somewhere in... blog
x
ফোনেটিক ইউনিজয় বিজয়

আমার দ্বিবর্ষপূর্তি এবং প্রাসঙ্গিক কিছু কথা

০৩ রা এপ্রিল, ২০১২ রাত ১০:১৬
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :

ব্লগে আরো একটি বছর পার করে ফেললাম।
স্ট্যাটিস্টিক্যালি এটা একটা অর্জন,ব্যক্তিগত জীবনের পাশাপাশি ভার্চুয়াল পৃথিবীতে পরিচিত এবং মনিটরের ওপাশে অপরিচিত মানুষগুলোর সাথে আরো একটি বছর পার করে ফেলাটা একটি অভিজ্ঞতাই বটে!

সামহোয়্যারে একজন ব্লগারের ডানদিকের পরিসংখ্যান বারে বেশ কিছু পরিসংখ্যান উল্লেখ করা থাকে,সেইখানে ব্লগিং বয়সটাও একটি পরিসংখ্যানগত অর্জনের বেশি কিছু নয় বলে মনে করি।এই সময়ের মাঝে আমার পরিসংখ্যানগত অর্জনগুলো ছিলো-
■পোস্ট করেছেন: ৬০টি
■মন্তব্য করেছেন: ৭৫৮৬টি
■মন্তব্য পেয়েছেন: ৮০৯৬টি
■ব্লগ লিখেছেন: ২ বছর ৬ দিন
■ব্লগটি মোট ১০৫৩৩০ বার দেখা হয়েছে
■পোস্ট প্রিয়তে নিয়েছেন(সর্বমোট)-৭৯৫ জন অর্থাৎ পোস্ট প্রতি ১৩ জনের কিছু বেশি।
■প্রতিটি পোস্টের গড় হিট - ১৭৫৫

যেহেতু হিটাকাঙ্খী ব্লগার নই,সুতরাং খুব একটা খারাপ অর্জন বলবোনা।যে সময়ে সবাই হিট ব্লগার হবার উপায় নিয়ে গবেষনা চালাচ্ছেন,সেই সময়ে সবচেয়ে(!)ধীর গতির একলক্ষ হিট (১১ই মার্চ,২০১২ বেলা-৪.৪৩ মিনিটে)পাওয়াটাও এক ধরনের কৃতিত্বই বটে।এই সময়ের ভেতরে সেরা ব্লগার নির্বাচন নিয়ে অনেক তর্ক-বিতর্ক হয়েছে,কেউ কেউ সেই বিতর্কে আমাকে মাল্টিনিকবাজির অভিযোগে অভিযুক্ত করার চেষ্টা করেছিলেন,যা আমার নজর এড়ায়নি।

দুর্নাম আছে,ব্লগে কম পোস্ট করার।তারপরও বিগত একটি বছরে ব্লগে সিনেমা , সমসাময়িকরাজনৈতিক বিষয়াবলী নিয়ে স্যাটায়ার, ,মাসের সেরা সংকলন পোস্ট- বিভিন্ন দিক নিয়েই লেখার চেষ্টা ছিলো,ভবিষ্যতে আরো গঠনমূলক বিষয়ে লেখালেখির চেষ্টা থাকবে।।বিভিন্ন ব্যস্ততার কারনে সংকলন পোস্ট আর চালিয়ে যাওয়া সম্ভব হয়নি বলে আগেই পাঠকদের কাছে ক্ষমা চেয়ে নিয়েছি।ব্লগার যেড ফ্রমএ সংকলন পোস্ট চালিয়ে নেয়ার প্রত্যয় ব্যক্ত করলেও পরবর্তীতে ব্লগার মাইনাচ আবার মাসের সেরা সংকলন পোস্ট তৈরীর কাজ শুরু করেন।তাঁকে ধন্যবাদ সুকঠিন একটি কাজের দায়িত্ব নেয়ার জন্য,যদিও সংকলন পোস্ট তৈরীতে উনি পোস্টের মান সঠিকভাবে বিচার করছেন না বলেই মনে হয়েছে।
এই সময়ের মাঝেই মুভি লালটিপ নিয়ে আমার লেখা একটি স্যাটায়ার পোস্ট পাঠকদের কল্যানে প্রচন্ড জনপ্রিয়তা পেয়ে ফেসবুক সহ সমগ্র ব্লগোস্ফিয়ারে ভাইরাসের মত ছড়িয়ে গিয়েছিলো।স্বয়ং পরিচালক এই পোস্টের জন্য আমাকে জেল জরিমানার হুমকি দিলে সহব্লগার ও নেটিজেনরা ব্লগ,ফেসবুক-গ্রুপ -সবখানেই এর প্রতিবাদ জানিয়েছিলেন।সবাইকেই অনেক ধন্যবাদ জানাই।একটা বিষয় না উল্লেখ করার লোভ সামলাতে পারছিনা,পোস্টটি বিশ্বে বাংলা ভাষার সবচেয়ে বড় প্ল্যাটফর্ম সামহোয়্যার ইন ব্লগে স্টিকি না হওয়া পোস্টগুলোর মাঝে সর্বাধিকবার পঠিত,সর্বাপেক্ষা দ্রুত শেয়ার এবং পজেটিভ রেটিং পেয়েছে।সকল কৃতিত্ব পাঠকদের।

প্রতি বছরের মতো এবারও প্রকাশিত হয়েছিলো সামহোয়্যারইন ব্লগের ব্লগারদের বাছাই করা লেখার ষষ্ঠ সংকলন অপর বাস্তব-৬।ব্লগার রেজোওয়ানা'র সম্পাদনায় প্রকাশিত অপর বাস্তব-৬ এর থীম ছিলো রম্য।সে হিসেবে এই অধমের একটি লেখা কোনোমতে স্থান করে নিয়েছিলো।রেজোওয়ানা এবং সম্পাদক প্যানেলের সবাইকে ধন্যবাদ।

