somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

এই পোস্টটি লেখক নিজে সরিয়ে ফেলেছেন, বিস্তারিত জানতে পোস্টটির লেখকের সাথে যোগাযোগ করুন।

আলোচিত ব্লগ

আলী জাকের মারা গেছেন

লিখেছেন শাহ আজিজ, ২৭ শে নভেম্বর, ২০২০ সকাল ১০:১৪


ভোর বেলা আজ তাড়াতাড়ি উঠে গেছি , কেন জানিনা । পি সি খুলে কেউ একজন বাংলা একাডেমী ইন্টারন্যাশনাল সাইটে দুসংবাদটি দিল । পত্রিকায় আসেনি তখনো । ক্যান্সারে... ...বাকিটুকু পড়ুন

ঢাকার শিক্ষক, কবি, লেখক, অভিনেতা, সমাজকর্মী, উচচ-পদস্হ কর্মচারীরা চুপচাপ মরছেন!

লিখেছেন চাঁদগাজী, ২৭ শে নভেম্বর, ২০২০ সকাল ১১:৫০



যাযাবর সম্প্রদায়ের গৃহকর্তা পানি খাবে; পানি আনার জন্য অর্ডার দেয়ার আগে, ছেলেমেয়ে, বা বউকে কাছে ডাকবে; যে'জন কাছে আসবে, তার হাতে একটা থাপ্পড় দেবে জোরে, বিনাকারণে এই... ...বাকিটুকু পড়ুন

শেষ কাব্য

লিখেছেন ঠাকুরমাহমুদ, ২৭ শে নভেম্বর, ২০২০ দুপুর ১২:৫৮



হতেই পারে এই রাত শেষ রাত
হতেই পারে এই দিন শেষ দিন,
হতেই পারে এই লেখা শেষ লেখা
হতেই পারে এই দেখা শেষ দেখা।

হতেই পারে এই চোখ শেষ আঁকা
হতেই পারে এই চোখে... ...বাকিটুকু পড়ুন

প্রায় দেড় মিলিয়ন ভিউসংখ্যার ভিডিওটিসহ আমার ইউটিউব চ্যানেলের শীর্ষ ১৫টি মিউজিক ভিডিও

লিখেছেন সোনাবীজ; অথবা ধুলোবালিছাই, ২৭ শে নভেম্বর, ২০২০ দুপুর ১:৫৩



আপনারা অনেকেই জানেন, আমি ব্লগিং করার পাশাপাশি ভ্লগিংও (ইউটিউবিং) করে থাকি, ফেইসবুকিং-এর কথা তো বলাই বাহুল্য। আজ এ পোস্ট ফাইনাল করতে যেয়ে দেখলাম, ইউটিউবে আমার অ্যাকাউন্ট ওপেন করার তারিখ... ...বাকিটুকু পড়ুন

স্বপ্ন সেতু পদ্মা-- ফটোব্লগ

লিখেছেন সাদা মনের মানুষ, ২৭ শে নভেম্বর, ২০২০ বিকাল ৪:২৪


স্বপ্ন সেতু পদ্মা নির্মিত হচ্ছে অনেক দিন হল। এই নির্মান যজ্ঞ দেখার জন্য বেশ কিছু দিন যাবৎ যাই যাই করেও যাওয়া হচ্ছিল না। অবশেষে শিকে ছিড়ল কয়েক দিন আগে। পদ্মা... ...বাকিটুকু পড়ুন

