somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

'হুমায়ুন আজাদের প্রবচনগুচ্ছ' : পর্ব- ৩

২০ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:৩৮
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :
পড়ুন : পর্ব-১ Click This Link
পড়ুন : পর্ব-২ Click This Link



৪১. আর পঞ্চাশ বছর পর আমাকেও ওরা দেবতা বানাবে; আর আমার বিরুদ্ধে কোনো নতুন প্রতিভা কথা বললে ওরা তাকে ফাঁসিতে ঝুলোবে।

৪২. আমি এতো শক্তিমান আগে জানা ছিলো না। আজকাল মিত্র নয়, শত্রুদের সংখ্যা দেখে আত্মবিশ্বাস ফিরে পাই।

৪৩. পা, বাঙলাদেশে, মাথার থেকে অনেক বেশি গুরুত্বপূর্ণ। পদোন্নতির জন্য এখানে সবাই ব্যগ্র। কিন্তু মাথার যে অবনতি ঘটেছে, তাতে কারো উদ্বেগ নেই।

৪৪. হায়! থাকতো যদি একটি লম্বা পাঞ্জাবি, আমিও খ্যাতি পেতাম মহাপণ্ডিতের।

৪৫. এখানকার একাডেমিগুলো সব ক্লান্ত গর্দভ; মুলো খাওয়া ছাড়া ওগুলোর পক্ষে আর কিছু অসম্ভব।

৪৬. জন্মান্তরবাদ ভারতীয় উপমহাদেশের অবধারিত দর্শন। এ অঞ্চলে একজন্মে পরীক্ষা দিতে হয়, আরেক জন্মে ফল বেরোয়, দু-জন্ম বেকার থাকতে হয়, এবং ভাগ্য প্রসন্ন হ'লে কোনো এক জন্মে চাকুরি মিলতেও পারে।

৪৭. রবীন্দ্রনাথের নোবেল পুরস্কার পাওয়ার দরকার ছিলো না, কিন্তু দরকার ছিলো বাঙলা সাহিত্যের। পুরস্কার না পেলে হিন্দুরা বুঝতো না যে রবীন্দ্রনাথ বড়ো কবি; আর মুসলমানেরা রহিম, করিমকে দাবি করতো বাঙলার শ্রেষ্ঠ কবি হিশেবে।

৪৮. বাঙলাদেশে কয়েকটি নতুন শাস্ত্রের উদ্ভব ঘটেছে; এগুলো হচ্ছে স্তুতিবিজ্ঞান, স্তবসাহিত্য, সুবিধাদর্শন, ও নমস্কারতত্ত্ব।

৪৯. এখানে অসতেরা জনপ্রিয়, সৎ মানুষেরা আক্রান্ত।

৫০. টেলিভিশন, নিকৃষ্ট জিনিশের এক নম্বর পৃষ্ঠপোষক, হিরোইন প্যাথেডিনের থেকেও মারাত্মক। মাদক গোপনে নষ্ট করে কিছু মানুষকে, টেলিভিশন প্রকাশ্যে নষ্ট করে কোটি কোটি মানুষকে।

(চলবে....)
সর্বশেষ এডিট : ২০ শে সেপ্টেম্বর, ২০১৯ দুপুর ১২:৩৮
৩টি মন্তব্য ৩টি উত্তর

আপনার মন্তব্য লিখুন

ছবি সংযুক্ত করতে এখানে ড্রাগ করে আনুন অথবা কম্পিউটারের নির্ধারিত স্থান থেকে সংযুক্ত করুন (সর্বোচ্চ ইমেজ সাইজঃ ১০ মেগাবাইট)
Shore O Shore A Hrosho I Dirgho I Hrosho U Dirgho U Ri E OI O OU Ka Kha Ga Gha Uma Cha Chha Ja Jha Yon To TTho Do Dho MurdhonNo TTo Tho DDo DDho No Po Fo Bo Vo Mo Ontoshto Zo Ro Lo Talobyo Sho Murdhonyo So Dontyo So Ho Zukto Kho Doye Bindu Ro Dhoye Bindu Ro Ontosthyo Yo Khondo Tto Uniswor Bisworgo Chondro Bindu A Kar E Kar O Kar Hrosho I Kar Dirgho I Kar Hrosho U Kar Dirgho U Kar Ou Kar Oi Kar Joiner Ro Fola Zo Fola Ref Ri Kar Hoshonto Doi Bo Dari SpaceBar
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :
আলোচিত ব্লগ