বিকল্প মিডিয়া হিসেবে বাংলাদেশে ব্লগ একটি শক্তিশালী অবস্থান তৈরী করে নিচ্ছে।ফেসবুকও এর থেকে দূরে নয়।তাই নিজেকে সম্ভব সর্বত্র ছড়িয়ে দেবার উদ্দেশ্যে নিজের একটি ফেসবুক অ্যাকাউন্ট ,টুইটার অ্যাকাউন্ট এবং ব্লগের কন্টেন্ট ব্যাক আপ রাখা ও ননব্লগারদের সাথে যোগাযোগের মাধ্যম হিসেবে দূর্যোধন ব্লগস্পট খোলা হয়েছে।কারো কোনো উপকারে আসলে ভালো লাগবে।একইসাথে কিছুদিন চতুর্মাত্রিক ব্লগেও লেখালেখি করার চেষ্টা করা হয়েছিলো।তবে সেখানে মিথষ্ক্রিয়তার জন্য প্রয়োজনীয় পর্যাপ্ত সময়ের অভাবে আর লেখালেখি করা হয়ে ওঠেনি।

আগের বছরে বর্ষপূর্তি পোস্টে সামহোয়্যারের প্রিয় ব্লগারদের নিয়ে লিখেছিলাম।অনেকেই এখনও আছেন,অনেকেই এই এক বছরে নিরুদ্দেশ,কেউ অনিয়মিত হয়ে গেছেন।প্রিয়দের পাশাপাশি ব্লগের উল্লেখযোগ্য নবীন-প্রবীনদের নিয়ে প্রিয়-অপ্রিয় কিছু বিষয় তুলে আনার চেষ্টা করার প্রচেষ্টা থেকে এই পোস্টের সৃষ্টি।

ফিউশন ফাইভ নিঃসন্দেহে দ্যা মোস্ট ভার্সেটাইল ক্যারেক্টার ইন বেঙ্গলি ব্লগ প্ল্যাটফরম।এমন কোনো বিষয় নেই যেখানে তিনি বিচরন করেন নি।বিশেষতঃ ফিরে দেখা সিরিজটির মত অসাধারন পরিশ্রমী পোস্ট তাকে সবার কাছ থেকে আলাদা করেছে।সাম্প্রতিক সময়ে রস+আলোতে ফিউশন রহমান নামে লিখছেন,সামুতে কিছুটা অনিয়মিত।পারিবারিক ও ব্যবসায়িক ব্যস্ততাকে এর কারন বললেও কেউ কেউ লাটভিয়ান তরুনীকে বিয়ে (!)করার কারনকেই প্রধান হিসেবে গন্য করেন।
ইমন জুবায়ের-তার ক্রমাগত ভালো পোস্ট করে যাওয়ার সাথে আপনি কেবল জার্মান ফুটবল টীমের ৯০ মিনিট ধরে একই গতিতে খেলে যাওয়ার তুলনা করতে পারেন।গেলো বছর ডয়েশে ভেলের ব্লগ প্রতিযোগিতায় সেরা ব্লগার পুরষ্কারের জন্য মনোনীত হলেও নজিরবিহীন জোচ্চুরীর প্রতিবাদে মনোনয়ন প্রত্যাহার করে নিয়েছিলেন।আপনার আত্মসম্মানবোধের প্রতি সর্বদাই শ্রদ্ধা থাকবে।
হাসান মাহবুব অসম্ভব মেধাবী এক লেখক,ব্লগের সকল নবীনদের অন্যতম প্রধান উৎসাহদাতা,যিনি কমেন্ট ব্যান অবস্থায়ও থেমে থাকেন নি।পরপর তিন তিনবার অপরবাস্তবে তার লেখা স্থান করে নিয়েছে।এই বছর ব্লগার সমুদ্রকন্যা তাকে বিয়ে করেছেন।বিয়ের পর থেকে তার লেখায় অবশ্য কিছুটা দাম্পত্যবিষয়ক ছোঁয়া বেশি পাচ্ছি।
আলিম আল রাজি-গেল বছরের নির্বাচিত সেরা এই বাচ্চা ব্লগার ভিকারুন্নেসা ইস্যুতে দারুন ভুমিকা পালন করে দেখিয়ে দিয়েছেন,রম্য ছাড়াও উনি বিকল্প মিডিয়া হিসেবে ব্লগ ব্যবহার করতে জানেন।বিভিন্ন কারনে ব্লগ থেকে অনিয়মিত হয়ে গেলেও নিয়মিত রস+আলোতে লিখছেন।

আসিফ মহিউদ্দিন আলোচিত এবং সমালোচিত।জগন্নাথ বিশ্ববিদ্যালয়ে সরকারকর্তৃক শিক্ষার বানিজ্যিকীকরনের বিরুদ্ধে ব্লগার পারভেজ আলমের সাথে মিলিতভাবে প্রবল জনমত গড়ে তোলার জন্য হাজতে যেতে হয়েছিলো তাকে।যদিও বলা হয়েছিলো হিযবুত তাহরীর প্রধান মহিউদ্দিনের ছেলে সন্দেহে তাকে গ্রেপ্তার করা হয়েছিলো।এছাড়া সমকামী অধিকার আদায়ের ক্ষেত্রেও তিনি অনলাইনে ভুমিকা রাখার চেষ্টা করছেন।নাস্তিকতা বিষয়ে তার প্রায়শই উগ্র স্ট্যান্সের জন্য দ্বিমত থাকলেও সামাজিক অসঙ্গতির বিরুদ্ধে স্পষ্টবাদিতার জন্য তাকে আমি পছন্দই করি।এই প্রসঙ্গে আরেকজন ব্লগার পারভেজ আলম'র নাম উল্লেখ করা প্রয়োজন।জাতীয় সম্পদ রক্ষার জন্য অনলাইনে এক্টিভিটি চালিয়ে যাওয়া এই ব্লগার আসিফ মহিউদ্দিন সহ আরো অনেকের সাথে গঠন করেছেন জাতীয় স্বার্থে ব্লগার-অনলাইন এক্টিভিস্ট ফোরাম।ব্লগার দিনমজুর বাংলাদেশের তেল গ্যাস খনিজ সম্পদ প্রভৃতি রক্ষার্থে বরারবরের মতোই ব্লগে এবং ব্লগের বাইরে উচ্চকিত থেকেছেন।ট্রানজিটের সুবিধার্থে রুদ্ধ করে দেয়া তিতাসের গতি উনিই সবার নজরে আনেন,যার ফলশ্রুতিতে তিতাসের উপর তৈরী রাস্তা সরিয়ে নেয়া হয়