নির্বাচিত ব্লগ

ম্যারাডোনার মৃত্যুতে তাকে স্মরণ করে কিছু কথা বলতে চাই।

লিখেছেন রিনকু১৯৭৭, ২৬ শে নভেম্বর, ২০২০ দুপুর ১:১৪



ম্যারাডোনা। এই একজনই পেরেছে গোটা বাংলাদেশের ফুটবল সমর্থকদের সমর্থন বিভক্ত করতে। বাংলাদেশের ফুটবল ফ্যান বলতেই বুঝায় ব্রাজিল আর আর্জেন্টিনা। এর বাইরেও ইতালি, জার্মানি, স্পেনসহ বিভিন্ন দেশের সমর্থক রয়েছে তবেমূলসমর্থন মানুষজন দেয় ব্রাজিল আর আর্জেন্টিনাকেই। ব্রাজিলকে কিন্তু সমর্থন করে গোটা দল হিসেবে। সেখানে নির্দিষ্ট কোনো খেলোয়াড়ের ভূমিকার চাইতে গোটা দলের দৃষ্টিনন্দন খেলার জন্যই সমর্থন পায়।



গ্যারান্টি দিয়ে বলতে পারি আজ বাংলাদেশে আর্জেন্টিনার যারা সমর্থক তাদের বেশীরভাগই কিন্তু আর্জেন্টিনার দলকে দেখে সমর্থন করেনা। তারা ঐ একজন ম্যারাডোনার জন্যই দলটিকে সমর্থন করে। গোটা বাংলাদেশে আর্জেন্টিনার বিপুল সংখ্যক ফ্যান তৈরী করতে একমাত্র এই ম্যারাডোনাই পেরেছে। সেই ধারাবাহিকতা এখনো চলছে।

টিভিতে সরাসরি তার খেলা আমি অনেকবার... ...বাকিটুকু পড়ুন

শীত বিলাস ২০২০

লিখেছেন মরুভূমির জলদস্যু, ২৬ শে নভেম্বর, ২০২০ দুপুর ১২:৩৬



শীত আসে শীত যায়, আমরা শহুরে মানুষেরা টেরই পাই না। গ্রামীণ শীত উপভোগ করার জন্য আমরা গত কয়েক বছর যাবত ঢাকার খুব কাছেই নাগরীতে ধানি জমির মাঝে আমাদের আশ্রমের জন্য নিজেদের কেনা জমিতে তাবু খাটিয়ে অন্ততো এক রাত থেকে আসি। পুকুর সেচে মাঝ ধরার আয়োজন করি।

আয়োজন থাকে অনেক। ৭/৮ টা মশাল তৈরি করা হয়, সেগুলি সারা রাত জ্বলতে থাকে তাবু আর পুকুরের চারপাশে।
তাবুর সামনে ২টি বিশাল ক্যাম্প ফায়ারের ব্যবস্থা করা হয়। একটি সারা রাত জ্বলে, অন্যটি আগুন নিভিয়ে তার কয়লায় করা হয় মাছ আর মুরগির বারবিকিউ।
নিজেরাই রান্না করি হাঁসের ঝাল ভুনা।
ভাত, ডাল, তরকারি, ভর্তা আসে গ্রামের গৃহস্থ বাড়ি থেকে রান্না... ...বাকিটুকু পড়ুন

নক্ষত্রের পতন !!! বিদায় ফুটবল ঈশ্বর । ভালো থেকো ওপারে।

লিখেছেন মোহামমদ কামরুজজামান, ২৬ শে নভেম্বর, ২০২০ দুপুর ১২:১২



বুয়েনস আইরেসের এক দরিদ্র এলাকায় ৩০ অক্টোবর ১৯৬০ জন্মেছিলেন দিয়েগো আরমান্দো ম্যারাডোনা।সেই তিনিই কিন্তু ফুটবল সুপারস্টার হয়ে সেই দারিদ্রের জাল থেকে বেরিয়ে এসেছিলেন, যাকে অনেকেই মনে করেন খেলোয়াড় হিসেবে ব্রাজিলের পেলের চাইতেও শ্রেষ্ঠ।এক জরিপে পেলেকে পেছনে ফেলে 'বিংশ শতাব্দীর শ্রেষ্ঠতম ফুটবলার' হয়েছিলেন ম্যারাডোনা। পরে ফিফা ভোটিংএর নিয়ম পাল্টায় যাতে এই দুই তারকাকেই সম্মানিত করা যায়।

