক্ট, কোনো সিঙ্গেল মেয়ের ব্যাপারেই আমার কোন ইন্টারেস্ট নাই।
- তাহলে কি ম্যারিড মেয়েদের ব্যাপারে ইন্টারেস্ট তোমার?
- দ্যাখো, কথা প্যাচায়ো না। একমাত্র তুমি ছাড়া আর কোন ম্যারিড মেয়ের প্রতি আমার কোন আগ্রহ নাই। আর তোমার সাথে আজাইরা বিষয় নিয়ে কথা বলারও বিন্দুমাত্র আগ্রহ নাই আমার! ভূলে কোথাও ক্লিক পরতেই পারে, তবে ইন্টেনশনাল কিছু ঘটে নাই। তুমি নিশ্চিত থাকতে পারো। যাইহোক, আমি ঘুমাতে গেলাম। তোমারও ঘুমানো উচিত, তাহলে মাথা ঠান্ডা হবে!

সম্পূর্ন অপ্রত্যাশিত আক্রমনে দিশেহারা অবস্থায় এতো কথা বলতে গিয়ে একটু তোতলা ভাবও চলে এসেছিল আমার কথায়। এতে করে ওর চেহারায় সন্দেহ আরো ঘনীভূত হতে দেখলাম, চোখ দেখে আমার কথায় কোনভাবেই নিশ্চিন্ত হলো বলে মনে হলো না!!

সর্বশেষ আপডেট হলো, আমার সাথে কথা বলে, তবে একটু ত্যাড়াব্যাকা ভাষায়। প্রশ্ন একটা করলে উত্তর দেয় আরেকটা। ফেসবুকে স্ট্যাটাস দিয়েছে, ’ফিলিং স্যাড’। চারিদিকে দেখলাম ’কি হলো, কি হলো’ রবে হাহাকার পরে গিয়েছে। মানুষের কি খেয়েদেয়ে আর কোন কাজ-কাম নাই? আজকাল আনন্দের কিছু ঘটে নাকি? মানুষের তো স্যাডই থাকার কথা! এটা নিয়ে এতো মাতামাতির কি আছে? ভয়ে আছি আবার কোন বেফাস মন্তব্য বা স্ট্যাটাস দিয়ে না বসে!!!

বলেন তো দেখি আমার কি দোষ?

(ছবিটা আমি তুলি নাই, সন্দেহাতীতভাবেই নেট থেকে নেয়া)
সর্বশেষ এডিট : ১৫ ই নভেম্বর, ২০১৭ দুপুর ১২:০২
২৭টি মন্তব্য ২৫টি উত্তর

আপনার মন্তব্য লিখুন

ছবি সংযুক্ত করতে এখানে ড্রাগ করে আনুন অথবা কম্পিউটারের নির্ধারিত স্থান থেকে সংযুক্ত করুন (সর্বোচ্চ ইমেজ সাইজঃ ১০ মেগাবাইট)
Shore O Shore A Hrosho I Dirgho I Hrosho U Dirgho U Ri E OI O OU Ka Kha Ga Gha Uma Cha Chha Ja Jha Yon To TTho Do Dho MurdhonNo TTo Tho DDo DDho No Po Fo Bo Vo Mo Ontoshto Zo Ro Lo Talobyo Sho Murdhonyo So Dontyo So Ho Zukto Kho Doye Bindu Ro Dhoye Bindu Ro Ontosthyo Yo Khondo Tto Uniswor Bisworgo Chondro Bindu A Kar E Kar O Kar Hrosho I Kar Dirgho I Kar Hrosho U Kar Dirgho U Kar Ou Kar Oi Kar Joiner Ro Fola Zo Fola Ref Ri Kar Hoshonto Doi Bo Dari SpaceBar
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :
আলোচিত ব্লগ

ফ্রম সাতক্ষীরা টু বেলগাছিয়া (পর্ব-৯/প্রথম খন্ডের পঞ্চম পর্ব)

লিখেছেন পদাতিক চৌধুরি, ২৬ শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ রাত ১১:৩৪





দুজনের শরীরের উপর ভর দিয়ে টলতে টলতে কোনোক্রমে দাদির খাটিয়ার উদ্দেশ্যে পা বাড়ালাম। উঠোনের এক প্রান্তে দাদিকে শায়িত করা আছে।বুঝতে পারলাম দাদির দাফনের কাজটি ইতিমধ্যে সম্পন্ন হয়ে... ...বাকিটুকু পড়ুন

ভুলে যাওয়া ঠিকানা

লিখেছেন সোনাবীজ; অথবা ধুলোবালিছাই, ২৭ শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ সকাল ৮:৫০

তখন আমার অল্প বয়স, কতই বা আর হবে
মা-চাচি আর খালা-ফুপুর কোল ছেড়েছি সবে
তখন আমি তোমার মতো ছোট্ট ছিলাম কী যে
গেরাম ভরে ঘুরে বেড়াই বাবার কাঁধে চড়ে
সকালবেলা বিছনাখানি থাকতো রোজই ভিজে
ওসব... ...বাকিটুকু পড়ুন

হালচাল- ৩

লিখেছেন জাহিদ হাসান, ২৭ শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ সকাল ৯:৩৩

১। দেশে দুর্নীতি, খুন, ধর্ষন আর চুরি-ডাকাতির বন্যা বইয়ে যাচ্ছে। গতকাল সিলেটের এমসি কলেজে কিছু নরপশু গণধর্ষনের যে ঘটনা ঘটালো তার দৃষ্টান্তমূলক বিচার দাবি করছি। দৃষ্টান্তমূলক বিচারের জন্য আমার মাথায়... ...বাকিটুকু পড়ুন

ব্লগারদের মানবতাবোধ, অন্যায়ের বিরুদ্ধে প্রতিবাদের স্বভাব কি হারিয়ে যাচ্ছে? সবাই কি সব কিছুতে সহনশীল হয়ে যাচ্ছে?

লিখেছেন জাদিদ, ২৭ শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ সকাল ১০:১৩

গত কয়েকদিনে দেশে বেশ কয়েকটি ধর্ষন ও হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটেছে। প্রতিটি ঘটনা এতটাই পৈশাচিক ও বর্বর যে আমি ভেতরে ভেতরে প্রতি মুহুর্তে ক্ষত বিক্ষত হয়েছি ঐ নির্যাতিতদের কথা ভেবে। অদ্ভুত... ...বাকিটুকু পড়ুন

ধরছেন ? এবার মাইরা ফালান !!

লিখেছেন শাহ আজিজ, ২৭ শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ বিকাল ৩:১২





সিলেটের এমসি কলেজ ছাত্রাবাসে তরুণী ধর্ষণ মামলার প্রধান আসামি সাইফুর রহমান (২৮) সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজার সীমান্ত হয়ে ভারত পালাতে চেয়েছিলেন। এ জন্য রোববার ভোর ছয়টার... ...বাকিটুকু পড়ুন

×