ব্লগের আরেকজন প্রতিভাবান ব্লগার সবাক'এর স্যাটায়ারের আমি অসম্ভবরকমের ভক্ত।আগ্রাসী এবং গালিবাজ হিসেবে ব্লগে দুর্নাম থাকলেও সেটা মূলতঃ স্বাধীনতাবিরোধী জামায়াতের বিরুদ্ধে প্রয়োগ করতেই দেখা গিয়েছে।
ব্লগার জুলভার্ন মাঝখানে বেশ কিছুদিন নিরুদ্দেশ ছিলেন।সম্প্রতি আবার তাকে সমসাময়িক বিষয়াবলী নিয়ে বরাবরের মতই দারুন বিশ্লেষনী পোস্ট দিতে দেখা যাচ্ছে।কিছুদিন আগে দুরারোগ্য রোগের চিকিৎসা নিয়ে ফেরা এই ব্লগার এখনও কি প্রানশক্তি নিয়ে ব্লগিং করে যাচ্ছেন,দেখতে ভালোই লাগে।আরেকজন ব্লগার ম্যাভেরিক যাকে গেল বছর তেমন একটা না পেলেও এইবেলায় মোটামুটি নিয়মিত পাচ্ছি।কোনো একটি বিষয় নিয়ে দারুন হোমওয়ার্ক করে বসা এক ব্লগার এই ম্যাভেরিক তাবৎ কঠিন বিষয় খুব সহজেই উপস্থাপন করতে পারেন।রীতিমত ঈর্ষনীয়।
বিডি আইডল মুভি বিষয়ে ব্লগে আমি সহ অনেকেরই ভরসা।গেলো এক বছর সময়ে উনি প্রচুর পোস্ট করছেন যার বেশ ভালো একটি অংশ দখল করে আছে বিভিন্ন রাজনৈতিক ঘটনা।
নাফিস ইফতেখার,একটা সময় প্রবল জনপ্রিয়(এখনও)এই ব্লগার মাঝখানে ব্লগ ছেড়ে গিয়েছিলেন।ফিরে আসার পর থেকে সামু'র সবচে বেশি হিট পাওয়া ব্লগার কৌশিকের সাথেমল্লযুদ্ধে অবতীর্ন হওয়ার কারনেই কিনা,আগের মতো কালজয়ী পোস্ট লিখে সময় খরচ করতে মনে হয় চাচ্ছেন না।
জীবনানন্দদাশের ছায়া-ব্লগে দূর্মুখদের কল্যানে মডুর ছায়া নামে পরিচিত এই ব্লগারের নামের সাথে বিখ্যাত কবির টাইটেল যুক্ত থাকায় কবিতা-টবিতা লিখে বেশ করেই খাচ্ছিলেন।হঠাৎ কেন যে রিভার্স স্যাটায়ারের (!!)লোভে পড়তে গেলেন,প্রভুই জানেন।
এরই মাঝে ব্লগে অর্ধযুগ পার করে ফেলেছেন প্রিয় একরামুল হক শামীম ভাই।বাংলাব্লগ সম্পর্কে ওনার একটি বই এইবার বইমেলায় প্রকাশিত হয়েছে।হ্যারি সেলডন বা কুম্ভকর্ন বা নরাধম এই একবছরেও নিয়মমতোই অনিয়মিত ছিলেন(খুব কম পোস্ট দিয়েছেন)।উদাসী স্বপ্ন বরাবরের মতোই ফিজিক্স নিয়ে ব্লগে মোটামুটি গাইঁগুঁই করার চেষ্টায় ছিলেন,এই লোক পদত্যাগ করলেও উদাসী কিন্তু পদত্যাগ করলেন নাব্লগার ত্রিশোনকু'র রাজনৈতিক বিশ্লেষনমূলক পোস্টগুলো বিগত একটি বছরে বেশ উপভোগ করা হয়েছে,পরিবেশ রক্ষা সম্পর্কিত সচেতনতা সৃষ্টিকারী কর্মকান্ডেও যুক্ত ছিলেন।ব্লগার দাসত্ব খুবই কম লেখালেখি করেন,তারপরও সবসময়ই তার লেখায় যথাসম্ভব তথ্যউপাত্ত সংযোজনের প্রচেষ্টা থাকে,যার কারনে তাকে অনুসরন করতেই হয়।বিগত একটি বছরে ফিরে পেয়েছি আরেকজন খুবই প্রিয় ব্লগার কালীদাসকে।এখনো পুরোপুরি নিয়মিত না হলেও আশা করছি খুব দ্রুতই ব্যস্ততা কাটিয়ে নিয়মিত হয়ে উঠবেন।রাইসুল জুহালা অন্যদের তুলনায় তুলনামূলকভাবে নবীন হলেও তথ্যসমৃদ্ধ অসাধারন লেখনী এবং নস্টালজিক সব ঘটনা দারুনভাবে পোস্টে তুলে আনার কারনে আমার ভালোলাগা ব্লগারদের তালিকায় থাকবেন।সাম্প্রতিক বিচ্ছিন্ন কিছু ঘটনা বাদ দিলে ব্লগার হিসেবে সকল মহলেই জনপ্রিয়তা ধরে রেখেছেন রাইসুল জুহালা।ইশতিয়াক আহমেদ চয়ন -প্রিয় আরেকজন রম্যকার।রম্য ছাড়াও পুরাণ এবং তথ্যভিত্তিক লেখায় ওনার পারদর্শিতা লক্ষনীয়।সাম্প্রতিক সময়ে ব্লগে সিন্ডিকেটবাজি নিয়ে অন্য কয়েকজন ব্লগারের ব্যাপারে অভিযোগ করে আলোচিত হয়ে ওঠা এই ব্লগারের বিরুদ্ধে অসহিষ্ণু আচরনের কথাও জোরেসোরেই শোনা গিয়েছে।
জিসান শা ইকরাম-বর্ষীয়ান এই ব্লগার নিজেকে গ্রাম্য ব্লগার হিসেবে বিনয়ী পরিচিতি প্রদান করতেই ভালোবাসেন।ব্লগের বিভিন্ন আড্ডায় অগ্রসরভুমিকা পালন কারী জিসান শা ইকরাম গেল বছর অনেক ব্লগারকে সাথে নিয়ে সফলভাবে পিকনিকের আয়োজন করেন।তবে এর পেছনে সিন্ডিকেটবাজি'র অভিযোগ বেশ জোরেশোরেই প্রচারিত হয়েছে।শিপু ভাই-'ভন্ডামী দেক্তে না পারা' বলে দাবী করা এই ব্লগার ব্লগে ব্লগফিল্ম নামে ব্যতিক্রমী এক ধারার সৃষ্টি করেছেন।সামাজিক বিভিন্ন ইস্যুতে ওনার এই ব্লগফিল্ম সৃষ্টি বেশ ভালো একটি উদাহরন হয়ে থাকবে।ব্লগার সবাককে মৃত্যুর হুমকী প্রদানের অভিযোগে বেশ কিছুদিন ব্লগ বেশ উত্তাল ছিলো।