বিংশ শতাব্দীর শ্রেষ্ঠতম ফুটবলার ডিয়েগো ম্যারাডোনা পৃথিবী ছাড়লেন ২৫ নভেম্বর ২০২০ আর্জেন্টাইন সময় বিকেলে বেলায়।যে পৃথিবীতে গত ৬০ বছর তিনি ছিলেন কোটি মানুষের হৃদয়ে-স্বপ্নে-ভালোবাসায়-উল্লাসে-বেদনায়। পায়ের টোকায় তৈরি করেছেন শিল্পের সৌধ। মানুষকে সঙ্গে নিয়ে গেছেন কল্পনার রাজ্যে। সাফল্য পায়ে লুটিয়েছে, আবার ব্যর্থতাও এমন মাত্রা পেয়েছে... ...বাকিটুকু পড়ুন

লাটিম ঘোরানোর ছেলে বেলা!

লিখেছেন শফিউল আলম চৌধূরী, ২৬ শে নভেম্বর, ২০২০ রাত ৩:৩৫

আমাদের বাড়ির সামনে ছোট্টো একটা মাঠ ছিলো। মাঠ ছোট হলে কি হবে, একই মাঠে এক পাশে আমরা খেলতাম স্যাডো ক্রিকেট, অন্য পাড়ার ছেলেরা খেলতো স্যাডো ক্রিকেট। আর এক পাশে এলাকার ছোট মেয়েরা খেলতো গোল্লাছুট কিংবা ডিম কুসুম কিংবা অন্য কিছু।



এলাকায় মিজান নামে একজন ছিলো; সবাই তাকে মিজান নেতা বলে ডাকতো। সব কিছুতেই তার নেতাগিরি; শুধু কাজের সময় খোঁজ থাকতো না। ভোটের সময় সে কোন দলের হয়ে কাজ করবে এটা হিসাব করে শেষ করতে করতেই ভোট পার হয়ে কেউ একজন নির্বাচিত হয়ে যেতো। তারই মেঝ ভাই মিলন, আমার ক্লাসমেট, প্রতি বছরই গোটা ৩/৪ ক্রিকেট টুর্নামেন্ট আয়োজন করতো। মোটামুটি এটা... ...বাকিটুকু পড়ুন

রম্য : মুরগীর ট্রেনযাত্রা !!

লিখেছেন গেছো দাদা, ২৬ শে নভেম্বর, ২০২০ রাত ১:২৪

বছর কুড়ি আগের কথা। প্যাসেঞ্জার ট্রেনে যাচ্ছি আসানসোল থেকে আদরা। ট্রেন ভর্তি ভর্তি, খুঁজলে দু-একটা সিট মিলবে। যেমন আমি পেয়েছি। আর ওই যে লুঙ্গি পরা, ময়লা পাঞ্জাবি, হাতে একটা সরু দড়ি, অন্য প্রান্তে বাঁধা এক যুবতী মুরগির ঠ্যাং; উনি খোঁজেন নি। সটান উঠে হাতের প্রান্ত বেশ তরিবত করে দরজার রডে বেঁধে দিলেন, আর দরজার সামনে মেঝেতে বসে পড়লেন দেহাতি স্টাইলে। মুরগিটিও বেশ পোষ মানা টাইপের। নিশ্চিন্তে চলন্ত ট্রেনের হাওয়া খেতে আরম্ভ করল।
টি-টি বাবু এলেন। হঠাৎ হঠাৎ এনাদের উদয় হয়। এনারা না এলে বড্ড আফসোস হয়; টিকিটের পয়সাটা ফালতুই গেল। আর এলে যাই বলুন, আমার কিন্তু বেশ টেনশন হয়। টিকিটটা... ...বাকিটুকু পড়ুন