নালন্দাকেন্দ্রিক বৌদ্ধ ঐতিহ্যের পতন: বঙ্গবিজেতা তুর্কি সেনাপতি বিন বখতিয়ার খলজি-ই কি ইতিহাসের একমাত্র খলনায়ক?-(পর্ব:২)

লিখেছেন রূপম রিজওয়ান, ২৫ শে জানুয়ারি, ২০২০ সকাল ১০:২৩


পর্ব ১ এর পর থেকে...
সাত শতকের শুরুর দিকের কথা। গুপ্ত সাম্রাজ্য অস্তমিত প্রায়; ভারতবর্ষ ততদিনে খন্ড-বিখন্ড হয়ে স্বাধীন আঞ্চলিক রাজা-মহাসামন্ত-অধিপতিদের অধীনে চলে গিয়েছে। উত্তর ভারতের থানেসরের সিংহাসনে... ...বাকিটুকু পড়ুন

Dr. Jahangir Kabir

লিখেছেন চোরাবালি-, ২৫ শে জানুয়ারি, ২০২০ সকাল ১১:২৮



বর্তমান সময়ে ফেসবুক ও ইউটিউব জগতের সারা জাগানো বাংলাদেশী Dr. Jahangir Kabir। যদিও পত্রিকায় তাকে নিয়ে কোন সংবাদ আমার চোখে পরে নাই বা দেখা মেলে নাই "ইত্যাদি"তেও, কেননা আমরা... ...বাকিটুকু পড়ুন

নতুন জীবন- সোফি

লিখেছেন করুণাধারা, ২৫ শে জানুয়ারি, ২০২০ দুপুর ১২:২৪



 আমি আবার বললাম,
"জুতা না খুলে কোনভাবেই পা বের করতে পারবেনা!"

সোফি আবারো আতঙ্কিত গলায় বলল,

" না না, কিছুতেই না! আমি কিছুতেই জুতা খুলব না!"

আমি বুঝতে পারলাম না কি... ...বাকিটুকু পড়ুন

ডিসিসি নির্বাচন : প্রতিশ্রুতি - আওয়ামী লীগ vs বিএনপি

লিখেছেন বিচার মানি তালগাছ আমার, ২৫ শে জানুয়ারি, ২০২০ দুপুর ১২:৫২



ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনী প্রচারণা -
প্রতিশ্রুতি -
আতিকুল ইসলাম - অসমাপ্ত কাজ শেষ করতে চাই। যানজট কমাতে চাই। ব্লা ব্লা ব্লা...
তাবিথ আউয়াল - এই সরকারের বিরুদ্ধে জনগণ ভোট... ...বাকিটুকু পড়ুন

একটি গ্রাম্য সালিশ এবং আমাদের নারীবাদি সমাজ।

লিখেছেন জাহিদুল ইসলাম ২৭, ২৫ শে জানুয়ারি, ২০২০ বিকাল ৫:১২


এক গ্রামে বিচার সালিশ বসেছে--ধর্ষনের বিচার।মতিন নামের এক ব্যাক্তি শরিফা নামের এক মেয়েকে ধর্ষন করেছে।গ্রামের মাতবর সবদিক বিচার করে রায় দিল ধর্ষক মতিনকে সবার সামনে প্রকাশ্যে... ...বাকিটুকু পড়ুন

×