ব্লগ প্ল্যাটফর্মে 'লেডি বতুতা' হিসেবে সমধিক পরিচিত ব্লগার জুন।ভ্রমন বিষয়ক পোস্টে অসাধারন এই ব্লগার ভ্রমন ছাড়াও গল্প লেখায় ওনার ঈর্ষনীয় পারদর্শীতা প্রমান করেছেন।এছাড়া একুশে নিয়ে লেখা ডায়রী সিরিজ এবং দৈনন্দিন স্মৃতিকথায় ওনার সাবলীলতা ছিলো দারুন।
ব্লগার রেজোওয়ানা-বাংলা ব্লগের গুটিকয়েক ব্লগার,যাদের পরিচয়ে 'নারী' ব্লগার বসানো লাগে না।বাংলাদেশের ব্লগ প্ল্যাটফর্মে প্রত্নতত্ত্ব বিষয়ে সবচেয়ে সমৃদ্ধ কন্টেন্টের পোস্ট একমাত্র ওনার ব্লগেই পাওয়া যাবে বলে আমার বিশ্বাস।বিশ্ব সভ্যতা এবং বাংলাদেশের উল্লেখযোগ্য পর্যটন এলাকা নিয়ে তৈরী লেখা ওনাকে অন্য উচ্চতায় নিয়ে গেছে।সুতরাং কোনো সন্দেহাতীতভাবেই উনি গেল বছরের সেরা ব্লগার হয়ে নিজেকে আরেকবার প্রমান করেছেন।সম্প্রতি সুলেখিকা হিসেবে মাহমুদা সোনিয়া ব্লগে একটা অবস্থান করে নিচ্ছেন।সিরিজ লেখার অবিসংবাদিত লেখিকা বড় বিলাই শেষ খবর পাওয়া পর্যন্ত সিরিজ লিখছেন।মেঘ বলেছে যাবো যাবো'র একটি ভালো সংবাদের আশায় আছে ব্লগ,আহাদিলকে মাঝে মাঝে উদয় হতে দেখা যাচ্ছে।জেন্ডার স্টাডিজের মতো কঠিন বিষয় নিয়ে লিখতে বসে গোয়েন্দাগিরিতে নেমে পড়েছেন আরজু পনি,দেখা যাক চৌকিদারীতে সফল হন কিনা।দুঃখজনকভাবে প্রিয় বুয়া জেরীকে নিয়মিত পাইনি।তাও বুয়া যতটুকু উপস্থিত থাকে ততটুকুই মঙ্গল।

গেল বছর নিয়মিতভাবে পাওয়া যায়নি রম্যকার জিকসেস-কে।ব্যক্তিগত কাজ নিয়ে ব্যস্ত থাকায় অনুরাগীরা তার পোস্ট থেকে বঞ্চিত হয়েছেন,একই ঘটনা ঘটেছে পাহাড়ের কান্না এবং প্রিয় সিউল রায়হান এর ক্ষেত্রেও।অনুপস্থিতিতে তাদের যোগ্য সঙ্গ দিয়েছেন ব্লগার মুনতা,বিপ্লবী স্বপ্ন,আসিফ মুভি পাগলা,কাঙাল মামা,কুঁড়ের বাদশা,ফারা তন্বী(ফাট্টু??) এবং সরলতালেখাজোকা শামীম ভাই ব্যস্ত ছিলেন তার বিজ্ঞাপন এবং মিউজিক ভিডিও তৈরী নিয়ে। আকাশটালাল যথারীতি কমেন্টবাজি এবং পোস্ট ড্রাফটবাজিতেই ছিলেন।বাঙ্গাল প্রতি মাসে একটি করে পোস্ট দিয়ে কোনোরকমে উপস্থিত থেকেছেন।মুহম্মদ জহিরুল ইসলাম আজকাল অফিস ফাঁকি দিয়ে ভ্রমনে মেতেছেন বলেই ধারনা করি।কর্তৃপক্ষের নজর দেয়ার আহবান করা গেলো।

ভ্রমনের বিষয়ে কথা উঠলোই যখন,উল্লেখযোগ্য কয়েকজন ব্লগারের নাম উল্লেখ না করে পারা যাবে না।সামহোয়্যারইনের ব্লগারদের সুপরিচিত ব্লগার ও অভিযাত্রী দুখী মানব বান্দরবানে মারাত্মক সড়ক দুর্ঘটনায় পতিত হয়ে মৃত্যুর মুখ থেকে ফিরে এসেছেন।ব্লগার সৌম্য ব্লগে মোটামুটি সরব ছিলেন,পর্যটনে আগ্রহী সবাই অভিযাত্রীর এই ডায়েরী পড়ে দেখতে পারেন।এছাড়া সাদামনের মানুষ-এর ব্লগ ভ্রমনপিয়াসী মানুষদের আকাঙ্খা মেটানোর দারুন একটি স্থান হতে পারে।টিংকু ট্রাভেলার-এর কথা নতুন করে আর উল্লেখ করাও মনে হয় বোকামী।

প্রবাসী ব্লগার নাআমি খুবই সাবলীলভাবে তুলে আনছেন তার প্রবাস জীবনের গল্প,সহজ সরল বর্ননা মুগ্ধ করার মতো।ব্লগার শেরজা তপন-এর রুস্কাইয়া ব্লুদা সিরিজও দারুন উপভোগ্য।আরেকজন প্রবাসী ব্লগার এবং চিকিৎসক জর্জিসকেও আমার পাঠ্যতালিকায় রাখি,সাথে থাকেন ব্লগার হিবিজিবি-তার সুললিত এবং সুগঠিত বর্ননাশৈলীর জন্য।

আমার সম্পর্কে একটা ব্লগে একটা দুর্নাম আছে যে আমি কবি এবং কবিতায় খুব একটা আগ্রহী নই।তারপরও ব্লগের ভালো কিছু কবিদের কবিতা পড়ার জন্য তাদের অনুসরন করার চেষ্টা ছিলো।এদের মাঝে অমিত চক্রবর্তী এবং স্বদেশ হাসনাইন বিশেষভাবে প্রণিধানযোগ্য।বইমেলা'১২তে প্রকাশিত হয়েছে স্বদেশ হাসনাইনের 'একজন স্বদেশ চলে গেলে কার কি আসে যায় বইটি।সুলেখক ফাহাদ চৌধুরী'র লেখা ক্ষেত্র বিশেষে আত্মস্থ করতে কষ্ট হয়-স্বীকার করতে দোষ নেই,তবে উনিও ভালো লিখেননস্টালজিক দুর্দান্ত একজন লেখক ।এই বইমেলায় তার আজ তোমার মন খারাপ মেয়ে-বইটি প্রকাশিত হয়েছিলো।মাহী ফ্লোরা সহজসরল সাবলীল ভাষার জন্য বরাবরই আমার প্রিয় লেখিকা,উনিও এই বইমেলায় বেশ কয়েকটি বই প্রকাশ করেছেন।সায়েম মুনও আমার প্রিয় একজন লেখক,সহজবোধ্য গতিশীল লেখার জন্য।এছাড়া আশরাফুল ইসলাম দূর্জয় এবং সুপান্থ সুরাহী'র নাম আসবে এখানে।কিছুদিন আগে খেয়াল করলাম,নিভৃতচারী কবি ছাইরাছ হেলাল তার ব্লগে কমেন্ট নেয়া বন্ধ করে দিয়েছেন,দুঃখজনক বিষয়।

গেল বছরের সেরা ব্লগার হিসেবে নির্বাচিত জাহাজী পোলা বর্তমানে কিছুটা অনিয়মিত,সমুদ্রে দূষন এবং জলদস্যু কর্তৃক আটক বাঙ্গালী নাবিকদের উপর লেখা পোস্টগুলোতে সেরা হবার যৌক্তিকতা প্রমান করেছেন।এছাড়া নাবিক অথৈ সাগরও তার লেখনীর মাধ্যমে মুগ্ধ করে যাচ্ছেন।আরেকজন সেরা ব্লগার মাহমুদুল হাসান কায়রো লিবিয়া ইস্যুতে ব্লগের দারুন ব্যবহার করেছেন,তবে ব্লগে তার বিরুদ্ধে জামায়াত ও পাকিস্তানের পক্ষাবলম্বনের অভিযোগ রয়েছে।

ব্লগে একটা সময় সিনেমা নিয়ে লেখার ব্লগার যখন কম ছিলো,সেই সময় থেকেই এই বিষয়ে নিয়মিত তথ্যসমৃদ্ধ এবং অসাধারন সব পোস্ট দিয়ে আসছেন দারাশিকো।আরেকজন ব্লগার স্নিগ ও সিনেমা বিষয়ে এমনই সব পোস্ট দেয়ার ক্ষমতা রাখেন,তবে স্নিগের ক্ষেত্রে দুর্নাম হলো উনি কম লিখেন। আরেকজনের কথা না উল্লেখ না করলেই নয়,উনি হলেন কাউসার রুশো ।নিঃসন্দেহে আগাগোড়া সিনেমা পাগল লেখক,বর্তমানে সিনেমা টপিকে ব্লগের অন্যতম সেরা ব্লগার।গেল বার সিনেমাখোরদের আড্ডার সফল এক আয়োজন করায় সবার কাছ থেকে প্রশংসা পাওয়ার যোগ্য ব্লগার পুশকিন সিনেমা ছাড়াও সাহিত্যে পারদর্শী।এই বছর আরো কয়েকজনের ব্লগ নিয়মিত দেখা হয়েছে,যাদের মাঝে নাফিজ মুনতাসির রবিন অন্যতম।পুরোপুরি সিনেমা ভক্ত এই ব্লগারের রেকমেন্ডেড লিস্ট নিয়মিত ফলো করার চেষ্টা করি।আর ফেলুদার চারমিনার কে মনে হয় ফিউচার লিজেন্ড,ওয়ান অফ মাই ফেভারিট ব্লগার্স।এদের সবাই সামহোয়্যার ইন ব্লগ প্ল্যাটফর্মকে এমনই উচ্চতায় তুলেছেন,যে সিনেমা রিলেটেড কোনো বিষয়ে অন্য কেউ পাত্তাই পাবেনা।শেষের দিকে পরিচিত হয়েছি মাস্টারের ব্লগের সাথে।সিনেমা তৈরী নিয়ে আগ্রহী থাকলে এনার ব্লগে ঢুঁ মারুন।বেচারা লালটিপের পরিচালকরে কাছ থেকে হুমকী খেয়েছিলেন!ওহ হ্যাঁ, ব্লগার দিপ-এর কথা এখানে না বলাটা অন্যায়ই হতো,ভালো এই লেখক নিজেকে ভবিষ্যত সিনেমা নির্মাতা হিসেবে গড়ে তুলতে চেষ্টা করছেন।পুরোপুরি সিনেমা না নিয়ে ব্যতিক্রমী বিষয় বিজ্ঞাপন নিয়ে লিখছেন তন্ময় ফেরদৌস।এর মাঝে একটি একটি শর্টফিল্মও তৈরি করেছেন উনি।

তুলনামূলকভাবে নবীন ব্লগার -কবি রাজ, ইউসুফ খান,স্বর্ণমৃগ ভালো লিখছেন।ভ্যারিয়েশনে কবিরাজের কথা বিশেষভাবে উল্লেখ করার মতো।আইডিয়াবাজি আর নতুন ধরনের মিক্সিংয়ে সবাইকে ছাড়িয়ে যেতে পারেন নোবিতা রিফু।নতুন হলেও রম্যে ইতিমধ্যে সবার দৃষ্টি আকর্ষন করেছেন চেয়ারম্যান০০৭ এবং আমি তানভীর।মাসের সেরা সংকলন তৈরীর মতো কঠিন কাজ করে যাচ্ছেন ~মাইনাচ~।ব্লগে কম উপস্থিত থাকলেও নিয়মিত রস+আলো'র পাতায় রম্যের ঝড় তুলে চলেছেন কাক নং ৭৯৯(নাসিফ চৌধুরী)।পোস্ট ছাড়াই প্রোফাইল পিকচার দিয়ে নিজেকে আলাদা করে ফেলেছেন সহচর।নিয়মিত উইটি মন্তব্যের জন্য জনপ্রিয় হয়ে উঠছেন বাদ দেন।স্বদেশ ও বৈশ্বিক সমসাময়িক ঘটনার উপর তথ্যসমৃদ্ধ বিশ্লেষন করে ইতিমধ্যে ব্লগে জনপ্রিয়তা পেয়েছেন সিন্ডিকেট ব্লগিংয়ের বিরুদ্ধে গেল বছর প্রথম কিবোর্ড ধরা জাতীয়তাবাদি ঘরানার লেখক প্রজন্ম৮৬পয়গম্বরকল্পবিলাসী স্বপ্ন-এরা তাদের পোস্টগুলোতে বৈচিত্র‌্যের কারনে ব্লগে সবার নজর কাড়তে সক্ষম হয়েছেন।ঠিক একই কারনে এখানে অনিমেষ হৃদয়, নিঃসঙ্গ নির্বাসনমহলদার এবং মিউজিকের জন্য অবশ্যই অবশ্যই কবীর চৌধুরী'র নাম উল্লেখ করতে হবে।প্রসঙ্গত উল্লেখ্য,আরেকজন ব্লগার কবি ও কাব্য -বাংলা সঙ্গীতের এক ব্লগীয় নয়,বিশ্ব আর্কাইভ।বাংলাদেশের সঙ্গীত জগতের সোনালী সময়ের রুচিশীল সব গান এবং ছবির দারুন এক সংগ্রহ গড়ে তুলেছেন এই ভদ্রলোক।ব্লগে লেখার মাধ্যমে মনোযোগ আকর্ষন করাটা কঠিন,মন্তব্যের মাধ্যমে আরো কঠিন সেই কাজটি সহজেই করে যাচ্ছেন স্বাধীকারইনকগনিটো'র যে লেখাটা অপরবাস্তব-৬ তে প্রকাশিত হয়েছিলো,তার মতো রম্য আমি খুব কম পড়েছি।সাহিত্যেও উনি ভালো।টেকি হিসেবে অনুজীব এবং হাসান জোবায়ের দুজনই ভালো রকমের লেখা উপহার দিয়েছেন,কিন্তু দুইজনই এখন অনুপস্থিত।

চতুষ্কোন (ব্রিলিয়্যান্ট!), দূর্বা জাহান,নোমান নমি(দুর্মুখেরা লুল কবি হিসেবে আখ্যায়িত করেছে),নিশাচর ভবঘুরে,এবং কামরুল হাসান শাহি- সবাই নিয়মিত ব্লগ কে সমৃদ্ধ করে চলেছেন।
এছাড়া বিভিন্ন সময়ে ব্লগকে জাগিয়ে রেখেছেন দেশী পোলা,মেডিকেল স্টুডেন্ট আহমাদ জাদীদ,গেমার বয়,অর্পণ!,ফ্রাঙ্কেনস্টাইন,ডেজা-ভু,আরুশা,রিয়াল রিফাত,হাবিবউল্যাহ, শশী হিমু,পাকাচুল,মিরাশদার১০(অসম্ভব শক্তিমান লেখক,অ্যা হ্যাপী রাইটার),সাধারনমানুষ,দি ফ্লাইং ডাচম্যান,নিমচাঁদ,ঈষাম,অন্ধকারের রাজপুত্র,বিখ্যাত ও কুখ্যাত জাতির নানা,স্বাধীনতার বার্তা,নীরব দর্শক,মারাত্মক মেধাবী লেখক প্লিওসিন অথবা গ্লসিয়ার,পছন্দের মিরাজ ইজ,আমি তুমি আমরা,শুন্য উপত্যকা(অনুপস্থিত),ইকারুসের ডানা(নতুন পরিচয়ে পুরানো পাপী),আরিশ ময়ুখ(দুর্দান্ত এক ব্লগার),মাসুদুল হক(ভেন্ট্রিলোকুইস্ট যারা পড়েন নি,এখুনি পড়ে নিন!ইটস অ্যা মাস্ট রীড),ত্রি নি ত্রি,দূরদ্বীপবাসিনী(কাছদ্বীপ নয় কেন,তা নিজেও জানেন না),কিনাদি,প্রিয় শামসীর ভাই,নীল দর্পন(দ্যা রেসিপি),ব্লগীয় ফুল এবং লুলের আর্কাইভ রাজামশাই,কফিশপ ভেন্ডার রিয়েল ডেমোননীরব০০৯,অপরিনত রুমকী,শেখ মিনহাজ হোসেন,শেখ আমিনুল ইসলাম,ছাক্কু হিসেবে সমধিক পরিচিত ইভান,পাগলাটে বেঈমান আমি,প্যাঁক প্যাঁক হাঁস,পরিবেশ দূষনকারী ঈগলপাখি,স্বঘোষিত ফটুকগুরু পাঙ্খাবাবা,ফয়সাল তুর্য,আরেকজন সুলেখক মেমনন,
অসামাজিক০০৭০০৭,মোঃমোজাম হক,মামুন হতভাগা,
মুহসীন৮৬,ফারিয়া,চাটিকিয়াং রুমান,ফারজুল আরেফিন(মুক্তিযুদ্ধে ব্লগীয় আর্কাইভ গড়ে তোলার কাজটির জন্য অসংখ্য ধন্যবাদ প্রাপ্য),সবুজ ভীমরুল,আহমেদ সাব্বির পল্লব,জোবায়ের নিয়ন,কলম বিডি,আশকারি রহমান,ছোট মির্জা,নাইম আহমেদ আকাশ,টানজিমা(বয়কট),সুদীপ্ত কর(আরেকজন সুলেখক),বিতর্কিত উন্মাদ মানব,
গুপ্তঘাতক,রবিন মিলফোর্ড(নিয়মিত ভিজিটর!),ধুসরধ্রুব,শায়মা এবং রুদ্রপ্রতাপ-সকলকে জানাই ধন্যবাদ।

এই সময়ের মাঝে দূর্যোধনকে নিয়ে যেসব পোস্ট সামহোয়্যারে এসেছে(আপডেট হতে থাকবে)-
ব্লগের সকল কবি সাবধান!দুর্যোধন আসছেন- নোমান নমি
একজন ব্লগীয় পাঠকের বর্ষপূর্তি পুস্ট ফিরে দেখা-গাজী খায়রুল হাসান
ফিউশন ফাইভ এবং দূর্যোধন,উনারা আসলে কারা?করে দিলাম মুখোশ উন্মোচন-আরজুপনি
আসুন দেখে নেওয়া যাক সামুর বিভিন্ন জনপ্রিয় ব্লগারদের সর্বপ্রথম পোস্টটি।-রাশান শাহরিয়ান নিপুন
১১ জন ব্লগারকে রেটিং করলাম,রেটিং করুন,সামুর জনপ্রিয় ব্লগার কে হতে পারে?-চেয়ারম্যান সাহেব
নারী-পুরুষ নিয়ে একটি বৈষম্যহীন সমাজের কথা বলি-আরজুপনি
চটি কাহিনী-~মাইনাচ~
একটি কালজয়ী মুভি রিভিউ থেকে বাণিজ্যিক ছবির চরম একটি গল্পের জন্ম-কবি ও কাব্য
লালটিপ সিনেমা+পাঙ্খাটিপস৪-পাঙ্খাবাবা
সামু ব্লগারদের ফেবু ইমো-মাইনাচ
আজকে আমি ফুলপ্যান্ট ব্লগার।বর্ষপুর্তি।পছন্দের,পরিচিত কয়েকজন-সহচর
সামুর ব্লগারেরা যেভাবে প্রপোজ করেছিলেন অথবা করবেন-গাধা মানব
দূর্যোধন নয় বরং স্বপনের মুভি করার স্বাধীনতা কাইড়া নেয়া হোক-বাদ দেন
ছোট গল্পঃট্রিপল সেঞ্চুরি পোস্ট-জুল ভার্ন
পছন্দের ব্লগার-গাধা মানব
দূর্যোধন ভাইয়ের ব্যান চাই-মাইনাচ
শুভ জন্মদিন প্রিয় বাংলাদেশ,শুভ জন্মদিন দূর্যোধন-তন্ময় ফেরদৌস
ছবিব্লগ:দূর্যোধনের ব্লগাড্ডার প্রস্তুতি-দারাশিকো
সামু-CNN ব্রেকিং নিউজঃ অ্যাপলের অফিসে এফবিআই এর হানা।-সুপ্রকাশ ভৌমিক
আশা করি এ ব্যাপারে "উস্তাদ দুর্যোধন" অচিরেই একটি লেখা নাজিল করবেন।-ইবন উমার
সামু-ছাইরাছ হেলাল
যেমন ছিলো ব্লগ ডে!যেমন হওয়া উচিত ছিলো!-ধুর!
৩য় বাংলা ব্লগ দিবসের ব্যবচ্ছেদ-তন্ময় ফেরদৌস
আমার মতে এবারে সেরা দশ ব্লগার নির্বাচন -আলিফারুক
সামহোয়্যারইন আড্ডারু -কাউসার রুশো
ব্লগে দু'বছর পূর্তি,কিছু কথা -কাউসার রুশো
আমার ভাষায় ২৩শে ডিসেম্বর সিনেমাখোর আড্ডা।-নাফিজ মুনতাসির
সামুর সেরা ব্লগার নির্বাচন কি প্রশ্নবিদ্ধ নয়?- আকাশটালাল
আমার প্রিয় ব্লগারগণ-তন্ময় ফেরদৌস

স্থানাভাবে আরো ব্লগারদের লিংক যোগ করা যায়নি।ভবিষ্যতে কমেন্টের ঘরে যুক্ত করার আশা রাখি।বিগত বছরে যারা যারা কমেন্টের মাধ্যমে অনুপ্রানিত করেছেন,সকলকেই জানাই কৃতজ্ঞতা।


সবশেষে বাংলা ব্লগ প্ল্যাটফর্মের মাধ্যমে বাংলা ভাষাচর্চা এবং ওয়েবে বাংলাভাষাকে দিনদিন সমৃদ্ধ করে দেয়ার সুযোগের জন্য বিশাল একটা ধন্যবাদ এবং কৃতজ্ঞতা জানা এবং আরিল দম্পতিকে।

সবাই ভাল থাকুন।
সর্বশেষ এডিট : ২৪ শে এপ্রিল, ২০১২ রাত ২:০৪
১৯৩টি মন্তব্য ১৯৭টি উত্তর পূর্বের ৫০টি মন্তব্য দেখুন

আপনার মন্তব্য লিখুন

ছবি সংযুক্ত করতে এখানে ড্রাগ করে আনুন অথবা কম্পিউটারের নির্ধারিত স্থান থেকে সংযুক্ত করুন (সর্বোচ্চ ইমেজ সাইজঃ ১০ মেগাবাইট)
Shore O Shore A Hrosho I Dirgho I Hrosho U Dirgho U Ri E OI O OU Ka Kha Ga Gha Uma Cha Chha Ja Jha Yon To TTho Do Dho MurdhonNo TTo Tho DDo DDho No Po Fo Bo Vo Mo Ontoshto Zo Ro Lo Talobyo Sho Murdhonyo So Dontyo So Ho Zukto Kho Doye Bindu Ro Dhoye Bindu Ro Ontosthyo Yo Khondo Tto Uniswor Bisworgo Chondro Bindu A Kar E Kar O Kar Hrosho I Kar Dirgho I Kar Hrosho U Kar Dirgho U Kar Ou Kar Oi Kar Joiner Ro Fola Zo Fola Ref Ri Kar Hoshonto Doi Bo Dari SpaceBar
এই পোস্টটি শেয়ার করতে চাইলে :
আলোচিত ব্লগ

সুপ্রিয় কবি নীলপরির "মহিয়সী" কবিতার অনুভবে

লিখেছেন ভ্রমরের ডানা, ১৯ শে অক্টোবর, ২০১৭ রাত ১০:৪৭




ভ্রমরের ডানা

আর তাকেও বলা যায় নক্ষত্র বলাকা পাখা~
হিম হিম বাতাস যার ভালবাসা মধু মাখা..
যে ছুঁয়ে গেছে রহস্যাবৃত উষ্ণসাগর ঘেঁষে
মিহিদানা মিহি প্রেম বালুকা বেলার দেশে...
উত্তর থেকে দক্ষিণ বলয় কোলে..
প্রকাণ্ড সুনামি... ...বাকিটুকু পড়ুন

একরাত থাকা যাক সুইডেনের আরলান্ডা বিমানবন্দরে, হোটেল যখন বিশালাকার বোয়িং ৭৪৭-২০০ জাম্বো জেট

লিখেছেন মাহবুবুল আজাদ, ১৯ শে অক্টোবর, ২০১৭ রাত ১১:২৬




সুইডেনের আরলান্ডা বিমানবন্দর, অন্যরকম একটা অভিজ্ঞতা হতে পারে যে কারো জন্য। এখানে একরাত কাটাতে পারেন ইচ্ছে করলে বিশালাকার বোয়িং ৭৪৭-২০০ বিমানের মধ্যে, আকাশে উড়তে হবেনা্‌ মাটিতেই থাকবে। এটা বিমানবন্দরের... ...বাকিটুকু পড়ুন

অস্তিত্ব

লিখেছেন জাহিদ অনিক, ১৯ শে অক্টোবর, ২০১৭ রাত ১১:৩৯

সন্ধ্যার বেশ কিছু সময় পরের কথা, সারা দিনের খাটাখাটনির পরে বাসে করে বাসায় ফিরছি। সকাল ৭ টায় বের হয়ে বাসায় ফিরছি প্রায় রাত ১০ টার কিছু পরে।

মাঝখানে তিনবার হালকা থেকে... ...বাকিটুকু পড়ুন

একটি ক্ষুদ্র সাফল্যঃ

লিখেছেন খায়রুল আহসান, ২০ শে অক্টোবর, ২০১৭ সকাল ৮:১৪

আমাদের মধ্যে হয়তো এমন অনেকেই আছেন, যারা মাঝে মধ্যে একটু আধটু কিংবা নিয়মিতভাবেই ইংরেজীতেও লেখালেখি করে থাকেন। ইংরেজীতে মাঝে মধ্যে দু’চারটে কবিতাও লিখেছেন, স্রেফ মনের ইচ্ছের কারণেই, এমনও হয়তো... ...বাকিটুকু পড়ুন

প্রকৃতার্থ...

লিখেছেন কথাকথিকেথিকথন, ২০ শে অক্টোবর, ২০১৭ বিকাল ৪:৩৭


আমি কী হারিয়ে যাচ্ছি ? দিনের পর দিন বাড়ছে দেহ ভস্মের ঘ্রাণ। বৃষ্টির জলে আঁকাবাঁকা পথে ভেসে যায় সদ্য ঝরে পড়া ফুল। আমি তার পথ ধরে মিশে যাই জলস্রোতে... ...বাকিটুকু পড়ুন

×